Advertisement

করোনা আবহে আরও বাড়ল বাংলাদেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি, খুলছে না জুনেও

05:54 PM Jun 13, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সুকুমার সরকার, ঢাকা: বাংলাদেশের (Bangladesh) বিভিন্ন অঞ্চলে করোনা পরিস্থিতির অবনতি। কোনও কোনও এলাকায় আংশিকভাবে কঠোর লকডাউন (Lockdown) চলছে। এসবের জেরে সে দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলিতে ছুটি বাড়ল আরও। ৩০ জুন পর্যন্ত বন্ধ স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়। দেশের শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের বক্তব্য, শিক্ষার্থী, শিক্ষক, কর্মচারী ও অভিভাবকদের স্বাস্থ্য সুরক্ষা ও সার্বিক নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখেই এই সিদ্ধান্ত। কোভিড-১৯ (COVID-19) সংক্রান্ত জাতীয় পরামর্শক কমিটির সঙ্গে পরামর্শক্রমে দেশের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিকের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ৩০ জুন পর্যন্ত বন্ধ।

Advertisement

স্কুল, কলেজের পাশাপাশি এবতেদায়ী ও কওমি মাদ্রাসাগুলির ছুটিও আগামী ৩০ জুন পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ আধিকারিক এম এ খায়ের শনিবার এই তথ্য জানিয়েছেন। এর আগে করোনা পরিস্থিতির উন্নতি হলে ১৩ জুন থেকে দেশের সব মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছিল শিক্ষা মন্ত্রণালয়। কিন্তু শনিবার মন্ত্রকের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, দেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলায় করোনা পরিস্থিতির আরও অবনতি ঘটেছে। এছাড়া কোনও কোনও অঞ্চলে আংশিকভাবে কঠোর লকডাউন চলছে।

[আরও পড়ুন: ভাসানচর থেকে পলায়ন শরণার্থীদের, পুলিশের জালে ১২ রোহিঙ্গা]

অতিমারী করোনা ভাইরাসের (Coronavirus) কারণে গত ১৬ মাস অর্থাৎ ১ বছরেরও বেশি সময় ধরে বন্ধ রয়েছে দেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। ফলে ব্যাহত হচ্ছে শিক্ষা কার্যক্রম। এ কারণে সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে ২০২২ সালে এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা হওয়ার কথা। চলতি বছরে এসএসএসি পরীক্ষার্থীরা ৬০ দিন এবং এইচএসসি পরীক্ষার্থীরা ৮৪ দিন ক্লাসের পর পরীক্ষায় অংশ নেবে। আর ২০২২ সালের পরীক্ষার্থীরা যথাক্রমে ১৫০ দিন ও ১৮০ দিন ক্লাস করে পরীক্ষা দেবে। ২০২২ সালের এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা সংক্ষিপ্ত সিলেবাসের ভিত্তিতে হবে। উচ্চ মাধ্যমিক এবং উচ্চ শিক্ষাস্তরে অনলাইনে ক্লাস করছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো। কিন্তু ঘরে বসে এভাবে পড়াশোনায় আর আগ্রহ নেই পডুয়াদের। গত বছর তাদের হোম অ্যাসাইনমেন্টের উপর ভিত্তি করে পরীক্ষা নিতে গিয়ে তেমনই বুঝেছেন শিক্ষকরা।
Advertisement
Next