Advertisement

নরেন্দ্র মোদির নামই যথেষ্ট! যোগীর উত্তরপ্রদেশ জিততে প্রধানমন্ত্রীর ভাবমূর্তিতে ভরসা বিজেপির

12:15 PM Jun 22, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: উত্তরপ্রদেশ (Uttar Pradesh) জয় করতে মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের থেকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির উপরই বেশি বিশ্বাস রাখছেন গেরুয়া শিবিরের সদ্যনিযুক্ত রাজ্য সহ-সভাপতি তথা প্রাক্তন আমলা একে শর্মা (AK Sharma)। রাজ্য বিজেপির সহ-সভাপতি পদের দায়িত্ব নিয়েই দলের রাজ্য সভাপতি স্বতন্ত্রদেব সিংকে একটি চিঠি লিখেছেন মোদি ঘনিষ্ঠ এই প্রাক্তন আমলা। তাঁর বক্তব্য, উত্তরপ্রদেশ জিততে খুব বেশি বেগ পেতে হবে না বিজেপিকে। শুধু প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির (Narendra Modi) নাম এবং তাঁর পৃষ্ঠপোষকতাই যথেষ্ট। কারণ, মোদি উত্তরপ্রদেশে এখনও ২০১৩-১৪ সালের মতোই জনপ্রিয়।

Advertisement

সদ্যই মোদি ঘনিষ্ঠ এই আমলাকে উত্তরপ্রদেশের রাজ্য সহ-সভাপতি করেছে বিজেপি। আসলে করোনা পরিস্থিতিতে যোগীর বিরুদ্ধে বিস্তর অভিযোগ। কখনও উত্তরপ্রদেশের গঙ্গায় মৃতদেহ ভাসতে দেখা যাচ্ছে, আবার কখনও দেখা যাচ্ছে গঙ্গার ধারে মৃতদেহের সার। হাসপাতালে অক্সিজেনের সংকট। চিকিৎসক, স্বাস্থ্যকর্মীর অভাব। সব মিলিয়ে বিগত কয়েক মাস নিদারুণ সংকটের মধ্যে কেটেছে উত্তরপ্রদেশবাসীর। স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন উঠেছে যোগী আদিত্যনাথের প্রশাসনিক দক্ষতা নিয়ে। করোনা মোকাবিলায় ব্যর্থতার পাশাপাশি নারী নিরাপত্তা নিয়ে ক্ষোভ, দলের অন্দরে অসন্তোষ এবং সদ্য শেষ হওয়া পঞ্চায়েত নির্বাচনে হার যোগীর ভাবমূর্তি নিয়ে প্রশ্ন তুলে দিয়েছে। গুঞ্জন শুরু হয়েছে দিল্লির কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গেও খুব একটা ভাল সম্পর্ক নেই মুখ্যমন্ত্রীর। এসবের মধ্যেই এ কে শর্মাকে দলের গুরুত্বপূর্ণ পদ দেওয়া হয়। অনেকের ধারণা, যোগীর গতিবিধিতে নজর রাখতেই শর্মাকে উত্তরপ্রদেশ পাঠানো হয়েছে। আর তিনি গিয়েই মোদির নামে সুখ্যাতি শুরু করেছেন। যদিও, উত্তরপ্রদেশের বিজেপি (BJP) সভাপতিকে লেখা চিঠিতে যোগীরও সুখ্যাতি করতে শোনা গিয়েছে।

[আরও পড়ুন: দেশের দৈনিক করোনা আক্রান্ত নামল ৪২ হাজারে! টিকাকরণে নয়া রেকর্ড ভারতের]

স্বতন্ত্রদেব সিংকে লেখা চিঠিতে প্রধানমন্ত্রী ঘনিষ্ঠ প্রাক্তন আমলা বলেছেন,”আমার মতে আজও মোদিজি উত্তরপ্রদেশে ২০১৩-১৪ সালের মতোই জনপ্রিয়। তাই নির্বাচন জিততে তাঁর ভাবমূর্তি আর পৃষ্ঠপোষকতাই যথেষ্ট। এর সঙ্গে দলের বড়দের আশীর্বাদ তো আছেই।” শর্মা মনে করিয়েছেন, ২০০১ থেকে ২০২১ পর্যন্ত ‘বিকাশ পুরুষ’ নরেন্দ্র মোদির ঐতিহাসিক উত্থানের সঙ্গী ছিলেন তিনি। প্রধানমন্ত্রী যে তাঁকে এই সুযোগ দিয়েছেন, এটা তাঁর ‘কৃপা’। শর্মার সাফ কথা, যোগীর নেতৃত্বে আমরা ২০২২ নির্বাচনে আগের থেকেও বেশি আসন পাব। প্রশ্ন উঠছে, পাঁচ বছর রাজ্য শাসন করার পরও উত্তরপ্রদেশ জিততে যোগীর থেকে মোদির উপর কেন বেশি আস্থা রাখতে হচ্ছে উত্তরপ্রদেশ বিজেপিকে? তাহলে কি এবারের ভোটের আগে যোগীর (Yogi Adityanath) উপর আস্থা রাখতে পারছে না গেরুয়া শিবির?

Advertisement
Next