দুর্ঘটনায় মুছে গেল স্মৃতি, জ্ঞান ফিরতেই চলে গেলেন ১৯৯৩-এ, স্ত্রীকে বিয়ের প্রস্তাব প্রৌঢ়ের

08:46 PM Nov 29, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভয়ংকর বাইক দুর্ঘটনার (Bike Accident) হাসপাতালে ভরতি ছিলেন ওঁরা। কার্যত মৃত্যুর মুখ থেকে ফেরে দম্পতি। সেই সঙ্গে চুরমার হয়ে যায় অ্যান্ড্রুর অতীত! ফলে সন্তানদের চিনতে পারছিলেন না প্রৌঢ়। এমনকী স্ত্রীকে নতুন করে বিয়ের প্রস্তাব দেন। আসলে বাইক দুর্ঘটনায় মাথায় চোট পেয়ে স্মৃতি হারিয়ে ফেলেছিলেন (Memory Loss) তিনি। ২০২১ সালে বাইক দুর্ঘটনায় আহত হয়ে জ্ঞান হারান ব্যক্তি। জ্ঞান ফেরার পর ভাবেন ১৯৯৩ সাল। সেই মতো নিজের স্ত্রীকে বিয়ের প্রস্তাব দেন। শুরুতে স্বামীর আচরণে ভেঙে পড়েন স্ত্রী। তবে এখন অনেকটাই ভাল আছেন অ্যান্ড্রু।

Advertisement

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782001027-0'); });

২০২১ সালের জুন মাসে ভয়ংকর বাইক গুরুতর জখম হন আমেরিকার (America) ভার্জিনিয়ার (Virginia) বাসিন্দা ক্রিস্টি ও অ্যান্ড্রু ম্যাকাঞ্জি। একাধিক অস্ত্রোপচার হয় উভয়ের। দীর্ঘদিন হাসপাতালে থাকতে হয়। দুর্ঘটনায় মাথায় চোট পেয়ে জ্ঞান হারান অ্যান্ড্রু। দিন সাতেক পরে জ্ঞান ফেরে তাঁর। তবে জেগে উঠেছিলেন সেই ১৯৯৩ সালে। চোখ খুলেই হুইলচেয়ারে বসা ক্রিস্টিকে দেখতে পান অ্যান্ড্রু। ভাবেন, হাসপাতালে নার্সের কাজ করছেন ক্রিস্টি। কিন্তু স্ত্রী হুইলচেয়ারে কেন? উত্তর পাচ্ছিলেন না।

window.unibots = window.unibots || { cmd: [] }; unibots.cmd.push(()=>{ unibotsPlayer('sangbadpratidin'); });

[আরও পড়ুন: অবিশ্বাস্য! সবাই মাদকাসক্ত, থাইল্যান্ডের এই মঠে থাকে না কোনও সন্ন্যাসী!]

ক্রিস্টি জানান, তিনি নিজে সেরে ওঠার পর চিকিৎসকদের বিশেষ অনুমতিতে অ্যান্ড্রুকে বাড়ি নিয়ে যাওয়া হয়। যদিও শুরুতে কাউকেই চিনতে পারছিলেন না। এমনকী নিজের সন্তানদের চিনতে পারেননি। মানসিক ভাবে ১৯৯৩ সালে থেকে যাওয়া অ্যান্ড্রু নিজের স্ত্রীকে নতুন করে বিয়ের প্রস্তাব দেন। অ্যান্ড্রু নিজেও জানান, “জ্ঞান ফেরার পর আমি কেবল ক্রিস্টিকে চিনতে পেরেছিলাম।”

Advertising
Advertising

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782050143-0'); });

[আরও পড়ুন: কোথায় ভয়ডর? মাঠে ঘুরছে সিংহ, কয়েক ফুট দূরে দাঁড়িয়েই ক্যামেরাবন্দি করল ২ যুবক!]

চিকিৎসকরা ক্রিস্টিকে দুঃসংবাদ দিয়ে ছিলেন, তাঁরা জানান, অ্যান্ড্রুর স্মৃতি ফিরতে পারে, আবার নাও ফিরতে পারে। এমন সংবাদে দুশ্চিন্তাগ্রস্ত হলেও চিকিৎসকদের অনুমতি নিয়ে হাসপাতাল থেকে স্বামীকে বাড়ি ফেরান ক্রিস্টি। যদি পরিচিত জায়গায় গিয়ে সবকিছু দেখেশুনে স্মৃতি ফেরে! ক্রিস্টি জানান, সত্যি ম্যাজিকের মতো কাজ হয় এই সিদ্ধান্তে। পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ধীরে ধীরে ‘সুস্থ’ হয়ে ওঠেন অ্যান্ড্রু। ক্রিস্টির কথায়, নতুন মানুষে হয়ে ওঠে অ্যান্ড্রু, অথবা পুরনো লোকটাকে ফিরে পান ক্রিস্টি।

Advertisement
Next