শুরুতেই ফেডারেশনের স্বচ্ছতা নিয়ে প্রশ্ন তুলে বাইচুংয়ের পত্রবোমা

03:42 PM Sep 17, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের নতুন প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন কল্যাণ চৌবে। এআইএফএফ-এর এক্সিকিউটিভ কাউন্সিল শাজি প্রভাকরণকে নতুন সেক্রেটারি জেনারেল হিসেবে নিয়োগ করেছে। দেশের প্রাক্তন অধিনায়ক বাইচুং ভুটিয়া এক্সিকিউটিভ কমিটির এই নিয়োগ প্রক্রিয়া নিয়ে প্রশ্ন তুলে দিয়েছেন। সরাসরি চিঠি দিয়েছেন ভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের সভাপতিকে। কী লিখলেন বাইচুং চিঠিতে? দেখে নিন তা। 

Advertisement

ডিয়ার স্যর, 
১২.০৯.২০২২ সেপ্টেম্বর শাজি প্রভাকরণের যে চিঠি (AIFF/EXCO Meet- 19th Sept/2022/492) পেয়েছি, তাতে ৩.৯.২০২২ তারিখে অনুষ্ঠিত একজিকিউটিভ কমিটির মিটিংয়ের ড্রাফট উল্লিখিত আছে এবং আসন্ন ১৯.০৯.২০২২-এর একজিকিউটিভ কমিটির মিটিংয়ের অ্যাজেন্ডাও লেখা আছে।

ব্যক্তিগত কারণে আমি আগের মিটিংয়ে উপস্থিত থাকতে পারিনি। পরবর্তী মিটিংয়ে আমি উপস্থিত থাকব।

Advertising
Advertising

৩ সেপ্টেম্বরের মিটিংয়ের যে ড্রাফট আমি দেখেছি, তাতে বেশ কিছু অসঙ্গতি আমার নজরে এসেছে।

দেখা যাচ্ছে, রোল কলে শাজি প্রভাকরণের উপস্থিতি নথিভুক্ত করা নেই। কিন্তু ড্রাফটে দেখতে পাচ্ছি যে একজিকিউটিভ কমিটির সদস্য না হয়েও তিনি গোটা বৈঠকেই উপস্থিত ছিলেন।
আপনার অনুমোদনের প্রেক্ষিতেই এক্সিকিউটিভ কমিটি ডক্টর প্রভাকরণকে তাঁরই উপস্থিতিতে ফেডারেশনের সেক্রেটারি জেনারেল পদে নিয়োগ করেছে। 

[আরও পড়ুন: ‘রিহ্যাবের জন্য পকেটের টাকা খরচ করে লন্ডনে গিয়েছিল শাহিন’, পিসিবিকে তোপ শাহিদ আফ্রিদির]
এটা অত্যন্ত উদ্বেগজনক একটা বিষয় বলেই আমার মনে হয়। এর ফলে গোটা নিয়োগ প্রক্রিয়া নিয়ে প্রশ্ন ওঠাই স্বাভাবিক, এমনকী তা পক্ষপাতদুষ্ট বলেই মনে হয়। এটা নির্বাচন প্রক্রিয়া ও ফেডারেশন চালানোর পন্থার পক্ষে মোটেও ভাল লক্ষণ নয়।

এই প্রেক্ষিতে আমার প্রস্তাব এক্সিকিউটিভ কমিটি পরবর্তী মিটিংয়ে সেক্রেটারি জেনারেল পদে নিয়োগ নিয়ে পুনর্বিবেচনা করুক। ফেডারেশেনর জেনারেল সেক্রেটারি পদটা সর্বক্ষণের। সেই কারণে আইনসম্মত চুক্তির মাধ্যমে এই নিয়োগ প্রক্রিয়া হওয়া উচিত। নিয়োগ প্রক্রিয়া হওয়া উচিত স্বচ্ছ। সেই কারণে চাকরির সম্পূর্ণ শর্ত উল্লেখ করে বিজ্ঞাপন দেওয়া হোক। এই বিজ্ঞাপনে বেতন এবং নিয়োগ প্রক্রিয়ার উল্লেখ থাকা জরুরি।  এক্সিকিউটিভ কমিটি অনুমোদন দিলে উল্লিখিত পদের জন্য চাকরিপ্রার্থীদের কাছ থেকে আবেদন চাওয়া যেতে পারে।

এদিকে ফেডারেশনের দৈনন্দিন কাজ যাতে বিঘ্নিত না হয় সেই দিকটাও দেখা দরকার। একাধিক লিগের সিইও হিসেবে দীর্ঘদিন কাজ করেছেন শ্রী সুনন্দ ধর। ভারতীয় ফুটবল চালানোর অভিজ্ঞতা রয়েছে তাঁর। সেই কারণে যতদিন না নতুন সেক্রেটারি জেনারেল নিয়োগ করা হচ্ছে, ততদিন কার্যনির্বাহী সচিব হিসেবে কাজ করার জন্য সুনন্দ ধরকে পুনর্বহাল করা হোক।

উপরোক্ত বিষয়গুলি নিয়ে পরবর্তী মিটিংয়ে আলোচনা হোক, সেই অনুরোধ আমি জানাচ্ছি।
ধন্যবাদান্তে
বাইচুং ভুটিয়া 

[আরও পড়ুন: ‘এশিয়া কাপে ভাল না করলেও, বিশ্বকাপে ভারতই ফেভারিট’, বললেন ইংল্যান্ডের প্রাক্তন স্পিনার পানেসর]

Advertisement
Next