IPL 2022: ‘কেকেআরে এখন আর খেলি না, তাই ইডেন আমার ঘরের মাঠ নয়’, বললেন গুজরাটের ঋদ্ধিমান

01:19 PM May 24, 2022 |
Advertisement

আলাপন সাহা: মঙ্গলবার বিকেলে ক্লাব হাউসের পাশের গেট দিয়ে গুজরাত টাইটান্স (Gujarat Titans) টিম যখন ঢুকছে, তখন বাইরে বেশ খানিকটা জটলা। সাধারণ মানুষ উকি-টুকি মেরে দেখার চেষ্টা করছেন। কোথায় হার্দিক পাণ্ডিয়া? কোথায় রশিদ খান? মহম্মদ সামি কিংবা ঋদ্ধিমান সাহা-ই (Wriddhiman Saha) বা কোথায়? টিম বাস থেকে বিজয় শঙ্কররা নামছেন। কিন্তু বাকিরা কোথায়? কিছুক্ষণ আগেই টিম হোটেল থেকে ডিরেক্টর বিক্রম সোলাঙ্কির সঙ্গে ভার্চুয়াল প্রেস কনফারেন্স করেছেন দুই বঙ্গ তারকা। তাহলে কি ম্যাচের আগের দিন অপশনাল ট্রেনিং রয়েছে গুজরাতের?

Advertisement

এবারের আইপিএলের (IPL) বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই গুজরাত তাই করেছে। যাঁদের ইচ্ছে, তাঁরা শুধুই ম্যাচের আগের দিন অনুশীলনে যেতেন। অর্থাৎ অপশনাল প্র‌্যাকটিস সেশন রাখা হত। ইডেনে অবশ্য সেররম কিছু হয়নি। গুজরাতের দ্বিতীয় টিম বাসটা এল মিনিট পাঁচেক পর। একে একে নামলেন হার্দিকরা।

[আরও পড়ুন: IPL 2022: উমরান মালিক থেকে অভিষেক শর্মা, এবারের আইপিএলে নজর কাড়লেন যে তরুণ প্রতিভারা]

ঋদ্ধি এলেন প্রায় সবার শেষে। বাস থেকে নেমেই ঢাউস কিট ব্যাগটা নিয়ে ইডেনে ঢুকলেন। ঢোকার সময় দু’একজনকে একটু হাত নাড়ালেন। ব্যস, বাকি সময় রুটিন মেনে ট্রেনিং। দেখে কে বলবে চব্বিশ ঘণ্টা পরই নিজের ঘরের মাঠে প্লে অফে নামতে চলেছেন বঙ্গ সন্তান। না, ইডেন বলে ঋদ্ধির মধ্যে আলাদা কোনও উত্তেজনা নেই। বরং শুনলে অবাক হতে হয়, ঋদ্ধির কাছে এটা ঘরের মাঠে খেলা নয়। এটা অ্যাওয়ে ম্যাচ।

Advertising
Advertising

ঋদ্ধি বলছিলেন, “দেখুন আমি এখন গুজরাতের হয়ে খেলছি। তাই আমার ঘরের মাঠ হল মোতেরা। কারণ কেকেআরে এখন আর খেলি না। তাই ইডেন কী করে আমার ঘরের মাঠ হবে? এটা আমি অ্যাওয়ে ম্যাচ ভেবেই নামছি।” বরং ইডেন প্লে অফে নিয়ে সামিকে বেশ উত্তেজিত শোনাল। ভারতীয় পেসার বলছিলেন, “ইডেনে প্লে অফে খেলতে নামব। সেটা ভেবে অবশ্যই ভাল লাগছে। এই মাঠেই আমার অভিষেক হয়েছে। সেখানে খেলতে পারলে তো ভাল লাগবেই। দেখুন এটাই আমার হোমটাউন। সেখানে খেলার আলাদা একটা মজা রয়েছে। ইডেনের জনসমর্থনের সামনে খেলব। দারুণ লাগছে।” সামিকে প্রশ্ন করা হয়, ইডেনের উইকেট আপনার চেনা, সেটা অবশ্যই বাড়তি সুবিধা দেবে? গুজরাত পেসার সেটা মানতে চাইলেন না। বললেন, “টি-টোয়েন্টিতে কন্ডিশন দেখে খথুব একটা লাভ হয় না। তাছাড়া অনেক ম্যাচ খেলেছি। ভারতের সব জায়গাতেই প্রচুর ম্যাচ খেলা হয়ে গিয়েছে। ফলে কোথায় কী করতে হয়, সেই অভিজ্ঞতা হয়েছে। তবে হ্যাঁ, ঘরের মাঠে খেলার কিছুটা সুবিধা আছে।”

ইডেনে সামি প্রথম আইপিএল প্লে অফ খেলতে নামলেও, ঋদ্ধির অবশ্য সেই অভিজ্ঞতা রয়েছে। এখানে দুটো আইপিএল প্লে অফ খেলেছেন। তবে সে’সব নিয়ে আর ভাবতে চান না। সবচেয়ে বড় কথা হল, প্লে অফ ভেবে তিনি বাড়তি কোনও চাপই নিতে চান না। পরিষ্কার বললেন, “আইপিএলে সব ম্যাচে নামার আগেই আমি সমান উত্তেজিত থাকি। এর আগেও কোয়ালিফায়ার খেলেছি। জানি এই ম্যাচের পরিবেশ-পরিস্থিতি ঠিক কীরকম হয়। তবে প্লে অফে আমরা যেভাবে খেলে এসেছি, এখানেও ঠিক সেভাবেই খেলব। অন্য একটা ম্যাচ হিসাবে এটাকে দেখছি। এখনও পর্যন্ত যা ঠিক হয়েছে, তাতে অতিরিক্ত কিছু করব না আমরা।”

[আরও পড়ুন: আইপিএল প্লে অফে মুখ্যমন্ত্রীকে আমন্ত্রণ সিএবির, ধন্যবাদ জানালেন মমতা]

Advertisement
Next