করোনায় মৃত খ্যাতনামা জ্যোতিষী বেজান দারুওয়ালা, টুইটে শোকপ্রকাশ গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রীর

08:16 PM May 29, 2020 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রয়াত হলেন দেশের খ্যাতনামা জ্যোতিষী বেজান দারুওয়ালা। শুক্রবার বিকেলে টুইট করে তাঁর মৃত্যুর জন্য শোকপ্রকাশ করেন গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী বিজয় রূপানি। আদতে মুম্বইয়ের বাসিন্দা হলে দীর্ঘদিন গুজরাটে বসবাস করেছিলেন দেশের জনপ্রিয় জ্যোতিষী দারুওয়ালা। মৃত্যুর সময় তাঁর বয়স ৮৯ বছর ছিল বলে জানা গিয়েছে।

Advertisement

তিনি টুইট করেন, ‘বিখ্যাত ও অত্যন্ত জনপ্রিয় জ্যোতিষী শ্রী বেজান দারুওয়ালার মৃত্যুর খবর শুনে আমি গভীরভাবে শোকাহত। আমি তাঁর আত্মার শান্তি কামনা করে। ওম শান্তি..।’

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: হায়দরাবাদ থেকে হেঁটে পশ্চিমবঙ্গে ফেরার চেষ্টা, রাস্তাতেই মৃত ষাটোর্ধ্ব পরিযায়ী শ্রমিক]

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, গতকালই করোনার উপসর্গ নিয়ে গুজরাটের আহমেদাবাদের এক বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি হন দেশের অন্যতম জনপ্রিয় এই জ্যোতিষী। ৯০ বছরের দোরগোড়ায় দাঁড়িয়ে থাকা বেজান দারুওয়ালাকে আইসিইউ (ICU) ‘ তে রাখা হয়েছিল। নিয়মিত পর্যবেক্ষণ করছিলেন চিকিৎসকরাও। শুক্রবার দুপুরে সেখানেই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন এই বিখ্যাত জ্যোতিষী।

[আরও পড়ুন: সরকারি কোভিড হাসপাতালে ‘পশুর মতো আচরণ’ করা হচ্ছে! বিক্ষোভ যোগীর রাজ্যে]

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, প্রয়াত বলিউড অভিনেতা রাজেশ খান্না থেকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। বেঁচে থাকার সময় সবাইকার হাতই দেখেছিলেন বর্ষীয়ান এই জ্যোতিষী। ২০১৫ সালের নভেম্বর মাসে বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার একজন তান্ত্রিকের কাছে গিয়েছিলেন। একটি জনসভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে সেই কথা উল্লেখ করে তাঁকে কটাক্ষ করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তখনই মোদি তাঁর কাছে হাত দেখাতে গিয়েছিলেন বলে সর্বসমক্ষে মন্তব্য করেন বেজান দারুওয়ালা। তাঁর দাবি ছিল, ২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনের আগে নরেন্দ্র মোদি তাঁর কাছে গিয়েছিলেন। তখন তিনি হস্তরেখা বিচার করে জানিয়েছিলেন, দেশের উন্নয়ন এবং অগ্রগতি মোদির হাতেই। সেসময় তাঁর কাছে মোদির হাত দেখানোর ছবিও সাংবাদিকদের দেখিয়েছিলেন ওই বর্ষীয়ান জ্যোতিষী। যা সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইটে ছড়িয়েও পড়ে।

The post করোনায় মৃত খ্যাতনামা জ্যোতিষী বেজান দারুওয়ালা, টুইটে শোকপ্রকাশ গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রীর appeared first on Sangbad Pratidin.

Advertisement
Next