Advertisement

এখনই বাংলাদেশকে ভ্যাকসিন দেওয়া হবে না, জানাল বিদেশমন্ত্রক

06:30 PM Jun 04, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দেশে আছড়ে পড়েছে করোনা সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউ। শীঘ্রই আসতে চলেছে থার্ড ওয়েভ বলে সতর্ক করেছেন বিশেষজ্ঞরা। এহেন পরিস্থিতিতে আপাতত বিদেশে টিকা রপ্তানি করা হবে না। কেন্দ্রের এই ঘোষণায় পরিষ্কার হয়ে গিয়েছে যে জোগান পর্যাপ্ত না হওয়া পর্যন্ত বাংলাদেশকে (Bangladesh) করোনা ভ্যাকসিন দেবে না নয়াদিল্লি।

Advertisement

[আরও পড়ুন: বৃহন্নলাদের চাকরি দিলে মিলবে কর ছাড়, নয়া ঘোষণা বাংলাদেশ সরকারের]

বৃহস্পতিবার নয়াদিল্লিতে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র অরিন্দম বাগচি জানান দেশে টিকার পর্যাপ্ত মাত্রায় জোগানের জন্য মার্কিন ভ্যাকসিন প্রস্তুতকারী সংস্থাগুলির সঙ্গে আলোচনা করা হচ্ছে। এর মধ্যে রয়েছে মডার্না, ফাইজার ও জনসন অ্যান্ড জনসনের মতো সংস্থা। তিনি বলেন, “আপনারা জানেন যে, প্রতিষেধক এবং অন্যান্য সরঞ্জাম বাইরের দেশগুলিতে রপ্তানির ক্ষেত্রে ভারতই সবার আগে ছিল। কিন্তু আমরা এখন আমেরিকার থেকে প্রতিষেধক তৈরির কাঁচামাল আমদানিকেই নিশ্চিত করতে বিভিন্ন পদক্ষেপ করছি। এই বিষয়ে মার্কিন কর্তাদের সঙ্গে আলোচনা করেছেন বিদেশমন্ত্রী এস জয়শংকর। সেই প্রেক্ষাপটে প্রতিষেধক রপ্তানি করার প্রশ্ন ওঠাটাই ঠিক নয়। আমরা এখন ঘরোয়া প্রতিষেধক তৈরির কর্মসূচিকেই মূল লক্ষ্যবস্তু করেছি।”

উল্লেখ্য, বাংলাদেশে প্রায় ১৫ লক্ষ মানুষ ভারতের থেকে পাওয়া প্রথম দফার টিকা (Corona Vaccine) নিয়েছেন। পরবর্তী ডোজের অপেক্ষা করছেন তাঁরা। ইতিমধ্যে দ্বিতীয় ডোজের সময় পেরিয়ে গিয়েছে আড়াই-তিন মাস। ফলে নয়াদিল্লির নতুন ঘোষণায় ঢাকার উদ্বেগ আরও বেড়েছে। এনিয়ে দুই দেশের মধ্যে সম্পর্ক প্রভাবিত হতে পারে বলেও মনে করছেন বিশ্লেষকদের একাংশ। বর্তমান পরিস্থিতিতে চিনের টিকা প্রস্তুতকারী সংস্থা ‘চায়না ন্যাশনাল ফার্মাসিউটিক্যালস গ্রুপ’ বা সিনোফার্ম থেকে দেড় কোটি টিকা কিনতে চলেছে বাংলাদেশ। নয়া চুক্তি মতে প্রথম দফায় জুন মাসে সিনোফার্মের ৫০ লক্ষ টিকা বাংলাদেশে আসার কথা রয়েছে। সব মিলিয়ে তিন মাসে সিনোফার্মের কাছ থেকে দেড় কোটি টিকা কিনতে দুই পক্ষ তিনটি চুক্তি স্বাক্ষর করতে চলেছে বলে খবর। সিনোফার্ম থেকে টিকা কেনার বিষয়টি ১৯ মে অনুষ্ঠিত অর্থনীতি বিষয়ক মন্ত্রিসভা কমিটিতে অনুমোদিত হয়েছে। বলে রাখা ভাল, এর আগে ভারতের অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি টিকা আমদানি করা নিয়ে চুক্তিবদ্ধ হয়েছিল বাংলাদেশ। তবে প্রত্যাশামতো পর্যাপ্ত টিকা রপ্তানি করেনি নয়াদিল্লি।

[আরও পড়ুন: ‘ড্রাগন’ বধে নৌসেনার প্রস্তুতি, আসছে আরও ৬টি অত্যাধুনিক সাবমেরিন]

Advertisement
Next