Advertisement

সামনে উৎসবের মরশুম, রাজ্যগুলিকে Corona নিয়ে সতর্ক থাকার নির্দেশ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের

09:56 PM Jul 28, 2021 |
Advertisement
Advertisement

মলয় রায়: দেশজুড়ে করোনা (Coronavirus) সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে। এমন পরিস্থিতিতে আসন্ন উৎসবের মরশুমে কোভিড যাতে ফের মাথাচাড়া না দেয়, তার জন্য আগে থেকেই রাজ্যগুলিকে সতর্ক থাকার পরামর্শ দিল কেন্দ্রীয় সরকার। বুধবার এ বিষয়ে রাজ্যের মুখ্যসচিব এইচ কে দ্বিবেদীকে চিঠি পাঠিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র সচিব অজয় ভাল্লা। উৎসবের সময় ভিড় হয় এমন জায়গায় ‘কোভিড অ্যাপ্রোপ্রিয়েট বিহেভিয়ার’ বা ‘ক্যাব’ মেনে চলা প্রয়োজন বলে চিঠিতে জানানো হয়েছে। একইসঙ্গে কেন্দ্রের পরামর্শ, টেস্ট, ট্র‌্যাক, ট্রিট, ভ্যাকসিনেশন এবং ক্যাব–এর পাঁচ দফা স্ট্র‌্যাটেজি যেন লাগাতার চালিয়ে যায় রাজ্য সরকার।

Advertisement

জনজীবনে একাধিক বিধিনিষেধ আরোপ করে এ রাজ্যের করোনা সংক্রমণ একেবারেই তলানিতে নিয়ে এসেছে প্রশাসন। ৩১ জুলাই পর্যন্ত সেই বিধি নিষেধ জারি রয়েছে। তবে জনজীবনে গতি আনতে দফায় দফায় ছাড়ের পরিমাণ বাড়িয়েছে রাজ্য। যদিও রাত্রিকালীন নিষেধাজ্ঞা কড়াভাবে মেনে চলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে কলকাতা–সহ বিভিন্ন জেলায়। সব কিছু একসঙ্গে শিথিল করে দেওয়ার পথে হাঁটেনি রাজ্য সরকার। বিশেষজ্ঞদের আশঙ্কা, তৃতীয় ঢেউ আসতে পারে। এমনকী, মানুষ যদি কোভিড (COVID-19) বিধি না মানেন, তাহলে ফের করোনা বাড়তে পারে বলেও বারবার জানাচ্ছেন তাঁরা। সেদিকে লক্ষ্য রেখে কোনওভাবেই যাতে সংক্রমণ ফের বাড়তে না পারে, তার জন্য যাবতীয় ব্যবস্থা নেওয়ার কড়া নির্দেশ বলবৎ রয়েছে। আগস্টের শুরুতেই রাজ্যের আন্তর্জাতিক পরামর্শদাতা কমিটির সঙ্গে বৈঠকও রয়েছে।

[আরও পড়ুন: Covid-19: টিকাকরণে গাফিলতি বরদাস্ত নয়, কড়া নির্দেশিকা জারি রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তরের]

রাজ্য সব দিক থেকেই পরিস্থিতির উপর নজর রেখে চলেছে। এদিন কেন্দ্রীয় সরকারের চিঠিতে জানানো হয়েছে, করোনা সংক্রমণ কমে আসায় দফায় দফায় সব কিছু স্বাভাবিক করার পথে হাঁটছে রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলি। আক্রান্তের সংখ্যা কমলেও বিধি নিষেধ শিথিল করার ক্ষেত্রে অত্যন্ত সতর্ক থাকতে হবে বলেই জানানো হয়েছে। পাশাপাশি কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে যে কোভিড বিধি রয়েছে তার মেয়াদও বাড়িয়ে ৩১ আগস্ট পর্যন্ত করা হয়েছে। যেখানে যেখানে করোনা সংক্রমণ এখনও বেশি সেখানে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার কথাও বলা হয়েছে চিঠিতে।

Advertisement
Next