ত্রিপুরায় ফের আক্রান্ত কংগ্রেস নেতা সুদীপ রায়বর্মন, ইটের আঘাতে ফাটল মাথায়, কাঠগড়ায় বিজেপি

09:15 PM Aug 11, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের আক্রান্ত কংগ্রেস (Congress) বিধায়ক সুদীপ রায়বর্মন (Sudip Roy Barman)। ইটের আঘাতে মাথা ফেটে যায় তাঁর। তাঁকে আগরতলা জিবি হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছে। প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি বীরজিৎ সিনহার অভিযোগ, হামলার সঙ্গে জড়িতরা সকলেই বিজেপির সমর্থক।

Advertisement

এদিন ত্রিপুরার (Tripura) রানির বাজার এলাকা দিয়ে সুদীপরা মিছিল করে যাবার পর পুলিশ বাধা দেয়। অনুমতি না থাকার অজুহাতে পুলিশ তাঁদের ফিরে যেতে বলে। তখনই সেখানে দেখা দেয় উত্তেজনা। অভিযোগ, তখন বিজেপি সমর্থকরা মিছিল লক্ষ্য করে ইট পাটকেল ছোঁড়ে। ভাঙচুর করা হয় কংগ্রেস নেতাদের গাড়ি। ইটের আঘাতে আহত হন বিধায়ক সুদীপ রায়বর্মন।

[আরও পড়ুন: জুতো হাতে ‘চোর’ স্লোগান, আসানসোল আদালতে অনুব্রত ঢুকতেই বিক্ষোভ বাম-বিজেপির]

প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি বীরজিৎ সিনহা এই ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে অভিযোগ করেছেন, রাজ্যে কোন ধরনের গণতান্ত্রিক পরিবেশ নেই। অরাজকতা চলছে। অবিলম্বে হামলাকারীদের গ্রেপ্তারের দাবি জানান বীরজিৎ সিনহা। এই ঘটনার পর এলাকায় উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। মোতায়েন করা হয়েছে অতিরিক্ত পুলিশ।

Advertising
Advertising

পুলিশ জানিয়েছে, পদযাত্রার অনুমতি ছিল না। অনুমতি না নিয়ে কংগ্রেস মিছিল করাতেই গোলমালের সূত্রপাত। এদিকে হামলার অভিযোগ অস্বীকার করেছে বিজেপি। বিজেপির মুখপাত্র নবেন্দু ভট্টাচার্য বলেন, কংগ্রেস শান্ত ত্রিপুরাকে অশান্ত করতে চাইছে। বহিরাগতদের নিয়ে এলাকায় গোলমাল পাকানোর চেষ্টা করছে।

উল্লেখ্য, ত্রিপুরায় উপনির্বাচনের আগেও হামলার মুখে পড়েন ত্রিপুরার জনপ্রিয় নেতা সুদীপ। প্রচারশেষে পার্টি অফিসে ফেরার পরই আচমকা আক্রমণ চলে তাঁর উপর। সেই সময় সুদীপ পার্টি অফিসে বসে ছিলেন। সঙ্গে ছিলেন অন্যান্য কর্মী, সদস্যরাও। আচমকাই একদল দুষ্কৃতী পার্টি অফিসে হামলা চালায়। রক্তাক্ত হন সুদীপবাবু ও তাঁর সহকর্মীরা। গাড়িও ভাঙচুর করা হয়। রক্তাক্ত অবস্থায় তাঁকে হাসপাতালে ভরতি করা হয় দ্রুত। রক্তাক্ত হন সুদীপবাবু ও তাঁর সহকর্মীরা।

[আরও পড়ুন: ‘বিড়াল তাড়িয়ে বাঘ এনেছি, থাবা বসাচ্ছে’, অনুব্রতর গ্রেপ্তারির পরই তৃণমূলকে তোপ বিজেপি বিধায়কের]

Advertisement
Next