ভারতীয় বোর্ডের ‘দাদাগিরি’মানতে নারাজ, আইপিএলের বিরুদ্ধে সব দেশকে খেপিয়ে তুলবে PCB!

08:02 PM Jun 16, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আইপিএল (IPL 2022) বিরাট অঙ্কের মিডিয়া স্বত্ত্ব পেতেই পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের গাত্রদাহ শুরু হয়ে গেল। ভারতীয় বোর্ড প্রস্তাবিত আড়াই মাসের আইপিএল নিয়ে এবার সরব হতে চলেছে পিসিবি। পাক বোর্ডের দাবি, আইপিএল যদি আড়াই মাস ধরে হয়, তাহলে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের পক্ষে সেটা বিপজ্জনক হবে। কারণ, আইপিএলের মতোই বিভিন্ন দেশে ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট চালু হচ্ছে। এভাবে লিগগুলি বাড়াবাড়ি শুরু করলে দ্বিপাক্ষিক সিরিজ সংকটে পড়ে যাবে।

Advertisement

দেড় মাসের বদলে পরের আইসিসির এফটিপি উইন্ডো থেকে আইপিএল হবে আড়াই মাসের, বিরাট অঙ্কের মিডিয়া স্বত্ত্ব পাওয়ার পরই ঘোষণা করেছিলেন বিসিসিআই সচিব জয় শাহ (Jay Shah) । বোর্ড সচিব জানিয়েছেন, এবার আইপিএলে সর্বমোট ৭৪-টা ম্যাচ হয়েছে। ভবিষ্যতে সেই সংখ্যাটা আরও বাড়বে। শেষমেশ সেটা গিয়ে ৯৪-তে দাঁড়াবে। দেড় মাসের আইপিএল নয়, তার পরিবর্তে টুর্নামেন্টের মেয়াদ হতে চলেছে আড়াই মাসের। সেটা হবে আইসিসির পরের ক্রিকেট ক্যালেন্ডার থেকে। শাহ বলেছেন, “সরকারিভাবে পরের আইসিসির এফটিপি ক্যালেন্ডারে আইপিএল আড়াই মাসে থাকবে।” বিসিসিআইয়ের (BCCI) তরফ থেকে ইতিমধ্যেই এই ব্যাপারটা নিয়ে আইসিসি (ICC) ও বিভিন্ন দেশের ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে কথাও হয়েছে।

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: তৃণমূলে যোগ দেওয়ায় ৪ জনকে কোপ, রেহাই পেল না শিশুও, ত্রিপুরায় কাঠগড়ায় বিজেপি]

কিন্তু ভারতীয় বোর্ডের এই দাদাগিরি পছন্দ নয় পিসিবি’র (PCB)। পাক বোর্ড বলছে, “জয় শাহ বলছেন বিসিসিআই নাকি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের প্রতি দায়বদ্ধ। অথচ, এত ক্রিকেট লিগ তৈরি হয়ে যাচ্ছে, এর মধ্যে আইপিএল বহরে বাড়ছে। এসব নিয়ে আলোচনা দরকার।” পাক বোর্ডের এক সূত্রের দাবি, জুলাই মাসে কমনওয়েলথ গেমস চলাকালীন এ নিয়ে বিভিন্ন ক্রিকেট সংস্থার সঙ্গে আলোচনা করবে তাঁরা।

[আরও পড়ুন: এবার জরায়ুর ক্যানসারের ভ্যাকসিন ভারতেই! সরকারি ছাড়পত্র সেরাম ইনস্টিটিউটকে]

বস্তুত, বিসিসিআই জানিয়েই দিয়েছে আগামী আইপিএল আড়াই মাসে হবে। এবং তাতে বিশ্বের সেরা সেরা ক্রিকেটাররা থাকবেন। কিন্তু ঘটনা হল এই সেরা সেরা ক্রিকেটারদের মধ্যে পাক ক্রিকেটাররা ব্রাত্য। কারণ আইপিএলে পাকিস্তানের ক্রিকেটারদের খেলার অনুমতি নেই। সেটাই ভাবাচ্ছে পিসিবিকে। একে তো পাক ক্রিকেটাররা খেলবেন না, তার উপরে যদি আন্তর্জাতিক সিরিজও না হয়, তাহলে আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে পিসিবি। সেকারণেই আইপিএল নিয়ে এত অভিযোগ তাঁদের।

Advertisement
Next