ধুমধাম করে স্বাধীনতার প্ল্যাটিনাম জয়ন্তী উদযাপন নর্দার্ন আয়ারল্যান্ডের প্রবাসী ভারতীয়দের

08:18 PM Sep 05, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: গত ১৫ আগস্ট দেশজুড়ে ধুমধাম করে উদযাপিত হয়েছে ৭৬তম স্বাধীনতা দিবস। আজাদির অমৃত মহোৎসবে শামিল হয়েছিল কাশ্মীর থেকে কন্যাকুমারী। কিন্তু শুধু তো এ দেশে নয়, প্রবাসী ভারতীয়রাও পালন করলেন স্বাধীনতা দিবস। ব্যতিক্রমী নন নর্দার্ন আয়ারল্যান্ডে থাকা ভারতীয়রাও।

Advertisement

স্থানীয় ভারতীয় সংস্থা ইমেজ নেশন এনআই (ImageNation NI) স্বাধীনতা দিবস হিসেবে একটি বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছিল। যেখানে শামিল হয়েছিলেন প্রবাসী ভারতীয়রা। নর্দার্ন আয়ারল্যান্ডে প্রবাসীদের মধ্যে সুসম্পর্ক স্থাপনের কাজই করে থাকে এই সংস্থা। অনুষ্ঠানটি স্পনসর করে লর্ড দিলজিৎ রানার স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা আন্দ্রাস হাউস (Andras House), এশিয়ান মিক্স এবং নমস্তে বেলফাস্ট। ভারতের স্বাধীনতার প্ল্যাটিনাম জুবিলি উদযাপনের এই বিশেষ অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন বেলফাস্টের লর্ড মেয়র, কাউন্সিলর ক্রিস্টিনা ব্ল্যাক ও প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটার ববি রাও। কলকাতা থেকে গিয়ে বেলফাস্টের বাসিন্দা হয়ে ওঠা নৃত্যঙ্গনা অ্যাকাডেমির প্রতিষ্ঠাতা স্বরলিপি বন্দ্যোপাধ্য়ায়।

Advertising
Advertising

দিব্যা বসু, যিনি মাত্র এক বছর আগে পশ্চিমবঙ্গ থেকে বেলফাস্টে এসে ইমেজ নেশন এনআই-এ যোগ দিয়েছিলেন, তিনি বলেন, “কী চমৎকার একটি অনুষ্ঠান! আমি এই গোষ্ঠীর অংশ হতে পেরে সত্যিই খুশি। এই দলটি সমস্ত ভারতীয়দের একত্রিত করার জন্য একটি দুর্দান্ত কাজ করছে। এই গ্রুপটি বিভিন্ন সাংস্কৃতিক ও সামাজিক কাজ করে। এই গ্রুপের সঙ্গে যুক্ত হতে পেরে আমি সত্যিই খুশি এবং বাড়ি থেকে এত দূরে ও ভারতীয়দের আরও কাছাকাছি আনতে পারার প্রচেষ্টায় কিছু করতে পেরে আমি আনন্দিত।”

ষাটের দশকের গোড়ার দিকে শরণার্থী হিসেবে বেলফাস্টে এসেছিলেন লর্ড রানা। তারপর নানা বাধা-বিপত্তি, প্রতিকূলতা পেরিয়ে সফল ব্যবসায়ী হয়ে ওঠেন তিনি। নর্দার্ন আয়ারল্যান্ডের রাজধানীতে এখন একাধিক হোটেল, রেস্তরাঁ রয়েছে তাঁর। রানার কথায়, “নর্দার্ন-আইরিশ সোসাইটিতে ভারতীয়দের অবদান এখন বিশেষ উল্লেখযোগ্য। যেখানে থাকি, নিঃসন্দেহে সেই জায়গাকে ভালবাসি। কিন্তু নিজেদের শিকড়ের প্রতি টানটাও একইরকম রয়ে গিয়েছে।”

ভারতীয় সংস্কৃতি, নৃত্য আর সংগীতের মধ্যে দিয়ে জমে উঠেছিল অনুষ্ঠান। স্থানীয় লেখক মালাচি ও’ডোহার্টির তত্ত্বাবধানে হয় একটি চিত্র প্রদর্শনীও। সেখানে তুলে ধরা হয়েছিল ভারতীয় শিল্প, সংস্কৃতি আর প্রাচীন ঐতিহ্য। যেখানে সেলিব্রেশন, সেখানে খাওয়াদাওয়া তো থাকবেই। সেই খাবারের মেনুতেও ছিল দেশীয় ছোঁয়া। ভারতীয় ডিশ, মিষ্টি খেয়ে খুশি অতিথি-অভ্যাগতরাও। ইমেজ নেশন এনআইয়ের প্রতিষ্ঠাতা সঞ্জয় ঘোষ বলছেন, “গোটা ব্রিটেনের মধ্যে নর্দার্ন আয়ারল্যান্ডেই হয়তো সবচেয়ে কম ভারতীয়দের বাস। তবে ভারতের প্রতি তাঁদের ভালবাসা এতটুকু কম নয়।” সকলে মিলে এমন একটি অনুষ্ঠান আয়োজনের জন্য প্রত্যেককে ধন্যবাদও জানিয়েছেন তিনি। ভেন্যুটিকে সুন্দরভাবে সাজিয়ে তুলতে PRONI-র প্রতি কৃতজ্ঞতাও জানান তিনি।

This browser does not support the video element.

Advertisement
Next