Advertisement

কবে শুরু হতে পারে কলকাতা লিগ? ফেডারেশন ও রাজ্য সংস্থাগুলির বৈঠকে মিলল ইঙ্গিত

11:21 PM Apr 30, 2021 |
Advertisement
Advertisement

স্টাফ রিপোর্টার: দেশজুড়ে বাড়ছে করোনার সংক্রমণ (Corona pandemic)। করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে কার্যত বিধ্বস্ত গোটা দেশ। রাজ্যেও বাড়ছে সংক্রমণ। জারি করা হয়েছে আংশিক লকডাউন। এই পরিস্থিতিতে কবে ময়দানে ফিরবে ফুটবল? এই প্রশ্নই ঘুরপাক খাচ্ছে কলকাতার ফুটবল ভক্তদের মনে। তবে কোভিড পরিস্থিতি মিটে গেলে আগামী আগস্ট থেকে শুরু হতে পারে শতাব্দী প্রাচীন কলকাতা লিগ। এমনটাই ইঙ্গিত মিলেছে ফেডারেশন সভাপতি প্রফুল্ল প্যাটেল এবং সচিব কুশল দাস ও সব ক’টি রাজ্য সংস্থার সভাপতি ও সচিবের ভিডিও কনফারেন্সে বৈঠকের পর। ঠিক হয়েছে, আগস্ট থেকে দেশের ঘরোয়া ফুটবল শুরুর পরিকল্পনা করা হবে। যার অর্থ কলকাতা লিগ (Calcutta League) হওয়ার সম্ভাবনা আগস্ট মাস থেকে। তবে সব কিছুই নির্ভর করছে করোনা পরিস্থিতির উপর।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

এদিকে, এই মরশুমে মহামারীর মধ্যেই যে আই লিগ খেলতে হবে, তা প্রতিটি ক্লাবই জানত। এমনকী, একটি ক্লাব অবনমনের আওতায় পড়বে, তা আই লিগ শুরুর আগেই সব ক্লাবকে জানিয়ে দিয়েছিল ফেডারেশন। তারপরেও অবনমন হয়ে গিয়ে, করোনা মহামারীর কথা উল্লেখ করে এই মরশুমে আই লিগের অবনমন বন্ধ রাখার জন্য ফেডারেশন সভাপতির কাছে আবেদন করেছেন নেরোকা এফসি। ফলে প্রশ্ন উঠে গিয়েছে, শেষ পর্যন্ত কি এই মরশুমে আই লিগের অবনমন বন্ধ হয়ে যাবে?

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[আরও পড়ুন: রাহুল-হরপ্রীতের দুরন্ত পারফরম্যান্স, প্রীতির পাঞ্জাবের কাছে হার বিরাটদের]

এদিনের বৈঠকে প্রফুল্ল প্যাটেল ফেডারেশনের টেকনিক্যাল ডিরেক্টর আইজ্যাক দোরুর কাছে জানতে চান, এই অবস্থায় নেরোকার চিঠি নিয়ে তাঁর কী বক্তব্য। দোরু জানান, বিশ্বের বেশ কয়েকটি লিগে গত মরশুমে অবনমন বন্ধ করা হয়েছে। দোরুর বক্তব্য শুনে সঙ্গে সঙ্গে সুব্রত দত্ত বলেন, “লিগের অবনমন নিয়ে এই মিটিংয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া সম্ভব নয়। সিদ্ধান্ত নিতে পারে একমাত্র লিগ কমিটি। লিগ কমিটির সিদ্ধান্তে ফেডারেশনের কার্যকরি কমিটিতে পাশ হতে হবে। তখন ঠিক হয়, নেরোকার ইস্যুটি লিগ কমিটিতে যাবে। সেখানে গত মরশুমের আই লিগে অংশ নেওয়া সব ক্লাবগুলিও মতামত নেওয়া হবে। কারণ, অন্যান্যরা খরচ করে দল গঠন করে অবনমন বাঁচিয়েছে। এই সময় অবনমন হওয়া নেরোকার অবনমন বাঁচিয়ে দিলে অন্য ক্লাবগুলোর জন্য তা খারাপ বার্তা যেতে পারে। সেই কারণেই আই লিগের সব ক্লাবগুলোর মতামত নিয়ে নিতে চায় ফেডারেশন। পাশাপাশি আরও একটা সমস্যা রয়েছে। করোনার কারণে এই মরশুমে অবনমন আটকে গেলে, পরের মরশুমেও করোনার কারণে আই লিগের অবনমন হবে না। ফলে পর পর দু’মরশুম অবনমন আটকে গেলে আই লিগে দল বেড়ে যাবে। ফলে নেরোকার অবনমন বন্ধ করলে অন্য দিকেও সমস্যা দেখা যেতে পারে। এদিকে, এদিন, ভিডিও কনফারেন্সে বিভিন্ন রাজ্য সংস্থার প্রতিনিধিদের প্রফুল্ল প্যাটেল বলেন, রাজ্যের সিনিয়র ফুটবলাররা ভ্যাকসিন নিতে চাইলে, ফেডারেশন তার ব্যবস্থা করবে।

[আরও পড়ুন: বাড়ছে করোনার প্রকোপ, আর্থিক সাহায্যে এগিয়ে এলেন ধাওয়ান-সহ একাধিক ক্রিকেটার]

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next