শেয়ার আনার আগে চমক! LIC-তে ২০ শতাংশ প্রত্যক্ষ বিদেশি বিনিয়োগে ছাড়পত্র মন্ত্রিসভার

03:14 PM Feb 26, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রাষ্ট্রায়ত্ত বিমা সংস্থা LIC-কে হাতিয়ার করে সরকারি কোষাগারে মোটা টাকা আয়ের লক্ষ্যে কেন্দ্র। সেই উদ্দেশে IPO বাজারে আনার আগে বড়সড় সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলল কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা। শুধু ভারতীয়রা নন, LIC’র শেয়ার কিনতে পারবে বিদেশিরাও। শনিবার রাষ্ট্রায়ত্ত বিমা সংস্থায় ২০ শতাংশ পর্যন্ত প্রত্যক্ষ বিদেশি বিনিয়োগে ছাড়পত্র দিয়েছে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা।

Advertisement

এই ছাড়পত্রের অর্থ, কোনও দেশি সংস্থার সঙ্গে গাঁটছড়া না বেঁধেই যে কোনও বিদেশি সংস্থা এলআইসির ২০ শতাংশ পর্যন্ত শেয়ার কিনে নিতে পারবে। অর্থাৎ দেশীয় সংস্থাগুলির এলআইসির শেয়ারে একচ্ছত্র অধিকার রইল না। যার ফলে বাজারে প্রতিযোগিতা বাড়বে। দাম বাড়বে শেয়ারের। বিমা সংস্থায় বিদেশি বিনিয়োগে যে ছাড়পত্র দেওয়া হবে, সে প্রস্তাব বাজেটেই দেওয়া হয়েছিল। তবে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছিল এলআইসির ক্ষেত্রে ১০ শতাংশ পর্যন্ত FDI-এ ছাড়পত্র দেওয়া হতে পারে। কিন্তু মন্ত্রিসভা ছাড় দিয়েছে ২০ শতাংশ FDI-এ। এর ফলে কোষাগারের ঘাটতি পূরণ সম্ভব হবে বলেই ধারণা কেন্দ্রের।

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1630720090-3');});

[আরও পড়ুন: মোদি সরকারের ভ্রান্ত নীতিতেই এক মেরুতে পাকিস্তান-রাশিয়া-চিন! বিস্ফোরক রাহুল]

প্রসঙ্গত, আগামী ১১ মার্চ বাজারে আসতে পারে দেশের সর্ববৃহৎ বিমা সংস্থার আইপিও (IPO)। তবে প্রথম দু’দিন শুধু বড় মাপের বিনিয়োগকারী বা অ্যাঙ্কর ইনভেস্টরদের আইপিও খোলা হবে। অন্তত তিনটি সূত্র এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে এমনটাই জানিয়েছে। প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে, দু’দিন বাদে অর্থাৎ ১৩ বা ১৪ মার্চ থেকে সাধারণ বিনিয়োগকারীরাও এলআইসির শেয়ার কিনতে পারবেন।

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: সুস্থতার পথে দেশ, আরও কমল দৈনিক করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যু]

প্রাথমিকভাবে খবর, এলআইসি আইপিও-র (IPO) প্রস্তাবিত বাজার মূল্য হতে পারে প্রায় ৮ বিলিয়ন ডলার বা ৬০ হাজার কোটি টাকা। যা বহু বিনিয়োগকারীর ভাগ্যের মোড় ঘুরিয়ে দিতে পারে। কিন্তু বিদেশি সংস্থা বাজারে এলে এই দাম আরও বাড়তে পারে। বাজার বিশেষজ্ঞদের একটা বড় অংশ মনে করছেন এত বড় অঙ্কের আইপিও এর আগে বাজারে আসেনি। ইতিমধ্যেই এলআইসির আইপিওর খসড়া প্রস্তুতির কাজ শুরু করে দিয়েছেন সংস্থার আধিকারিকরা। মার্চের প্রথম সপ্তাহেই সেবির কাছে অনুমোদনের জন্য জমা দেওয়া হবে সেই খসড়া। অনুমোদন পেলেই বাজারে পা রাখবে এলআইসির এই ইনিশিয়াল পাবলিক অফারিং।

Advertisement
Next