Advertisement

কাবাব থেকে পিৎজা-পাস্তা ও ককটেল, নিরামিষপ্রেমীদের স্বর্গ কলকাতার এই রেস্তরাঁ

08:50 PM Mar 22, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বাংলায় আমিষের কদর আছে। তা বলে নিরামিষের গুরুত্ব যে নেই তা কিন্তু নেই। সুস্বাদু রান্না যদি সুন্দরভাবে পাতে পরিবেশিত হয় তাহলে খাদ্যপ্রেমীদের আমিষ-নিরামিষ ভেদাভেদ থাকে না। রসনার বাসনা তৃপ্ত হওয়া নিয়ে কথা। তাতে যদি দোসরের মতো ককটেল পাওয়া যায়। তাহলে তো সোনায় সোহাগা। ঠিক এমনই আয়োজন করেছে পার্ক স্ট্রিটের 1000 BC।

Advertisement

জিভে জল আনা কাবাব থেকে শুরু করে পিৎজা, পাস্তা, লাজানিয়া সবই পাওয়া যায় ক্যামাক স্ট্রিটের গ্রাউন্ড ফ্লোরের এই রেস্তরাঁয়। এক কথায় নিরামিষপ্রেমীদের স্বর্গ বলাই যেতে পারে। অর্ডার দিলেই চোখের সামনে ‘ক্রিম হাং কার্ড কেকস’। নামে কেক থাকলেও আদতে এটি দই মজিয়ে তৈরি করা কাবাব। কাজু বাদাম ও ভাজা পিঁয়াজের সঙ্গে পরিবেশিত হয়। এছাড়াও রয়েছে ‘এক্সিক্যুইজিট কিডনি বিন গলৌটি’। সোনালি করে ভাজা রাজমা বিনের কাবাব।
অন্যরকম কিছু খেতে ইচ্ছে হলে অর্ডার দিতেই পারেন ‘চিজ পাও ভাজি’। ‘প্রিন্সের মার্গারিটা পিৎজা’র উপরে সাজানো থাকবে টমেটো, মোজ্জারেলা চিজ, অরিগানো আর তাজা বেসিল পাতা। চাইলে ‘চিজ লোডেড পিৎজা’ও অর্ডার করতে পারেন ওজন কমানোর তাগিদ না থাকলে। তাতে আবার নিজের ইচ্ছেমতো টপিংস রাখতে পারেন। আগে বলে দিলেই হবে। এছাড়াও ইটালির স্বাদ পাবেন পাস্তা আরাবিয়াটা, লাজানিয়া, চাঙ্কি পেস্তো। ভারতীয় স্বাদও প্লেটে পেয়ে যাবেন নিজের পছন্দ মতো।

 

[আরও পড়ুন: ধোনি-খিচড়ি, কোহলি-খামান! এই রেস্তরাঁয় রমরমিয়ে বিকোচ্ছে ক্রিকেটারদের নামের খাবার]

ডেজার্টে রয়েছে রকমারি ওয়াফল। ‘সাঙ্কেন ওরিও ওয়াফেল’ খেয়েছেন কখনও? ক্রাশ করা ওরিও বিস্কুটের উপর, ব্রাউনি ট্রাফল, কিটক্যাট ক্রাম্বল, রেইনবো স্প্রিঙ্কলার, ডার্ক চকোলেট সস ও আইসক্রিমের স্কুপ। আন্দাজ করতে পারছেন নিশ্চয়ই বিষয়টি কেমন হতে পারে! এতকিছু খাওয়ার পর রয়েছে কসমোপলিটন, স্ক্রুড্রাইভার, পিনা কোলাডা, 1000 BC জিনজার ব্লাস্টের মতো ককটেল। যাবতীয় এই আয়জোন নিরামিষপ্রেমীদের পাশাপাশি আমিষভোজীদেরও মন কাড়বে বলে বিশ্বাস 1000 BC-র অন্যতম কর্ণধার বিজয় বোকাড়িয়ার। নিরামিষ খাবারের পাশাপাশে রেস্তরাঁর মনোরম পরিবেশও বাড়তি পাওনা বলে মনে করেন তাঁর পার্টনার গৌরব ঝুনঝুনওয়ালা। সোম থেকে বুধবার দুপুর ১২টা থেকে রাত ১১.৩০ পর্যন্ত খোলা থাকে পার্ক স্ট্রিটের এই রেস্তরাঁ। বৃহস্পতি থেকে রবিবার বেলা ১২টা থেকে ভোররাত ২টো পর্যন্ত পাবেন সুস্বাদু খাবার ও ককটেল। অ্যালকোহল বাদ দিলে ১০০টাকার মধ্যে পেটপুরে খেতে পারবেন অন্তত দু’জন।

[আরও পড়ুন: বাড়বে বুদ্ধি, হবে কার্যসিদ্ধি, পাতে যদি রাখেন এই খাবারগুলি]

 

Advertisement
Next