‘মাসে ৯০০০ টাকা দেওয়া মানে শোষণ’, ওড়িশার হোমগার্ডদের বেতন নিয়ে কড়া সুপ্রিম কোর্ট

02:34 PM Jun 02, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ৯০০০ টাকা বেতনে (Salary) সংসার চালানো সম্ভব না। অথচ তাঁরা একজন স্থায়ী পুলিশকর্মীর সমান সময় দিচ্ছেন কাজে। অতএব সরকারকে হোম গার্ডদের (Home Guard) বেতনের বিষয়টি পুনর্বিবেচনা করতে হবে। বৃহস্পতিবার ওড়িশার (Odisha) হোম গার্ডদের বেতন বৃদ্ধির মামলায় এমনটাই জানাল সুপ্রিম কোর্ট (Supreme Court)। এদিন হোম গার্ডদের কম বেতন নিয়ে রীতিমতো অসন্তোষ প্রকাশ করেন শীর্ষ আদালতের দুই বিচারপতি। বলেন, এটা হোম গার্ডদের শোষণ করার সময়।

Advertisement

অতিরিক্ত অস্থায়ী পুলিশকর্মী হিসেবে ওড়িশায় কাজ করেন অসংখ্য হোম গার্ড। এদের মধ্যে অনেকেই দীর্ঘদিন কাজ করছেন। বর্তমানে তাঁদের দৈনিক ৩০০ টাকা বেতন দেওয়া হয়। অর্থাৎ মাসে ৯০০০ টাকা বেতন পান হোম গার্ডরা। মাঝে হোম গার্ডদের বেতন বৃদ্ধি মামলা উঠেছিল ওড়িশা হাই কোর্টে (Odisha High Court)। তাতে হাই কোর্ট রায় দিয়েছিল, হোমগার্ডদের দৈনিক ৫৩৩ টাকা করে বেতন দিতে হবে। এই রায়ের বিরোধিতা করেই সুপ্রিম কোর্টে মামলা করে ওড়িশা সরকার।

[আরও পড়ুন: ‘মোদির ছোট সৈনিক হয়ে কাজ করব’, বিজেপিতে নাম লিখিয়ে বললেন হার্দিক প্যাটেল]

সেই মামলার শুনানিতেই এদিন শীর্ষ আদালতের দুই বিচারপতি এমআর শাহ (M R Shah) এবং বিভি নাগারত্না (B V Nagarathna) উল্লেখ করেন, বহু হোম গার্ড গত ১৫ বছর ধরে চাকরি করছেন। অথচ তাঁরা সামান্য বেতন পান। যেখানে একজন স্থায়ী পুলিশকর্মী ছয় বছর কাজ করলেই ২১, ৭০০ টাকা বেতন পান। সেখানে একজন হোমগার্ড মাত্র ৯০০০ টাকা বেতন পাচ্ছেন। অথচ উভয়কর্মী একই সময় দিচ্ছেন নিজের কাজে। আদালত মন্তব্য করে, এটা শোষণ ছাড়া কিছু না।

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: ইডি দপ্তরে হাজিরার আগেই করোনা আক্রান্ত সোনিয়া গান্ধী, রয়েছেন আইসোলেশনে]

শীর্ষ আদালত স্পষ্ট জানায়, “৯০০০ টাকা বেতন শোষণ ছাড়া কিছুই নয়। একজন হোম গার্ড কীভাবে এই টাকায় জীবনযাপন করবেন তাঁর পরিবার সামলে! তিনি তো স্থায়ী পুলিশকর্মীর সমান সময় দিচ্ছেন কাজে।” এরপরেই বিচারপতিরা জানান, “আমরা নির্দেশ দিচ্ছি, হোম গার্ডদের বেতনের বিষয়টি পুনর্বিবেচনা করতে হবে ওড়িশা সরকারকে।”

Advertisement
Next