হিজাব নিয়ে বিক্ষোভ হচ্ছে মুসলিম দেশগুলিতেও, সুপ্রিম কোর্টে নিষেধাজ্ঞার দাবিতে সওয়াল কর্ণাটক সরকারের

07:45 PM Sep 20, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মুসলিম দেশগুলিতেও হিজাবের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ হচ্ছে। এতেই প্রমাণিত হয়, ইসলামে হিজাব বাধ্যতামূলক নয়। হিজাবে নিষেধাজ্ঞার দাবিতে সুপ্রিম কোর্টে জোরাল সওয়াল করল কর্ণাটক সরকার। মঙ্গলবার শীর্ষ আদালতে কর্ণাটক সরকারের পক্ষে থেকে সওয়াল করেন সলিসিটার জেনারেল তুষার মেহেতা। তিনি বলেন,”বিশ্বের এমন একাধিক দেশ আছে, যেগুলি সাংবিধানিকভাবে ইসলামিক দেশ। সেখানেও হিজাবের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ হচ্ছে।”

Advertisement

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782001027-0'); });

শীর্ষ আদালতের দুই বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ তুষার মেহেতাকে প্রশ্ন করে, কোন দেশের কথা তিনি বলছেন। জবাবে কর্ণাটক সরকার জানায়,”ইরানে বিক্ষোভ হচ্ছে। সুতরাং হিজাব অত্যাবশ্যক নয়। কোরানে উল্লেখ থাকা মানেই সেটা অত্যাবশ্যক হতে পারে না। হতে পারে এটা অনুমোদনযোগ্য বা আদর্শ আচরণের মধ্যে পড়ে।” এদিন তুষার মেহেতা জানিয়ে দিয়েছেন, কর্ণাটক সরকার যে শিক্ষাক্ষেত্রে ধর্মীয় পোশাক নিষিদ্ধ করার নির্দেশ দিয়েছে, সেটা কোনও ধর্ম বা লিঙ্গের জন্য নির্দিষ্ট নয়। বলা হয়েছে, কোনওরকম ধর্মীয় পোশাকই পরে আসা যাবে না। শুধু হিজাব নয়, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিষিদ্ধ করা হয়েছে গেরুয়া উত্তরীয়ও। কর্ণাটক সরকারের এই সওয়ালের পালটা মামলাকারীদের পক্ষে সওয়াল করেন দুস্মন্ত দাভে। তিনি বলেন, ‘এটা কোনওভাবেই সার্বিক নয়। এটা ইচ্ছাকৃতভাবে সংখ্যালঘুদের কোণঠাসা করে দেওয়ার চেষ্টা।’

window.unibots = window.unibots || { cmd: [] }; unibots.cmd.push(()=>{ unibotsPlayer('sangbadpratidin'); });

[আরও পড়ুন: খোদ কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর বাংলোর নির্মাণ বেআইনি, দু’সপ্তাহেই গুঁড়িয়ে দেওয়ার নির্দেশ হাই কোর্টের]

উল্লেখ্য, কর্ণাটক সরকার গত ৫ ফেব্রুয়ারি একটি নির্দেশিকা জারি করে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে হিজাব পরা নিষিদ্ধ ঘোষণা করে। তারপর থেকেই সেরাজ্যে হিজাব ইস্যুতে বিক্ষোভ শুরু হয়। বিশেষ করে উদুপ্পি জেলায় বিক্ষোভের জেরে স্কুল-কলেজগুলি রীতিমতো রণক্ষেত্রের রূপ ধারণ করেছিল। বিক্ষোভের জেরে বেশ কয়েকদিন স্কুল-কলেজ বন্ধও রাখতে হয় কর্ণাটক সরকারকে।

Advertising
Advertising

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782050143-0'); });

[আরও পড়ুন: ‘মদ্যপ’ ভগবন্ত মানকে নামিয়ে দেওয়া হয় জার্মানির বিমান থেকে! তদন্তের নির্দেশ কেন্দ্রের]

কর্ণাটক হাই কোর্টে (Karnataka High Court) আরজি জানানো হয় এই নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া নিয়ে। কিন্তু হাই কোর্ট সেই নিষেধাজ্ঞা বহাল রেখেছে। এই রায়কে চ্যালেঞ্জ করে বেশ কিছু মামলা করা হয় সুপ্রিম কোর্টে। তারই শুনানিতে এদিন হিজাব নিষিদ্ধ করার দাবিতে জোরাল সওয়াল করেছে কর্ণাটক সরকার। তবে একই সঙ্গে তারা জানিয়েছে, শুধু হিজাব নয় নিষেধাজ্ঞার আওতায় আছে গেরুয়া উত্তরীয়ও।

Advertisement
Next