Advertisement

KKR কনভয়ের জন্য থমকে অ্যাম্বুল্যান্স! ভিডিও ভাইরাল হতেই কী দাবি পুলিশের?

02:42 PM May 05, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেশজুড়ে ভয়াবহ করোনা পরিস্থিতির মধ্যে এই মরশুমের আইপিএল স্থগিত করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিসিসিআই। বোর্ড সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় (Sourav Ganguly) জানিয়ে দিয়েছেন, ক্রিকেটারদের সুরক্ষার কথা ভেবেই টুর্নামেন্ট স্থগিতের সিদ্ধান্ত। প্রত্যেক ক্রিকেটারকে নিরাপদে বাড়ি পৌঁছে দেওয়ার দায়িত্বও নিয়েছে বিসিসিআই। ফলে এবারের মতো আর আইপিএল ম্যাচ দেখার সুযোগ হচ্ছে না ক্রিকেটপ্রেমীদের। কিন্তু এরই মধ্যে কলকাতা নাইট রাইডার্স বাসের ভাইরাল একটি ভিডিও নিয়ে রীতিমতো শোরগোল পড়ে গিয়েছে। কেকেআর কনভয়ের জন্য দাঁড়িয়ে বেশ খানিকক্ষণ দাঁড়িয়ে রইল অ্যাম্বুল্যান্স!

Advertisement

ঘটনা আহমেদাবাদের। গত ৩ মে সেখানে নরেন্দ্র মোদি স্টেডিয়ামে বিরাট কোহলির আরসিবির (RCB) সঙ্গে ম্যাচ ছিল নাইটদের। কিন্তু দুই নাইট ক্রিকেটার সন্দীপ ওয়ারিয়র ও বরুণ চক্রবর্তী করোনা আক্রান্ত হওয়ায় স্থগিত হয়ে গিয়েছিল সেই ম্যাচ। তারপর তো গোটা আইপিএলই স্থগিত হয়ে গেল। মনে করা হচ্ছে, আহমেদাবাদের এই ভিডিওটি সেই সময়েরই। ১৫ সেকেন্ডের ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে, তিনটি কেকেআর (KKR) বাস এগিয়ে চলেছে। যেগুলি ঘিরে রেখেছে পুলিশের গাড়ি। আর এই কনভয় যাওয়ার সময়ই পিছনে থমকে একটি অ্যাম্বুল্যান্স। ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়তেই বিতর্ক দানা বাঁধে।

[আরও পড়ুন: শেন ওয়ার্ন-গিলক্রিস্টের প্রাক্তন সতীর্থকে অপহরণ! চাঞ্চল্য ক্রিকেট মহলে]

করোনা কালে (Corona Virus) অ্যাম্বুল্যান্সের আনাগোনা কয়েকগুণ বেড়ে গিয়েছে। গোটা দেশ মহামারীর বিরুদ্ধে লড়ে চলেছে। আর তার মধ্যে অ্যাম্বুল্যান্সকেই নাকি কেকেআর কনভয় পাস করানোর জন্য রুখে দেওয়া হয়েছে। এ দৃশ্যকে অমানবিক বলেই দাবি করেছেন নেটিজেনরা। কিন্তু পুলিশ অন্য কথা বলছে। তাদের দাবি, সোশ্যাল মিডিয়ায় যে ভিডিওটি ছড়িয়ে পড়েছে, তা বিভ্রান্তিকর। পুলিশের ভাবমূর্তি খারাপের চেষ্টা মাত্র।

আহমেদাবাদের যুগ্ম পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) ময়ঙ্ক সিং জানান, “আমরা ভিডিওটা দেখেছি। ট্রাফিক পুলিশ সত্যিই অ্যাম্বুল্যান্সকে দাঁড়াতে বলেছিল কি না, তা খতিয়ে দেখা হবে। কিন্তু রাস্তায় ভিআইপি কনভয় থাকলেও পুলিশ কখনওই অ্যাম্বুল্যান্সকে আটকায় না। তা সে আইপিএল হোক কিংবা মন্ত্রীর কনভয়। এমনকী কোনও কনভয়ের জন্য শববাহী যানও আটকানো হয় না। পুলিশের ভাবমূর্তি নষ্ট করার জন্যই এমন ভিডিও ছড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে।”

[আরও পড়ুন: IPL বাতিল হওয়ায় মনখারাপ ইডেনের, অনিশ্চয়তার মুখে ঘরোয়া ক্রিকেটও]

Advertisement
Next