‘বিরাট সম্মান’, বুমরাহর পর টেস্টে অধিনায়ক হওয়ার ইচ্ছাপ্রকাশ কেএল রাহুলেরও!

05:36 PM Jan 18, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিরাট কোহলির (Virat Kohli) ইস্তফার পর কে হবেন ভারতীয় টেস্ট দলের অধিনায়ক? বিসিসিআই যখন এই লাখ টাকার প্রশ্নের উত্তর খুঁজছে, তখনই কৌশলে একে একে নিজেদের নাম ভাসিয়ে দিচ্ছেন দলের সিনিয়র তারকারা। জশপ্রীত বুমরাহ ইতিমধ্যেই জানিয়ে দিয়েছেন, সুযোগ পেলে ভারতের টেস্ট দলের নেতৃত্ব দেবেন তিনি। এবার সেই একই ধরনের ইচ্ছার কথা শোনা গেল অধিনায়কত্বের আরেক দাবিদার লোকেশ রাহুলের (KL Rahul) মুখেও। বলে দিলেন, সুযোগ পেলে অধিনায়কত্বে তিনিও না বলবেন না।

Advertisement

বস্তুত, বিরাটের পর ভারতের টেস্ট দলের অধিনায়ক হওয়ার দৌড়ে সবচেয়ে এগিয়ে আছেন সীমিত ওভারের ক্রিকেটের নিয়মিত অধিনায়ক রোহিত শর্মা (Rohit Sharma)। যদিও রোহিতের বয়স এবং ফিটনেস তাঁর অধিনায়কত্ব পাওয়ার অন্তরায় হতে পারে। সেক্ষেত্রে দ্বিতীয় যদি কারও নাম ভাবা হয়, সেটি হবেন রাহুলই। সম্প্রতি বিরাট এবং রোহিতের অনুপস্থিতিতে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে জোহানেসবার্গ টেস্টের নেতৃত্ব দিতে দেখা গিয়েছে তাঁকে। রোহিতের অনুপস্থিতিতে ভারতের ওয়ানডে দলের অধিনায়কত্বও তিনিই করবেন।

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: অধিনায়কত্ব কারও জন্মগত অধিকার নয়, বিরাটকে বেনজির কটাক্ষ গম্ভীরের]

স্বাভাবিকভাবেই টেস্ট অধিনায়ক হিসাবে রাহুলের নাম নিয়েও ভালমতোই গুঞ্জন চলছে। মঙ্গলবার এক সাংবাদিকের প্রশ্নের উত্তরে সেই গুঞ্জন প্রসঙ্গে রাহুল বলেন,”দলকে নেতৃত্ব দেওয়ার সুযোগ পেলে সেটা বিরাট বড় সম্মানের হবে। এটা সত্যিই খুব উৎসাহব্যঞ্জক একটা ব্যাপার। আর আমি আমার সবটুকু দিয়েই দলকে নেতৃত্ব দেওয়ার চেষ্টা করব। এটা সত্যিই বড় দায়িত্ব হবে।” অর্থাৎ, বোর্ড দায়িত্ব দিলে তিনি যে প্রস্তুত, তা স্পষ্টতই বুঝিয়ে দিলেন রাহুল। একদিন আগে জশপ্রীত বুমরাহও (Jasprit Bumrah) একইভাবে ঘুরিয়ে অধিনায়ক হওয়ার ইচ্ছাপ্রকাশ করেছিলেন। তাঁকে বলতে শোনা গিয়েছিল, ”যদি সুযোগ দেওয়া হয়, তাহলে সেটা অত্যন্ত সম্মানের ব্যাপার হবে। আমার মনে হয় সুযোগ এলে কোনও খেলোয়াড়ই না বলবে না। আমার উপর দায়িত্ব দেওয়া হলে আমি তা গ্রহণ করতে প্রস্তুত। যে কোনও ধরনের দায়িত্বেই আমি একই ভাবে অবদান রাখতে চাই।”

[আরও পড়ুন: সৌরভের সঙ্গে সংঘাতের জেরেই নেতৃত্ব ছেড়েছেন কোহলি! বিস্ফোরক প্রাক্তন পাক অধিনায়ক]

তবে যদি রোহিত ছাড়া অন্য কারও কথা ভাবা হয় সেক্ষেত্রে বুমরাহর থেকে এগিয়েই থাকবে রাহুল। কারণ, জাতীয় দলের পাশাপাশি আইপিএলেও নেতৃত্ব দেওয়ার অভিজ্ঞতা আছে তাঁর। আগামী আইপিএলেও (IPL) লখনউ টিমের নেতৃত্ব দেবেন তিনি। মঙ্গলবারই সূত্র মারফত জানা গিয়েছে, লখনউ দলে রাহুল ছাড়া থাকবেন অস্ট্রেলিয়ার মার্কাস স্টয়নিস এবং ভারতের লেগ স্পিনার রবি বিষ্ণোই। অন্যদিকে আহমেদাবাদ দলের নেতৃত্ব দেবেন হার্দিক পাণ্ডিয়া। আহমেদাবাদ দলে হার্দিক ছাড়া খেলবেন রশিদ খান এবং শুভমন গিল।

Advertisement
Next