‘রোহিত শর্মা রান না পেলে তো এত কথা হয় না’, এবার বিরাটের পাশে গাভাসকর

10:46 AM Jul 12, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: একদিন আগে তিনি পাশে পেয়েছিলেন অধিনায়ককে। এবার এক কিংবদন্তিও পাশে দাঁড়ালেন বিরাট কোহলির (Virat Kohli)। টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন অধিনায়কের খারাপ ফর্ম নিয়ে যতই লেখালেখি হোক, টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন ওপেনার সুনীল গাভাসকর (Sunil Gavaskar) কোনওভাবেই বিরাট কোহলিকে বাদ দেওয়ার পক্ষে নন। তিনি স্পষ্ট বলে দিয়েছেন, ফর্ম তো অস্থায়ী কিন্তু বিরাটের খেলার মান স্থায়ী।

Advertisement

সমালোচকদের বেশ আক্রমণাত্মক ভঙ্গিতেই জবাব দিয়েছেন গাভাসকর। লিটল মাস্টারের বক্তব্য, “রোহিত শর্মা (Rohit Sharma) রান না পেলে তো এত কথা হয় না। অন্য কোনও ব্যাটার রান না পেলে তো এত লেখালেখি হয় না। একজনকে নিয়েই এত কাটাছেঁড়া কেন?” গাভাসকরের মত, বিশ্বকাপের দল নিয়ে এখনই ভাবনার সময় আসেনি। তিনি বলছেন,”বিশ্বকাপের দল বাছাই এখনও দু’মাস বাকি। তার আগে এশিয়া কাপ (Asia Cup) আছে। এশিয়া কাপের ফর্ম দেখে না হয় বিশ্বকাপের দল বাছাই করা যাবে। আমাদের নির্বাচকরা যথেষ্ট যোগ্য। ওদের উপর ভরসা রাখুন।”

[আরও পড়ুন: ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে প্রথম ওয়ানডে-তে অনিশ্চিত কোহলি, চোট না খারাপ ফর্ম? জল্পনা তুঙ্গে]

ফর্মের বিচারে বিরাটের পাশে থাকলেও গাভাসকর বিরাট-সহ সিনিয়র ক্রিকেটারদের জাতীয় দলে খেলার সময় বিশ্রাম নেওয়া নিয়ে ক্ষুব্ধ। তিনি সাফ বলে দিচ্ছেন, “তোমরা আইপিএলে (IPL 2022) খেলার সময় তো বিশ্রাম নাও না। তাহলে জাতীয় দলের হয়ে খেলার সময় বিশ্রাম কেন।” গাভাসকরের বক্তব্য, টেস্ট ম্যাচ খেললে তাও শরীর এবং মনের পরিশ্রম হয়। কিন্তু টি-২০ ক্রিকেটে তো মাত্র ২০ ওভারে ইনিংস শেষ। শারীরিক বা মানসিক পরিশ্রমও হয় না তেমন। তাহলে কেন টি-২০ খেলছ না?

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: এবার বিশ্বকাপে রোহিতের ভারতকে সহজে হারানো যাবে না, পাকিস্তানকে সতর্কবার্তা শোয়েবের]

বস্তুত ২০২১ টি-২০ বিশ্বকাপের (T-20 World Cup) পর থেকে এখনও পর্যন্ত ভারত সীমিত ওভারের ক্রিকেটে  সর্বশক্তি দিয়ে নামেনি। কোনও না কোনও তারকা বিশ্রামে থেকেছেন। বোর্ডের সাফাই কোভিডের (Coronavirus) পর ঠাসা ক্রীড়াসূচির জন্য ক্রিকেটারদের বিশ্রাম দেওয়াটা জরুরি। কিন্তু সেই যুক্তি মেনে নিয়েও প্রশ্ন উঠছে গোটা দল যদি একবারও একসঙ্গে না খেলে, তাহলে দলের মধ্যে কেমিস্ট্রি তৈরি হবে কী করে? নিয়মিত তারকারা নিজেদের কাজটা বুঝে নেবেন কীভাবে? বোর্ডের কাছে কোনও জবাব নেই।

Advertisement
Next