মাঝ আকাশে উদ্দাম যৌনতায় মত্ত পাইলট ও ছাত্রী! ভিডিও ভাইরাল হতেই গেল চাকরি

02:45 PM May 25, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মাঝ আকাশেই সঙ্গমে লিপ্ত হলেন বিমান চালক! অভিযোগ, বিমানটি স্বয়ংক্রিয় মোডে রেখেই ওই প্রশিক্ষক ককপিটে ছাত্রীর সঙ্গে যৌনতায় (Physical Intimacy) লিপ্ত হন। ঘটনার ভিডিও প্রকাশ্যে আসতেই চাকরি গেল দু’জনেরই। ঘটনা রাশিয়ার (Russia) এক বিমান প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের।

Advertisement

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782001027-0'); });

এক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে, অভিযুক্ত প্রশিক্ষকের বয়স ২৮। তাঁর ছাত্রীর বয়স ২১। কেসনা ১৭২ বিমানের ককপিটে যৌনতায় লিপ্ত হন তাঁরা। ওই বিমান চালক সেই মুহূর্তের ছবি ও ভিডিও-ও তুলে রাখেন। শেষ পর্যন্ত সেই ভিডিও প্রকাশ্যে আসতেই কাজ হারাতে হল তাঁকে।

[আরও পড়ুন: মসজিদ নয়, লিখতে হবে জ্ঞানবাপী ‘মন্দির’! স্কুলের ই-মেলের নির্দেশিকা ঘিরে বিতর্ক তুঙ্গে]

সাসোভো ফ্লাইট স্কুল অফ সিভিল অ্যাভিয়েশনে কর্মরত ওই ব্যক্তি তাঁর ছাত্রীকে কথা দেন, তিনি তাঁকে অতিরিক্ত প্রশিক্ষণ দেবেন। কিন্তু সেজন্য শরীরী সঙ্গমে লিপ্ত হতে হবে- এই ছিল শর্ত। প্রথমটায় রাজি না থাকলেও পরে ওই তরুণী সম্মত হন। আসলে ওই বিমান চালক বিবাহিত বলেই প্রথমটা গররাজি ছিলেন তিনি।

Advertising
Advertising

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782050143-0'); });

ঘটনার পরে ওই ছাত্রী সব ঘটনার কথা জানিয়েছিলেন তাঁর সহকর্মীকে। সেই সঙ্গে তিনি এও জানান, পুরো ঘটনাটাই রেকর্ড করে রেখেছেন ওই বিমান চালক। শেষ পর্যন্ত তরুণীর সহকর্মীই সব ফাঁস করে দেন। ওই সহকর্মীর সঙ্গে বচসা হয়েছিল তাঁর। এরপর প্রতিশোধস্পৃহাতেই তিনি ভিডিও ফাঁস করেন অনলাইনে। এরপরই চালক ও তাঁর ছাত্রীকে বরখাস্ত করা হয়।

[আরও পড়ুন: শিশুর যৌন হেনস্তাকারীর সঙ্গে সমঝোতা করতে পারবেন না অভিভাবকরা, জানাল হাই কোর্ট]

তবে পরে ওই তরুণী অবশ্য সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। কর্তৃপক্ষের প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান, বিমানটি স্বয়ংক্রিয় মোডে রাখা হয়েছিল। এবং তিনি কেবলমাত্র ওই চালকের সঙ্গে চুম্বন ও আলিঙ্গনেই লিপ্ত হয়েছিলেন। পরে তিনি আরও বলেন, যা হয়েছিল একবারই। কখনও আর তার পুনরাবৃত্তি করা হয়নি। তবে তিনি এমন দাবি করলেও তাঁকে বরখাস্ত করা হয়েছে।

Advertisement
Next