Advertisement

টিকা নিলেই শরীর ‘চুম্বক’! শিলিগুড়ির পর রাজ্যে খোঁজ মিলল আরও ৩ ‘ম্যাগনেট ম্যানে’র

11:29 AM Jun 14, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ব্যুরো: করোনা (Covid-19) টিকার দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার পরই নাসিকের (Nasik) এক প্রৌঢ়ের শরীর পরিণত হয়েছিল চুম্বকে। সেই খবরে গোটা দেশেই আলোড়ন পড়ে গিয়েছিল। সেই খবর থিতু হতে পারল না, এবার এ রাজ্যেও দেখা মিলল ম্যাগনেট ম্যানের। তাও একজন নয়, একসঙ্গে চারজনের। শিলিগুড়ির (Siliguri) পর এবার আসানসোল (Asansol), নদিয়ার (Nadia) পলাশীপাড়া এবং বসিরহাটেও খোঁজ মিলল ম্যাগনেট মানুষের। এঁদের মধ্যে দু’জন আবার কোভিশিল্ড (Covishield) নিলেও একজন আবার নিয়েছিলেন কোভ্যাক্সিনের (Covaxin) ডোজ।

Advertisement

জানা গিয়েছে, আসানসোলের ম্যাগনেট ম্যানের নাম অঙ্কুশ সাউ। উত্তর আসানসোলের সুকান্তপল্লীর বাসিন্দা ২৭ বছরের অঙ্কুশ সাউয়ের শরীরে লোহার চামচ, গাড়ির চাবি, বা গাড়ির রেঞ্জ যেকোনও ধাতব বস্ত চুম্বকের মতো আটকে যাচ্ছে। আসানসোল পুরনিগমের অস্থায়ী পুরকর্মী অঙ্কুশের দাবি, ভ্যাকসিন নেওয়ার পরেই এই আজব ঘটনা ঘটছে তাঁর শরীরে। গত ৮ জুন তিনি পুরনিগমের স্থানীয় স্বাস্থ্যকেন্দ্রে কোভ্যাক্সিন নিয়েছিলেন। টিভিতে এই আজব খবর দেখার পর তিনিও নিজের শরীরে পরীক্ষা নিরীক্ষা করতেই এই ঘটনা সামনে আসে। অঙ্কুশও দেখেন শরীরে ধাতব জিনিস আটকে যাচ্ছে। অঙ্কুশের দাবি ভ্যাকসিন নেওয়ার পরেই এই ঘটনা ঘটছে। আগে কখনও এমন হয়নি।

[আরও পড়ুন: বিজেপিতে ‘তিক্ত অভিজ্ঞতা’, তৃণমূলে ফিরতে চেয়ে গেরুয়া শিবির ত্যাগ মুকুল ঘনিষ্ঠ নেতার]

তবে শুধু আসানসোল নয়, এরপর আবার বসিরহাট এবং নদিয়াতেও মিলেছে ম্যাগনেট ম্যানের খোঁজ। বসিরহাটের ম্যাগনেট ম্যানের নাম শংকর প্রামাণিক। বসিরহাটের হিঙ্গলগঞ্জ ব্লকের মামুদপুর এলাকার বাসিন্দা তিনি। পেশায় দুর্গাপুর স্টিল প্ল্যান্টের অবসরপ্রাপ্ত কর্মী ৭৪ বছরের শংকর প্রামাণিকের শরীরেও লোহার চামচ, গাড়ির চাবি, বা গাড়ির রেঞ্জ যেকোনও ধাতব বস্তু চুম্বকের মতো আটকে যাচ্ছে। একই ছবি নদিয়ার পলাশীপাড়া থানার সাহেব নগর অভয় নগর গ্রামেও। সেখানেও কোভিশিল্ড নেওয়ার পর এক ব্যক্তির শরীরে আশ্চর্যজনকভাবে তৈরি হয়েছে চৌম্বকীয় শক্তি। তাতে একের পর আটকে যাচ্ছে কয়েন, চামচ, চাবি থেকে শুরু করে অন্যান্য লোহার জিনিস।

[আরও পড়ুন: নজরদারি এড়িয়ে পালানোর সময় দুর্ঘটনায় জখম যুবক, কুশমন্ডিতে পুলিশের গাড়ি ভাঙচুর জনতার]

দেখুন ভিডিও: 

 

Advertisement
Next