Advertisement

সন্ত্রাস দমনে বড় সাফল্য, কাশ্মীর থেকে এনআইএ’র হাতে গ্রেপ্তার লস্কর জঙ্গি

11:45 AM Apr 16, 2021 |
Advertisement
Advertisement

অর্ণব আইচ: সন্ত্রাসবাদ দমনে বড়সড় সাফল্য পেল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা এনআইএ (NIA)। কাশ্মীর থেকে গ্রেপ্তার করা হল লস্কর-ই-তইবা জঙ্গি সংগঠনের সদস্য আলতাফ আহমেদ রাকিবকে। বান্দিপোরা থেকে পেশায় স্কুল শিক্ষক আলতাফকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গতবছর লস্করযোগে গ্রেপ্তার হওয়া তানিয়া পারভিনকে জেরা করেই আলতাফের হদিশ মেলে। জানা গিয়েছে, শুক্রবারই তাকে কলকাতায় এনে ব্যাঙ্কশাল কোর্টে তোলা হবে।

Advertisement

এনআইএ-র পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, স্কুল শিক্ষক আলতাফ এলাকায় আর পাঁচজন সাধারণ মানুষের মতোই থাকত। কিন্তু গোপনে লস্করে জঙ্গিদের নিয়োগের কাজ করত। আর সেই কাজ করত সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে। তদন্তকারী আধিকারিকরা জানিয়েছেন, ফেসবুকের মাধ্যমেই তানিয়া পারভিনের সঙ্গে যোগাযোগ করেছিল আলতাফ। তারপরই তানিয়ার মগজধোলাই করে সে। এরপরই ওই তরুণী যোগ দেয় পাক মদতপুষ্ট জঙ্গি সংগঠন লস্করে। তবে শুধু তানিয়া নয়, গোটা দেশে এভাবে অনেককেই জঙ্গি দলে নিয়োগ করেছিল আলতাফ। তাকে জেরা করে এবার তাদেরই হদিশ পেতে চাইছে এনআইএ। জানা গিয়েছে, শুক্রবারই তাকে ব্যাঙ্কশাল কোর্টে তোলা হবে।

[আরও পড়ুন: ভারতে মাদক পাচারের জাল বিছানোর ছক! গুজরাট থেকে গ্রেপ্তার ৮ পাক পাচারকারী]

এর আগে গত বছর মার্চ মাসে উত্তর ২৪ পরগনার বাদুড়িয়া থেকে জঙ্গিযোগ সন্দেহে ধরা পড়ে স্নাতকের ছাত্রী তানিয়া পারভিন। তাকে প্রথমে গ্রেপ্তার করে রাজ্য পুলিশের স্পেশ্যাল টাস্ক ফোর্স। এর সপ্তাহ দুয়েকের মধ্যে মামলাটির তদন্তভার নেয় জাতীয় তদন্তকারী সংস্থা এনআইএ। তানিয়াকে জেরা করে উঠে আসে বহু গোপন তথ্য। কলেজছাত্রী নিজে পাকিস্তানের নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন লস্কর-ই-তইবা দ্বারা উদ্বুদ্ধ হয়ে তাদের হয়ে কাজ করতে শুরু করে। সোশ্যাল মিডিয়ায় গ্রুপ তৈরি করে তার মতো বহু যুবক, যুবতীকে জেহাদের আদর্শে অনুপ্রাণিত করত। এভাবে সে মডিউল তৈরি করে ফেলেছিল। অনলাইনে জঙ্গিদের নিয়োগ করা হত। আর সবটাই তানিয়া করত বাদুড়িয়ায় বসে। শেষপর্যন্ত অবশ্য পুলিশের জালে ধরা পড়ে সে। আর এবার তার মাধ্যমেই আলতাফের হদিশ মিলল।

[আরও পড়ুন: মহারাষ্ট্রে করোনা চিকিৎসায় অক্সিজেনের ঘাটতি, এগিয়ে এলেন মুকেশ আম্বানি]

Advertisement
Next