Advertisement

জম্মু হামলার জের, নৌসেনা ঘাঁটির কাছে ড্রোন দেখলেই ধ্বংস করার নির্দেশ

08:35 AM Jul 10, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: জম্মুর (Jammu) বায়ুসেনা ঘাঁটিতে ড্রোন হামলার পর থেকেই সতর্ক ফৌজ। এবার নৌঘাঁটিগুলির ৩ কিলোমিটারের মধ্যে কোনও ড্রোন বা চালকবিহীন উড়ন্ত যান দেখতে পেলে সেগুলিকে সরাসরি গুলি করে ধ্বংস করার নির্দেশ দিল ভারতীয় নৌবাহিনীর সাদার্ন কমান্ড।

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[আরও পড়ুন: ‘মহামারী এখনও বিদায় নেয়নি’, দেশবাসীকে কড়া সতর্কবার্তা কেন্দ্রের]

সংবাদ সংস্থা এএনআই সূত্রে খবর, কোচি স্থিত সাদার্ন কমান্ডের আধিকারিকরা জানিয়েছেন, নৌঘাঁটিগুলির আশপাশে তিন কিলোমিটার পর্যন্ত ‘নো ড্রোন ফ্লাইং জোন’ ঘোষণা করা হয়েছে। নির্দিষ্ট এলাকার মধ্যে কোনও ড্রোন দেখতে পেলেই সেগুলিকে গুলি করে ধ্বংস করা হবে বা বাজেয়াপ্ত করা হবে।রিমোট পরিচালিত বিমানগুলির ক্ষেত্রেও একই পদক্ষেপ করা হবে বলে জানিয়েছে নৌসেনা। বিশ্লেষকদের মতে, জম্মুতে ভারতীয় বায়ুসেনার ঘাঁটিতে ড্রোন হামলার পর থেকেই সতর্ক হয়ে গিয়েছে ফৌজ। তাই নিরাপত্তায় আরও কোনও গলদ রাখতে চাইছে নাএ ফৌজ। ফলে সতর্কতামুলক পদক্ষেপ হিসেবে এবার এই পদক্ষেপ করেছে নৌসেনা।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

উল্লেখ্য, জম্মুর সেনাঘাঁটিতে বোমা ফেলে সীমান্তের ওপারে পালিয়ে যায় দু’টি ড্রোন। তারপর লাগাতার তিনদিন উপত্যকায় ভারতীয় সেনাঘাঁটিগুলির আশপাশে ড্রোনের দেখা মেলে। জানা গিয়েছে, সম্প্রতি চিনের থেকে বেশি পরিমাণে ড্রোন কিনেছে পাকিস্তান। সরকারিভাবে বলা হয়েছে, দেশের বিভিন্ন প্রান্তে পিজ্জা ও ওষুধ সরবরাহ করতে সেগুলি কেনা হয়েছে। ভারতীয় বায়ুসেনা ঘাঁটিতে যে ড্রোনগুলির সাহায্যে আক্রমণ করা হয়েছিল, সেই ড্রোন আর চিন থেকে কেনা ড্রোন একই কিনা, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। সবমিলিয়ে, জম্মু ও কাশ্মীরে ড্রোনের মাধ্যমে ফের বড়সড় হামলা চালাতে পারে জঙ্গিরা বলেই মনে করছেন প্রতিরক্ষা বিশ্লেষকরা। তাই নিরাপত্তায় কোনও ফাঁক থাকুক, তা চাইছে না ফৌজ।

[আরও পড়ুন: কার্যকারিতা নিয়ে সন্তুষ্ট গবেষকরা! দ্রুত WHO’র ছাড়পত্র পাওয়ার পথে COVAXIN]

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next