গয়নার দোকানে দুষ্কৃতীর তাণ্ডব, মারধরের পর চোখে লঙ্কার গুঁড়ো ছিটিয়ে লুট

12:28 PM Jul 05, 2018 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আগ্নেয়াস্ত্র হাতে গয়নার দোকানের মালিককে বেধড়ক মারধর৷ দুষ্কৃতীর সঙ্গে হাজার লড়াই করেও গয়নাগাটি ও নগদ টাকা বাঁচাতে পারলেন না ওই গয়নার দোকানের মালিক৷ সিসি ক্যামেরায় ধরা পড়েছে গোটা ঘটনা৷ হায়দরাবাদের বিরামগুদার এই নাটকীয় ডাকাতির ঘটনার তদন্তে নেমেছে পুলিশ৷

Advertisement

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

[বুরারির ঘটনা আত্মহত্যাই, রহস্যের জট কাটছে সিসিটিভি ফুটেজে]

গয়নার দোকানের মালিক জয়রামের দাবি, এক যুবক ও যুবতী ক্রেতা সেজে রাত ন’টা নাগাদ শোরুমে ঢোকে৷ প্রায় পঁয়তাল্লিশ মিনিট বিভিন্ন গয়নাগাটি নেড়েচেড়ে দেখে দুজনে৷ তবে শোরুমে রাখা কোনও গয়নাই পছন্দ হচ্ছিল না ক্রেতারূপী দুষ্কৃতীদের৷ বাধ্য হয়ে শোরুম লাগোয়া স্টোররুম থেকে গয়না আনতে যান দোকান মালিক জয়রাম৷ ওই দুই ক্রেতাও জয়রামের পিছু নেয়৷ স্টোররুমের কাছে গিয়ে নিজেদের মুখ ঢেকে নেয় দুজনেই৷ জয়রামকে বন্দুক হাতে নিয়ে শাসাতে শুরু করে৷ লাঠি দিয়ে দোকান মালিককে বেধড়ক মারধর করতে করে দুজনেই৷ কিন্তু জয়রামও হার মানার পাত্র নন৷ ক্রমশই লুঠপাটে বাধা দিতে থাকেন তিনি৷ যতই বাধা দিতে শুরু করেন ততই আক্রমণাত্মক হয়ে ওঠে দুষ্কৃতীরা৷ অবশেষে যদিও জয়রামের চোখে লঙ্কার গুঁড়ো ছিটিয়ে দেয় দুষ্কৃতীরা৷ যন্ত্রণায় মাটিতে লুটিয়ে পড়েন তিনি৷ সুযোগ বুঝে লুটপাট করে চম্পট দেয় দুজনে৷ লুটপাটের জন্য দোকান মালিককে মারধরের ঘটনা ধরা পড়েছে সিসিটিভি ফুটেজে৷

প্রায় ২৫ লক্ষ টাকার গয়নাগাটি ও নগদ ৪ লক্ষ টাকা লুট করেছে দুষ্কৃতীরা৷ লুটপাটের ঘটনায় স্থানীয় থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন জয়রাম৷ সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখছেন তদন্তকারীরা৷ রাজ্যের প্রত্যেকটি থানাতেও পাঠানো হয়েছে ওই ফুটেজ৷ পুলিশের দাবি, মুখ কালো কাপড় দিয়ে ঢাকা থাকায়, দুষ্কৃতীদের চিনতে সামান্য সমস্যা হচ্ছে৷ লুঠপাটের সময় যে বন্দুক দুষ্কৃতীরা ব্যবহার করেছে, তা খেলনা ছাড়া কিছুই নয় বলেই প্রাথমিক তদন্তে অনুমান তদন্তকারীদের৷ দুষ্কৃতীদের হামলায় গুরুতর চোট পেয়েছেন দোকান মালিক জয়রাম৷ আপাতত স্থানীয় হাসপাতালে ভরতি রয়েছেন তিনি৷

Advertising
Advertising

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});
Advertisement
Next