১০০ দিনের যুদ্ধে জয়, হাসপাতাল থেকে মেয়েকে বাড়ি আনলেন প্রিয়াঙ্কা, প্রকাশ্যে ছবি

09:20 AM May 09, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মাতৃদিবসেই মেয়েকে ঘরে নিয়ে এলেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া (Priyanka Chopra)। মেয়ের প্রথম ছবি পোস্ট করলেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। টানা ১০০ দিন হাসপাতালে ছিল মেয়ে। আবেগঘন পোস্টের মাধ্যমে জানালেন প্রিয়াঙ্কা। 

Advertisement

যে ছবিটি প্রিয়াঙ্কা পোস্ট করেছেন তাতে মেয়েকে বুকে জড়িয়ে ধরে রয়েছেন অভিনেত্রী। পাশে রয়েছেন প্রিয়াঙ্কার স্বামী তথা মার্কিন পপ তারকা নিক জোনাস (Nick Jonas)। আলতো করে মেয়ের হাত ধরে রয়েছেন তিনি। মেয়ের  মুখ ঢেকেই ছবিটি পোস্ট করেছেন প্রিয়াঙ্কা। অভিনেত্রী লেখেন, “মাতৃদিবসের অবসরে এটা জানাতেই হচ্ছে কতটা টানাপোড়েনের মধ্যে দিয়ে আমাদের যেতে হয়েছে। আরও অনেককে এই সমস্যার মধ্যে দিয়ে যেতে হয়, যা এতদিনে আমরা জানতে পারলাম। ১০০ দিন নবজাতকদের ICU-তে কাটিয়ে অবশেষে আমাদের ছোট্ট মেয়েটা বাড়ি এল।”

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: ম্যাচিং পোশাক, কোমর জড়িয়ে ছবি, ‘মেন্টর-বন্ধু’ কাঞ্চনের জন্মদিনের পার্টিতে শ্রীময়ী]

গত ১৫ জানুয়ারি সান দিয়েগোয় ভূমিষ্ঠ হয় প্রিয়াঙ্কা ও নিকের মেয়ে। সারোগেসির মাধ্যমে জন্ম হয়েছিল একরত্তির। সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজেই সেই সুখবর দেন প্রিয়াঙ্কা। লেখেন, ”আমরা আনন্দের সঙ্গে জানাচ্ছি যে সারোগেসির মাধ্যমে আমাদের সন্তান ভূমিষ্ঠ হয়েছে।” বিশেষ এই সময়ে যেন তাঁকে এবং নিক জোনাসকে প্রাইভেসি দেওয়া হয়, সেই অনুরোধও জানান প্রিয়াঙ্কা। সময়ের আগেই জন্ম হওয়ায় শিশুটিকে হাসপাতালে রাখা হয়। মার্কিন সংবাদমাধ্যমের দাবি মেয়ের নাম মালতি মেরি চোপড়া জোনাস রেখেছেন প্রিয়াঙ্কা-নিক।

প্রথমে শোনা গিয়েছিল, কয়েকদিনের জন্যই হাসপাতালে রাখা হয়েছিল প্রিয়াঙ্কা-নিকের মেয়েকে। কিন্তু রবিবারের পোস্টে প্রিয়াঙ্কা জানান, টানা ১০০ দিন তাঁর মেয়ে নবজাতকদের ICU-তে ছিল। প্রিয়াঙ্কা জানান, প্রত্যেক পরিবারকে আলাদা আলাদা চ্যালেঞ্জের মধ্যে দিয়ে যেতে হয়। বিশ্বাস রাখতে হয়। তারপর এমন মুহূর্ত উপহার হিসেবে পাওয়া যায়। মেয়ের গৃহপ্রবেশে অত্যন্ত খুশি প্রিয়াঙ্কা ডাক্তার ও নার্সদের ধন্যবাদ জানান। “আমাদের জীবনের পরবর্তী অধ্যায় শুরু হল।  পথ চলা শুরু হোক MM! মা ও বাবা তোমাকে খুব ভালবাসে।”

[আরও পড়ুন: ‘মুসলিমদের কলঙ্ক’, কমলা অন্তর্বাস পরা ছবি পোস্ট করে কটাক্ষের শিকার নুসরত ]

Advertisement
Next