Advertisement

‘উত্তরপ্রদেশ এখন করোনা প্রদেশ’, যোগীর বিরুদ্ধে তথ্য লুকনোর অভিযোগ অখিলেশের

11:41 AM Apr 27, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অস্বস্তিতে যোগী আদিত্যনাথ (Yogi Adityanath)। গত কয়েকদিনে উত্তরপ্রদেশের (Uttar Pradesh) মুখ্যমন্ত্রীকে বারবার বলতে শোনা গিয়েছে, করোনা (Coronavirus) আবহে তাঁর রাজ্যে অক্সিজেন, ওষুধ কিংবা হাসপাতালে বেডের কোনও সমস্যা নেই। কিন্তু বিরোধীদের অভিযোগ, তিনি সঠিক তথ্য দিচ্ছেন না। এবার তাঁর মন্তব্যের কার্যত বিরোধিতা করতে দেখা গেল তাঁরই দলীয় সতীর্থদেরও। বিজেপির সাংসদ থেকে শুরু করে রাজ্যের এক মন্ত্রী যোগীকে চিঠি লিখে অভিযোগ করেছেন, মীরাট ও লখনউ-সহ রাজ্যের বহু জায়গাতেই সমস্যা রয়েছে।

Advertisement

উত্তরপ্রদেশের শ্রমিক উন্নয়ন কাউন্সিলের সভাপতি ও রাজ্যের মন্ত্রী সুনীল ভারালা ও লখনউয়ের মোহনলালগঞ্জ কেন্দ্রের সাংসদ কৌশল কিশোর চিঠি লিখেছেন যোগী আদিত্যনাথকে। কৌশলের অভিযোগ, কেজিএমইউ ও বলরামপুর হাসপাতালে বহু বেডই খালি পড়ে আছে। অথচ কর্তৃপক্ষের অনেকেই ছুটিতে চলে গিয়েছেন। নয়তো অতিমারীর মোকাবিলার বিষয়ে সম্পূর্ণ উদাসীন। এই দুই সরকারি হাসপাতালের অব্যবস্থা সম্পর্কে রীতিমতো ক্ষোভ উগরে দিতে দেখা গিয়েছে তাঁকে।

[আরও পড়ুন: করোনা আবহে অক্সিজেন জোগান বাড়াতে বন্ধ থাকা স্টেরলাইট কারখানা খোলার সিদ্ধান্ত তামিলনাডুর]

এদিকে সুনীল বারালার অভিযোগ, অক্সিজেন কিংবা জীবনদায়ী ওষুধের অপ্রতুলতায় প্রবল সমস্যায় পড়তে হচ্ছে সাধারণ মানুষকে। যোগী যেন ব্যক্তিগত ভাবে এই সব বিষয়ে হস্তক্ষেপ করেন। এই ধরনের অভিযোগের মধ্যেই সোমবার যোগী আদিত্যনাথ আবারও দাবি করেন, বেড, অক্সিজেন কিংবা ওষুধ এসবের কোনও সমস্যাই নেই।

এমন পরিস্থিতিতে সমাজবাদী পার্টির প্রধান অখিলেশ যাদব রীতিমতো কটাক্ষ করে জানিয়েছেন, রাজ্য চালাতে বিজেপি সরকারের অযোগ্যতায় উত্তরপ্রদেশ এখন ‘করোনা প্রদেশ’। তাঁর অভিযোগ, রাজ্যে করোনায় মৃতের সংখ্যা নিয়েও মিথ্যে বলছে যোগী সরকার। অখিলেশের কথায়, ‘‘ভুয়ো তথ্য দেওয়া হচ্ছে। মৃতের সংখ্যা কমিয়ে দেখাচ্ছে সরকার। অথচ শ্মশানে ভিড় উপচে পড়ছে। এমনকী, বিজেপির বিধায়ক, সাংসদরাও বর্তমান পরিস্থিতিতে সন্তুষ্ট নন।’’ তাঁর আরজি, নিজেদের নিয়ে ফাঁকা গর্ব না করে বরং করোনা রোগীদের পরিবারের প্রতি সমব্যথী হোক বিজেপি সরকার।

[আরও পড়ুন: দেশের করোনা গ্রাফে সামান্য স্বস্তি, কিছুটা কমল দৈনিক সংক্রমণ ও মৃত্যুর হার]

Advertisement
Next