Advertisement

শুধু ভারত নয়, Neeraj-এর সোনা জয়ে উচ্ছ্বসিত কয়েক হাজার মাইল দূরের জার্মান গ্রামও

09:03 PM Aug 14, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভারতে সবচেয়ে জনপ্রিয় খেলা ক্রিকেট। কিন্তু টোকিও অলিম্পিকে (Tokyo Olympics) সোনা জয়ের পর বর্তমানে নীরজ চোপড়া (Neeraj Chopra) ১৩০ কোটি ভারতবাসীর নয়নের মণি। তবে শুধু এদেশের বাসিন্দারা নন, নীরজের এই অসাধারণ সাফল্যে উৎসবে মেতেছেন ভারত থেকে কয়েক হাজার মাইল দূরে জার্মানির এক গ্রামের মানুষও। হ্যাঁ, শুনতে অবাক লাগলেও এটাই সত্যি।

Advertisement

কিন্তু কেন? আসলে নীরজের কোচ Uwe Hohn এবং তাঁর বায়োকেমিক্যাল এক্সপার্ট ডঃ ক্লস বার্তোনিয়েৎজ-দু’জনেই আসলে জার্মানির বাসিন্দা। এর মধ্যে ক্লস দক্ষিণ-পশ্চিম জার্মানির Oberschlettenbach নামে ছোট্ট একটি গ্রামের বাসিন্দা। অলিম্পিক শেষ হওয়ায় এঁরা দু’জনেই নিজেদের দেশে ফিরে গিয়েছেন। আর গ্রামে ফিরে ক্লস একেবারেই হতবাক। আগে যেখানে দু’একজন নীরজের ব্যাপারে জিজ্ঞাসা করতেন। সেখানে টোকিওতে নীরজের পারফরম্যান্স দেখার পর ৭৩ বছর বয়সি বার্তোনিয়েৎজের ফোন যেন বন্ধ হতেই চাইছে না। লাগাতার বেজে চলেছে ফোন।

[আরও পড়ুন: Tokyo Olympics থেকে ফিরেই জ্বরে পড়লেন Neeraj Chopra, রয়েছে গলা ব্যথাও]

একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বার্তোনিয়েৎজ বলেন, “ভারতে নীরজের সঙ্গে কী হচ্ছে? সবাই বোধহয় ওঁকে নিয়ে খুব মাতামাতি করছে। আমি জানি নীরজের এই সোনা জয় ভারতের জন্য একটি ঐতিহাসিক মুহূর্ত। আমি কিছু ছবিও দেখেছি। এটাও দেখেছি, নীরজকে নিয়ে যেতে সেনাকে কর্ডন করতে হয়েছে।” ফোন কলের প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “আগে এতবার আমার ফোন বাজত না। আমার প্রতিবেশীরাও ওঁর খেলা দেখে মুগ্ধ। বিশেষ করে যেভাবে নীরজ জ্যাভলিন ছোঁড়ার পরই কোচিং স্টাফের উদ্দেশে মুষ্টিবদ্ধ হাতটি ছুঁড়েছে, যেন সে বুঝতেই পেরেছিল, তাঁর ছোঁড়া জ্যাভলিন অনেকদূর যাবে।” একই বক্তব্য নীরজের কোচেরও। তিনি নিজে সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই ছবি এবং ভিডিওগুলি দেখেছেন।

[আরও পড়ুন: বিতর্কে ইংল্যান্ডের সমর্থকরা, Lord’s-এ রাহুলকে লক্ষ্য করে ছোঁড়া হল শ্যাম্পেনের ছিপি]

Advertisement
Next