Advertisement

ট্রেন নেই বলে মনখারাপ? উৎসবের মরশুমে NBSTC’র বিশেষ বাসেই পাড়ি দিন উত্তরবঙ্গে

05:49 PM Oct 18, 2020 |

সংগ্রাম সিংহ রায়, শিলিগুড়ি: কথায় বলে বাঙালির পায়ের তলায় সরষে। বেড়াতে না গেলে যেন মন মানে না তাঁদের। তাই তো অল্প কয়েকদিন ছুটি পেলেই বাক্সপ্যাঁটরা গুছিয়ে বেরিয়ে পড়তেই বেশি ভালবাসে বাঙালি। আর সেই বাঙালিই কিনা লকডাউন, করোনার দাপটে গৃহবন্দি। উৎসবের মরশুমেও যেন বাইরে বেরতে গেলেই চাপা আতঙ্ক টুঁটি টিপে ধরছে তাঁর। তাই তো পুজোর আগেও মনমরা উৎসবপ্রেমীরা। এই পরিস্থিতিতেও কী আপনি পাহাড়ে বেড়াতে যাওয়ার পরিকল্পনা করছেন? ট্রেনের টিকিট বুক করতে পারছেন না বলে মনমরা? কোনও চিন্তা করবেন না। কারণ, আপনার জন্য স্পেশ্যাল বাসের ব্যবস্থা করল NBSTC।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

এনবিএসটিসি ২৩ টি স্পেশ্যাল বাস চালু করেছে। মালদহ, রায়গঞ্জ, বালুরঘাট, শিলিগুড়ি, জলপাইগুড়ি, আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার রুটে চালানো হচ্ছে এই সব বাস। এনবিসিটিসি’র তরফে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী, কোনও আসন আর ফাঁকা নেই। সপ্তমী পর্যন্ত বুকিং পুরোপুরি হয়ে গিয়েছে। যাত্রীদের কথা মাথায় রেখে পঞ্চমী থেকে চাহিদা অনুযায়ী আরও বাসের সংখ্যা বেশ কয়েকটি রুটে বাড়ানো হচ্ছে। কোনও যাত্রী চাইলে অনলাইনে বাসের টিকিট বুক করতে পারেন। আবার প্রয়োজন হলে কাউন্টারে গিয়েও টিকিট বুক করতে পারেন তিনি।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[আরও পড়ুন: পুজোয় পর্যটকদের জন্য তৈরি অযোধ্যা পাহাড়, করোনা সংক্রমণ এড়াতে নেওয়া হল একাধিক পদক্ষেপ]

করোনা পরিস্থিতিতে বেশ কয়েকমাস ধরে বেড়ানো প্রায় বন্ধ। কাজকর্মেও দুরদুরান্তে যাওয়ার প্রয়োজনীয়তা খানিক কমেছে। তাই স্বাভাবিকভাবেই কমেছে যাত্রীর সংখ্যা। পুজোর মুখে ফের যাত্রীর চাপ অনুভব করতে পেরে যথেষ্ট খুশি রাজ্য পরিবহণ নিগম। কিছু পাহাড়প্রেমী মানুষও যেন হাঁফ ছেড়ে বেঁচেছেন। ট্রেনের অভাবে অনেকেই ভেবেছিলেন এবার বুঝি পাহাড়ের নির্জনতাকে আঁকড়ে ধরে পুজো কাটানো যাবে না। কিন্তু পুজোয় ট্রেনের বিকল্প হিসাবে বাস পরিষেবা মেলায় যথেষ্ট খুশি তাঁরা। তাই তো করোনার চোখরাঙানিকে কিছুটা চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে NBSTC’র বাসে চড়েই পাহাড়মুখী হুজুগেরা।

[আরও পড়ুন: পুজোয় হাতছানি দিচ্ছে সিকিম, সাত মাস পর পর্যটকদের জন্য খুলে গেল পাহাড়ি রাজ্যের দুয়ার]

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next