‘বিসিসিআইয়ের কিছু লোক চায়নি’, অধিনায়কত্ব না পাওয়া নিয়ে বিস্ফোরক যুবরাজ

02:09 PM May 09, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভারতীয় দলের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার তিনি। ২০১১ সালে ভারতকে বিশ্বকাপ জেতাতে তাঁর ভূমিকা অনস্বীকার্য। সেই যুবরাজ সিং (Yuvraj Singh)  এবার বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন। শচীনের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন বলেই ভারতীয় দলের অধিনায়ক হতে পারেননি, এমনই দাবি করেছেন তিনি। ২০০৭ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জেতে ভারত। তার আগেই মহেন্দ্র সিং ধোনিকে (MS Dhoni) অধিনায়ক হিসাবে বেছে নেওয়া হয়। বিশ্বকাপজয়ী দলে ছিলেন যুবরাজও। স্টুয়ার্ট ব্রডকে মারা যুবির ছয় ছক্কা এখন রূপকথায় জায়গা পেয়েছে।  

Advertisement

সেই যুবরাজ একটি স্পোর্টস চ্যানেলে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে বলেছেন, ভারতের কোচ থাকাকালীন শচীনের (Sachin Tendulkar) সঙ্গে ঝামেলায় জড়িয়ে পড়েন গ্রেগ চ্যাপেল (Gregg Chapell)। সেই সময় শচীনের পক্ষে দাঁড়িয়েছিলেন যুবরাজ। সেই কারণেই জাতীয় নির্বাচকদের পছন্দের খাতা থেকে বাদ পড়েন তিনি। ঘটনার সময়ে ভারতীয় অধিনায়ক ছিলেন রাহুল দ্রাবিড়। তাঁর ডেপুটির পদ থেকেও সরিয়ে দেওয়া হয় যুবরাজকে।

[আরও পড়ুন: ‘আমি ফল বিক্রি করা ছাড়ব না’, ছেলের পা মাটিতে থাক, চান উমরানের বাবা]

যুবরাজ বলেছেন, “আমি অধিনায়ক হব, এমনটাই কথা ছিল। কিন্তু সেই সময়েই গ্রেগ চ্যাপেলের ঘটনাটি ঘটে। হয়তো আমিই একমাত্র ছিলাম, যে সতীর্থের পাশে দাঁড়িয়েছিলাম। বিসিসিআইয়ের বেশ কয়েকজন কর্তা আমার উপরে বেশ অসন্তুষ্ট হয়েছিলেন। বলা হয়েছিল, অন্য যেকোনও কাউকে অধিনায়ক করা হোক, আমাকে যেন অধিনায়ক করা না হয়। আমাকে ভাইস ক্যাপ্টেনের পদ থেকেও সরিয়ে দেওয়া হয়। সেই সময় শেহওয়াগ ছিল না। হঠাৎই ধোনিকে অধিনায়ক ঘোষণা করা হয়।”

Advertising
Advertising

তিনি আরও বলেছেন, “অধিনায়কত্ব না পাওয়া নিয়ে আমার কোনও আক্ষেপ নেই। আজ যদি একইরকম ঘটনা ঘটে,আমি আজও আমার টিমমেটের পাশে দাঁড়াব।” অধিনায়ক ধোনির সঙ্গেই দু’ টি বিশ্বকাপ জিতেছেন তিনি। মাহি প্রসঙ্গে তিনি বলেছেন, “কয়েকদিন পরে আমি বুঝতে পেরেছিলাম, অধিনায়ক হিসাবে খুবই উন্নতি করছে ধোনি। তারপরে আমিও বেশ কয়েকবার চোট পেয়ে দলের বাইরে চলে যাই। ফলে অধিনায়ক হলেও আমি কাজ করতে পারতাম না।”

[আরও পড়ুন: হিন্দু হওয়ায় বৈষম্যের শিকার হয়েছিলেন! কানেরিয়ার বিস্ফোরক অভিযোগের জবাব দিলেন আফ্রিদি

Advertisement
Next