‘আচমকা কেউ আত্মহত্যার কথা ভাবে না’, সুশান্তের ভিসেরা রিপোর্ট আসতেই তোপ কঙ্গনার

07:33 PM Oct 03, 2020 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: খুন নয়, আত্মঘাতীই হয়েছিলেন সুশান্ত সিং রাজপুত (Sushant Singh Rajput)। শনিবার এই কথা জানিয়েছেন AIIMS-এর ফরেনসিক বিভাগের প্রধান ডা. সুধীর গুপ্ত (Sudhir Gupta)। সুশান্তের চূড়ান্ত ভিসেরা রিপোর্ট প্রকাশ্যে আসার পরই সোশ্যাল মিডিয়ায় মুভি মাফিয়াদের ফের একহাত নিলেন কঙ্গনা রানাউত (Kangana Ranaut)। পাশাপাশি সুশান্তকে ‘রেপিস্ট’ তকমা দেওয়া মিডিয়ারও সমালোচনা করেন বলিউডের ‘কন্ট্রোভার্সি ক্যুইন’।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

শনিবার বিকেলে টুইটারে হ্যাশট্যাগ AIIMS দিয়ে কঙ্গনা লেখেন,

“তারুণ্যে ভরা আর আসমান্য একটি মানুষ একদিন সকালে আচমকা উঠে নিজেকে শেষ করে দিতে পারেন না। সুশান্ত জানিয়েছিলেন তিনি নিগ্রহের শিকার হয়েছিলেন। একঘরে করা হয়েছিল তাঁকে। মৃত্যুর ভয় পেয়েছিলেন তিনি। বলেছিলেন মুভি মাফিয়ার হেনস্তা আর নিষিদ্ধ ঘোষণা করার কথা। ভুয়ো ধর্ষণের অভিযোগে মানসিক অশান্তিতে ভুগছিলেন তিনি।”

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: খারিজ খুনের তত্ত্ব, সুশান্ত আত্মহত্যাই করেছিলেন! জানিয়ে দিল এইমসের ফরেনসিক টিম]

টুইটারে আরও কিছু প্রশ্ন করেছেন কঙ্গনা। জানতে চেয়েছেন,

১) সুশান্ত বরাবর বড় প্রযোজনা সংস্থার হাতে হেনস্তা হওয়ার কথা বলতেন। কারা তাঁর বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছিল?

২) কেন মিডিয়া ভুয়ো খবরে তাঁকে ‘রেপিস্ট’ তকমা দিয়েছিল?

৩) কেন মহেশ ভাট (Mahesh Bhatt) সুশান্তের সাইকো-অ্যানালিসিস করছিলেন?

২৯ সেপ্টেম্বর AIIMS টিমের পক্ষ থেকে চূড়ান্ত ভিসেরা রিপোর্ট CBI-এর তদন্তকারী দলের হাতে তুলে দেওয়া হয়। সেই রিপোর্টের ভিত্তিতেই শনিবার সুশান্তের মৃত্যুর ঘটনাকে আত্মহত্যা হিসেবে ব্যাখ্যা করেন ডা. সুধীর গুপ্ত। শোনা গিয়েছে, সুধীর এবং তাঁর টিমের রিপোর্টের ভিত্তিতে আত্মহত্যার তদন্তই করবে CBI। পরে প্রয়োজন মনে হলে ৩০২ ধারা যুক্ত করা হবে।

[আরও পড়ুন: লন্ডনে শুটিং করতে গিয়ে ভূতের আস্তানায় রুদ্রনীল! ছবি শেয়ার করে জানালেন অভিজ্ঞতা]

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

The post ‘আচমকা কেউ আত্মহত্যার কথা ভাবে না’, সুশান্তের ভিসেরা রিপোর্ট আসতেই তোপ কঙ্গনার appeared first on Sangbad Pratidin.

Advertisement
Next