‘সজাগ থাকুন, ক্ষমতাসীন ব্যক্তিরা যেন স্বাধীনতা কেড়ে নিতে না পারে’, বার্তা মনমোহন সিংয়ের

09:08 PM Aug 15, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: স্বাধীনতার ৭৫ বছর পূর্তি উপলক্ষে দেশজুড়ে আজাদি কা অমৃত মহোৎসব (Azadi Ka Amrit Mahotsab) পালন করতে ডাক দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi)। সেই সঙ্গে প্রত্যকে বাড়িতে পতাকা উত্তোলন করতে বলেছিলেন তিনি। সেই হর ঘর তেরঙ্গা (Har Ghar Tiranga) কর্মসূচি নিয়ে দেশের নানা জায়গায় বিতর্ক তৈরি হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ পালন করতে বলপ্রয়োগ করছে বিজেপি নেতারা, এমন অভিযোগও উঠেছে। এহেন পরিস্থিতিতে সরব হলেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং (Manmohan Singh)। তিনি বললেন, ক্ষমতাসীন ব্যক্তিরা যেন ভারতের স্বাধীনতা কেড়ে নিতে না পারে, সেই নিয়ে সজাগ থাকতে হবে দেশবাসীদের।

Advertisement

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782001027-0'); });

একটি সংবাদপত্রের প্রতিবেদনে মনমোহন সিং বলেছেন, “ক্রমশই ক্ষমতায় থাকা ব্যক্তিদের অহংকার বেড়ে চলেছে। তারা যেন দেশের স্বাধীনতা কেড়ে নিতে না পারে, সেদিকে সতর্ক দৃষ্টি রাখতে হবে নাগরিকদের। ভারতীয়রা যখন হাওয়ায় উড়তে থাকা পতাকার দিকে তাকিয়ে স্যালুট করবে, সেই সময় মনে রাখতে হবে আমাদের দেশের ঐতিহ্যের কথা। ভারতের নানা বৈচিত্র্যের কারণেই পৃথিবীর মধ্যে অনন্য হয়ে উঠেছে এদেশের গণতন্ত্র।” 

window.unibots = window.unibots || { cmd: [] }; unibots.cmd.push(()=>{ unibotsPlayer('sangbadpratidin'); });

[আরও পড়ুন: বিচার করার দায়িত্ব শুধু আদালতের নয়, স্বাধীনতা দিবসে মন্তব্য সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতির]

ভারতের স্বাধীনতায় প্রচুর নেতাদের অবদান রয়েছে, সেই কথা মনে করিয়ে দিয়ে মনমোহন বলেছেন, “ভাষা, ধর্ম, জাতি বা লিঙ্গের মাধ্যমে বৈষম্য তৈরি করে ভারতের অখণ্ডতা নষ্ট করা উচিত নয়। রাজনৈতিক উদ্দেশ্য চরিতার্থ করার জন্য হয়তো নানা দল এই বৈষম্য তৈরি করে। কিন্তু এই পদক্ষেপের ফলে দেশের উন্নতি সম্ভব হবে না।” সেই সঙ্গে লিখেছেন, অর্থনৈতিক উন্নতির সুফল কেবলমাত্র নির্দিষ্ট কিছু ব্যবসায়ী ভোগ করবেন, সেটা হতে পারে না।

Advertising
Advertising

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782050143-0'); });

দেশের যুবসমাজের কথা ভেবে প্রযুক্তিকে কাজে লাগানোর প্রস্তাব দিয়েছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী। সেই সঙ্গে গণতান্ত্রিক পরিকাঠামো ক্রমশই দুর্বল হয়ে পড়ছে বলেও অভিমত তাঁর। নাগরিকদের সাংবিধানিক সুরক্ষা দেওয়ার জন্য যা ব্যবস্থা রয়েছে, সেগুলি ধীরে ধীরে শক্তি হারাচ্ছে বলে জানিয়েছেন তিনি। সেই সঙ্গে আর্থিক লেনদেনের হাত থেকে নির্বাচনকে সুরক্ষা করতে হবে, এমন দাবিও তুলেছেন মনমোহন। কংগ্রেস নেতা জয়রাম রমেশ প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীর প্রতিবেদনটি টুইট করেছেন।

[আরও পড়ুন:‘ওঝা’র নিদানের জের, পরিচারিকাকে নগ্ন করে বেধড়ক মারধর মালকিনের]

Advertisement
Next