Advertisement

নাইজেরিয়ায় তাণ্ডব চালাল বন্দুকবাজের দল, এলোপাথাড়ি গুলিতে মৃত অন্তত ৪৩

09:20 AM Oct 19, 2021 |

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নাইজেরিয়ায় (Nigeria) ভয়াবহ ঘটনা। বন্দুকবাজদের হামলায় প্রাণ হারালেন অন্তত ৪৩ জন। আহত আরও অনেকেই। তাঁদের পার্শ্ববর্তী হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছে।

Advertisement

সংবাদসংস্থা এএফপি পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, গত রবিবার সোকোতো নামে নাইজেরিয়ার উত্তর-পশ্চিমের রাজ্যের একটি গ্রামের বাজারে আচমকা হামলা চালায় প্রায় ২০০ জন বন্দুকবাজ। মোটরবাইক, গাড়িতে এসে আচমকাই এলোপাথাড়ি গুলি ছুঁড়তে শুরু করে তারা। সেসময় বাজারে প্রচুর লোক উপস্থিত ছিলেন। ফলে অনেকেই ঘটনাস্থলে গুলির আঘাতে প্রাণ হারান। আরও অনেকে গুরুতরভাবে আহত হন।

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1630720090-3');});

[আরও পড়ুন: ভ্যাকসিন নিয়েও করোনায় মৃত আমেরিকার প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ বিদেশ সচিব কলিন পাওয়েল]

এরপরই ওই বন্দুকবাজরা সেখান থেকে চলে যায়। খবর পেয়ে ছুটে আসেন স্থানীয় প্রশাসনের আধিকারিকরা। স্থানীয় মানুষদের সহায়তায় আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। এই ঘটনা প্রসঙ্গে সোকোতো সরকারের মুখপাত্র মহম্মদ বেলো সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, রবিবার গ্রোনোয়ো গ্রামে বন্দুকবাজরা হামলা চালায়। সেই হামলায় অন্তত ৪৩ জন মারা গিয়েছে। আপাতত ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্ত শুরু হয়েছে।

এই প্রথম নয়, এর আগে গত ৮ অক্টোবর নাইজেরিয়ার সীমান্তবর্তী একটি গ্রামে একই ভাবে হামলা চালায় ওই বন্দুকবাজরা। ঘটনায় ১৯ জনের মৃত্যু হয়। প্রসঙ্গত, দীর্ঘদিন ধরেই নাইজেরিয়ার উত্তরভাগে অশান্ত। এই এলাকায় একাধিক গ্যাংয়ের উপস্থিতি এবং বোকো হারাম জঙ্গি গোষ্ঠীর কারণে এই ধরনের ঘটনা প্রায়শই ঘটে। এই বোকো হারাম জঙ্গি গোষ্ঠী নাক আইএস জঙ্গিদের সঙ্গেও হাত মিলিয়েছে। ফলে চিন্তা আরও বেড়েছে নাইজেরিয়ার সরকারের। রাষ্ট্রসংঘ (UN) -এর প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী, ২০০৯ সাল থেকে উত্তর-পূর্ব নাইজেরিয়া (Nigeria)-সহ প্রতিবেশী দেশ নাইজার, চাদ ও ক্যামেরুনে একাধিক জঙ্গি হামলা চালিয়েছে ইসলামিক জঙ্গি সংগঠন বোকো হারাম। এর মধ্যে শুধু নাইজেরিয়াতেই ৩০ হাজারের বেশি মানুষকে হত্যা করেছে। তাদের তাণ্ডবে ঘর ছাড়া হয়েছেন আরও ৩০ লক্ষ মানুষ।

[আরও পড়ুন: প্রবল খাদ্য সংকটেও হুঁশ নেই কিমের, আবারও ব্যালিস্টিক মিসাইল উৎক্ষেপণ উত্তর কোরিয়ার]

Advertisement
Next