Coronavirus Update: গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনায় মৃত ২, একধাক্কায় অনেকটা কমল সংক্রমণ

09:49 PM Jun 25, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: একধাক্কায় অনেকটা কমল রাজ্যের করোনা সংক্রমণ। শুক্রবার বাংলায় করোনা আক্রান্ত হয়েছিল ৬৫৭ জন। সেখানে শনিবার রাজ্যে আক্রান্ত হয়েছেন ২৩৫ জন। দৈনিক সংক্রমণের নিরিখে শীর্ষে সেই কলকাতা। অতিমারী প্রাণও কেড়েছে দুজনের। তবে রাজ্যের সংক্রমণ নিম্নমুখী হওয়ায় স্বস্তিতে স্বাস্থ্যদপ্তর।

Advertisement

রাজ্য স্বাস্থ্যদপ্তরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, শনিবার রাজ্যজুড়ে করোনায় (Coronavirus) আক্রান্ত হয়েছেন ২৩৫ জন। যা শুক্রবারের তুলনায় কিছুটা কম। দৈনিক সংক্রমণ কিছুটা কমলেও এখনও শীর্ষে কলকাতা। কারণ, সেখানে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১১৬ জন। সংক্রমণের নিরিখে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে উত্তর ২৪ পরগনা। সেখানে আক্রান্ত ৫২ জন। তারপরেই রয়েছে দক্ষিণ ২৪ পরগনা। ওই জেলায় ১৮ জন কোভিড আক্রান্ত। দক্ষিণবঙ্গে করোনা চোখ রাঙাচ্ছে। তবে উত্তরের জেলাগুলিতে এখনও সংক্রমণ সেভাবে বাড়েনি। শুক্রবার আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার, ঝাড়গ্রাম, কালিম্পং, মুর্শিদাবাদ এবং পুরুলিয়ায় কোভিড আক্রান্ত হননি কেউ। যা স্বস্তি জোগাচ্ছে স্থানীয়দের।

[আরও পড়ুন: এক সপ্তাহ ধরে শ্বাসযন্ত্রে আটকে দারচিনি, জটিল অস্ত্রোপচারে শিশুর প্রাণ বাঁচাল SSKM]

এদিন মৃত্যু হয়েছে দু’জনের। এখনও পর্যন্ত বঙ্গে করোনায় প্রাণ হারিয়েছেন ২১ হাজার ২১৬ জন। মৃত্যুহার ১.০৫ শতাংশ। করোনার বাড়বাড়ন্তের মাঝে স্বস্তি জোগাচ্ছে সুস্থতা। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাকে হারিয়েছেন ২১৭ জন। তার ফলে বঙ্গে কোভিডজয়ীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১৯ লক্ষ ৯৯ হাজার ৭৬৭ জন। সুস্থতার হার ৯৮.৭৮ শতাংশ।

Advertising
Advertising

২০২০ সালের শুরু থেকেই গোটা বিশ্বজুড়ে দাপট দেখাচ্ছে করোনা। সেই সময় থেকে করোনাকে রুখতে টেস্টিংয়ের উপর বিশেষ জোর দেওয়া হয়। তবে ইদানীং টেস্টিংয়ের প্রবণতা কিছুটা কমেছে। শনিবারও কমেছে টেস্টিং। এদিন ৩ হাজার ৩৩২টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এখনও পর্যন্ত মোট ২৫ কোটি ৫০ লক্ষ ৯১ হাজার ৮৯টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। পজিটিভিটি রেট (Positivity Rate) ৭.২৭ শতাংশ।

ভাইরাস মোকাবিলায় টিকাকরণের উপরেও জোর দেওয়া হয়েছে। শনিবার ১ লক্ষ ৫ হাজার ৭৫৬ ডোজ ভ্যাকসিন (Vaccine) দেওয়া হয়েছে। ৩৫ লক্ষ ১৭ হাজার ১০২টি প্রিকশন ডোজ দেওয়া হয়েছে। করোনা বাড়বাড়ন্তের মাঝে ফের সাবধান হওয়ার পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের। ভিড় জায়গায় মাস্ক (Mask) এবং স্যানিটাইজার ব্যবহারের পরামর্শ তাঁদের।

[আরও পড়ুন: ছুটির দিনই কার্নিশ থেকে ঝাঁপ, রোগীর আচরণ ভাবাচ্ছে মল্লিকবাজারের নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষকেও]

 

Advertisement
Next