Advertisement

ইংল্যান্ড সফরে যাওয়ার আগে করোনা ভ্যাকসিন নিলেন কোহলি-ইশান্তরা

05:28 PM May 10, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মাঝপথেই বন্ধ হয়েছে আইপিএল (IPL 2021)। তবে সামনে ইংল্যান্ড সফর। আর তার আগেই করোনা ভ্যাকসিন নিলেন বিরাট কোহলি। সোশ্যাল মিডিয়ায় টিকা নেওয়ার ছবি পোস্ট করে অন্যদেরও দ্রুত ভ্যাকসিন নেওয়ার পরামর্শ দিলেন ভারত অধিনায়ক। সস্ত্রীক টিকা নিলেন ভারতীয় পেসার ইশান্ত শর্মাও (Ishant Sharma)।

Advertisement

জুন মাসেই সাউদাম্পটনে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালে নামছে টিম ইন্ডিয়া। তারপরই ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে রয়েছে পাঁচ টেস্টের সিরিজ। তার আগে আইপিএল স্থগিত হয়ে যাওয়ায় আপাতত নিজের নিজের বাড়িতে ভারতীয় ক্রিকেটাররা। বিসিসিআইয়ের তরফে পরামর্শ দেওয়া হয়েছিল, যাতে কোভিশিল্ড (Covishield) ভ্যাকসিনই নেন তাঁরা। কারণ প্রথম ডোজ নেওয়ার পরই ব্রিটেন পাড়ি দিতে হবে কোহলিদের। দেশে দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার উপায় থাকবে না। কিন্তু কোভিশিল্ড নিলে ইংল্যান্ডেই টিকার দ্বিতীয় ডোজটি নেওয়া যাবে অনায়াসে। কারণ সেখানে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি কোভিশিল্ড পেতে বিশেষ অসুবিধা হবে না। তাই কোভ্যাক্সিন না নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছিল। বিরাট (Virat Kohli) নিজের পোস্টে কোন টিকা নিয়েছেন, সে বিষয়টি অবশ্য উল্লেখ করেননি। সোমবার ভ্যাকসিন গ্রহণের ছবি পোস্ট করে লিখেছেন, “যত দ্রুত সম্ভব আপনারাও টিকা নিন। সাবধানে থাকুন।”

[আরও পড়ুন: ভারতে আইপিএলের বাকি ম্যাচগুলি আয়োজন সম্ভব? মুখ খুললেন সৌরভ]

এদিকে, সস্ত্রীক টিকা নিলেন দলের সিনিয়র তারকা ইশান্তও। বেটারহাফ প্রতিমা সিংয়ের সঙ্গে ছবি পোস্ট করে সে খবর জানান তিনি। একইসঙ্গে করোনা মোকাবিলায় ফ্রন্টলাইন যোদ্ধাদের ধন্যবাদ জানান পেসার। এর আগে কোভিড টিকা নিয়েছেন শিখর ধাওয়ান ও অজিঙ্ক রাহানেও।

কোভিড মোকাবিলায় শামিল হয়েছেন প্রাক্তন ও বর্তমান ভারতীয় ক্রিকেটাররা। ১ কোটি টাকা দান করেছেন শচীন তেণ্ডুলকর। আবার বিরাট কোহলি ও অনুষ্কা শর্মাও করোনা ত্রাণ তোলার উদ্যোগ নিয়েছেন। যেখানে নিজেরাও ২ কোটি অনুদান দিয়েছেন। এই প্রয়াসে দুর্দান্ত সাড়াও মিলেছে বলে জানিয়েছিলেন বিরুষ্কা। সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে আইপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজি সানরাইজার্স হায়দরাবাদও। ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়তে ৩০ কোটি টাকা অর্থ সাহায্য করেছে দল।

[আরও পড়ুন: IPL-এর বেতনে চলছিল চিকিৎসা, বাঁচানো গেল না রাজস্থানের তরুণ পেসারের বাবাকে]

Advertisement
Next