Advertisement

কোভিড যুদ্ধে শামিল কলকাতার ফুটবল ক্লাবগুলি, বিনামূল্যে করা হল টিকাকরণের ব্যবস্থা

09:12 PM May 07, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: গোটা দেশে নতুন করে চোখ রাঙাচ্ছে প্রাণঘাতী করোনা। মারণ ভাইরাসের মোকাবিলায় একজোট হয়ে লড়াইয়ের বার্তা দিয়েছেন বিরাট কোহলি। ক্রিকেটার থেকে ফুটবলার- খেলার দুনিয়ার তারকাদের অনেকেই আর্থিক সাহায্য করে মানুষের পাশে থাকছেন। কেউ আবার দুস্থদের মুখে তুলে দিচ্ছেন খাবার। আর এবার এই লড়াইয়ে শামিল কলকাতার ফুটবল ক্লাবগুলি। সাধারণ মানুষকে টিকা দেওয়ার দায়িত্ব নিল ময়দানের দু’টি ক্লাব এবং আইএফএ।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

গোটা দেশে দাপট দেখাচ্ছে মারণ ভাইরাস (Corona Virus)। প্রতিদিনই লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। উদ্বেগ বাড়াচ্ছে অ্যাকটিভ কেসও। ব্যতিক্রমী নয় বাংলাও। শুক্রবারই যেমন রাজ্য স্বাস্থ্যদপ্তর জানিয়েছে, ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে সংক্রমিত ১৯ হাজারেরও বেশি। প্রাণ হারিয়েছেন ১১২ জন। টেস্টিংয়ের পাশাপাশি টিকাকরণের গতি বাড়িয়ে সংক্রমণ ঠেকানোর চেষ্টা চলছে পুরোদমে। তবে ভ্যাকসিনের অভাবের কথাও উঠে আসছে অনেক ক্ষেত্রে। কলকাতার সাধারণ মানুষ যাতে নিশ্চিন্তে টিকা পান, তা নিশ্চিত করতে এবার কলকাতার ফুটবল ক্লাবগুলিও এগিয়ে এল। সাদার্ন এভিনিউ, কালীঘাট মিলন সংঘের সঙ্গে হাত মিলিয়ে বিনামূল্যে টিকাকরণের ব্যবস্থা করল আইএফএ’ও।

[আরও পড়ুন: বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনাল ও টেস্ট সিরিজের জন্য ঘোষিত ভারতীয় দল, বাদ হার্দিক-ভুবি]

বৃহস্পতিবার থেকে কলকাতা লিগে খেলা দুটি ক্লাব সাদার্ন সমিতি ও কালীঘাট মিলন সংঘ, আইএফএ-র সঙ্গে একজোট হয়ে ভ্যাকসিন (Corona vaccine) দেওয়ার ব্যবস্থা করল। শুক্রবার একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এমনটাই জানানো হল। তবে শুধুই ভ্যাকসিন নয়, হাসপাতালে বেড পেতে কিংবা অক্সিজেন সিলিন্ডার, ভেন্টিলেটর পেতেও যাতে কোনও সমস্যায় না পড়তে হয়, সে দিকেও নজর রাখবে ক্লাব কর্তৃপক্ষ।

সাদার্ন সমিতির সচিব সৌরভ পাল বলেন, “আমাদের ক্লাব অফিসের কাছেই একটি স্বাস্থ্য কেন্দ্র রয়েছে। প্রতিদিনই সেখানে টিকা নেওয়ার লম্বা লাইন পড়ে। লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা অনেকেই গরিব পরিবারের। অনেক কষ্টে টাকা জমিয়ে টিকা নিতে আসেন। এই বিষয়টিই আমাদের নাড়া দিয়েছিল। তাই বিনামূল্যে টিকাকরণ অভিযানের সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলি।” প্রথমে ঠিক হয়েছিল, ৪৫ ঊর্ধ্ব যাঁরা, ফুটবলের সঙ্গে যুক্ত, তাঁদের টিকা দেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে। তবে পরে সংখ্যাটা বাড়তে থাকে।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

এরপরই কালীঘাট মিলন সংঘ এফসি এবং আইএফএকে (IFA) এই অভিযানে শামিল হওয়ার প্রস্তাব দিলে তারাও রাজি হয়ে যায় বলে জানান সৌরভবাবু। ঐক্যবদ্ধভাবে লড়াই করেই করোনাকে গোলের মালা পরাতে বদ্ধপরিকর ময়দানের ক্লাবগুলি।

[আরও পড়ুন: ফের দক্ষিণ আফ্রিকার জার্সিতে দেখা যাবে ডি’ভিলিয়ার্সকে! কার বিরুদ্ধে কামব্যাক তারকার?]

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next