Advertisement

বিজেপি শাসিত সব রাজ্যে নিষিদ্ধ হোক মদ, নাড্ডাকে অনুরোধ উমার

02:59 PM Jan 22, 2021 |

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেশের সমস্ত বিজেপি শাসিত রাজ্যে নিষিদ্ধ হোক মদ (Liquor ban)। বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডার (JP Nadda) কাছে এমনই আরজি জানালেন মধ্যপ্রদেশের বর্ষীয়ান বিজেপি নেত্রী উমা ভারতী (Uma Bharti)। বৃহস্পতিবার পরপর আটটি টুইট করে এই আরজি জানিয়েছেন তিনি। সম্প্রতি মধ্যপ্রদেশে (Madhya Pradesh) মদের দোকান বাড়ানোর কথা বলেছিলেন রাজ্যের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। সেই প্রসঙ্গে এবার মুখ খুললেন মধ্যপ্রদেশের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী।
সম্প্রতি মধ্যপ্রদেশে বিষমদের জেরে বেশ কিছু মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। তবুও রাজ্যে মদের দোকান বাড়ানোর পক্ষেই সওয়াল করতে দেখা গিয়েছে রাজ্যের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে। যদিও মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহান জানিয়েছেন, এব্যাপারে এখনও কোনও সিদ্ধান্ত নেননি তিনি। সেই প্রসঙ্গও উঠে এসেছে উমার টুইটে। শিবরাজের ভূয়সী প্রশংসা করতে দেখা গিয়েছে তাঁকে। তিনি লেখেন, ”মধ্যপ্রদেশ সরকার এখনও সিদ্ধান্ত নেয়নি রাজ্যে মদের দোকানের সংখ্যা বাড়াবে কিনা। এপ্রসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর বিবৃতি অত্যন্ত প্রশংসনীয়।”

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[আরও পড়ুন: ‘আমি তেজস্বী যাদব বলছি’, ফোনে লালু-পুত্রের পরিচয় পেতেই ভোলবদল জেলাশাসকের ]

পাশাপাশি উমার মতে, রাজ্যের প্রশাসনকে ব্যবহার করে বেশি মদের দোকান খোলা যেন মা হয়ে নিজের সন্তানকে বিষপান করানোর মতো ব্যাপার। লকডাউনের সময় মদ বিক্রিতে ব্যাঘাত ঘটায় বহু মানুষ মদ পাননি। সেপ্রসঙ্গ তুলে বর্ষীয়সী নেত্রীর মত, এর ফলে এটা প্রমাণিত হয়ে গিয়েছে, মানুষ করোনা ভাইরাসের সংক্রমণে মারা যেতে পারে। কিন্তু অ্যালকোহল না পাওয়ার কারণে কেউ মরে না।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

মদ বিক্রি বন্ধ করার প্রসঙ্গে বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমারের উদাহরণ দিয়েছে উমা। তিনি লিখেছেন, ”রাজনৈতিক দলগুলির উপরে নির্বাচনে জেতার চাপ থাকে ঠিকই। কিন্তু বিহারে বিজেপির জয় প্রমাণ করে দিয়েছে, মদ নিষিদ্ধ করার ফলে কীভাবে মহিলা ভোটারদের ভোট নীতীশ কুমারের পক্ষে গিয়েছে।” সেই প্রসঙ্গ তুলে বিজেপি শাসিত বাকি রাজ্যগুলিতেও মদ নিষিদ্ধ করার জন্য আবেদন জানিয়েছেন বিজেপি নেত্রী। তবে তিনি মেনে নিয়েছেন, এর ফলে রাজ্যের রাজস্বে ঘাটতি হতে পারে। কিন্তু তবুও তাঁর মতে, এর জেরে শিশু ও মহিলাদের উপরে হওয়া ঘৃণ্য অপরাধ কমে যাবে। মধ্যপ্রদেশের মদের দোকান বাড়ানো প্রসঙ্গে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বক্তব্যের পরে মুখ্যমন্ত্রীর বিবৃতিতে এমনিতেই সরগরম হয়েছিল পরিস্থিতি। বিতর্কে নতুন মাত্রা যোগ করল উমার টুইটগুচ্ছ।

[আরও পড়ুন: ভারতের অর্থনৈতিক উন্নতি দেখে চমকে গিয়েছে বিশ্ব, দাবি অমিত শাহের]

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next