সোশ্যাল মিডিয়ায় সবচেয়ে বেশি ট্রোলের শিকার রোনাল্ডো, প্রথম দশে চার ম্যান ইউ তারকা

05:08 PM Aug 03, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নিজের প্রজন্মের অন্যতম সেরা ফুটবলার তিনি। সর্বকালের সেরার মধ্যেও তাঁর নাম বিবেচনা করা হয়। কিন্তু সাফল্যের সঙ্গে সঙ্গে আসে কঠোর সমালোচনাও। একটি সমীক্ষায় জানা গিয়েছে, সর্বাধিক ট্রোলের শিকার হন পর্তুগিজ তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো (Christiano Ronaldo)। সবচেয়ে বেশি ট্রোলড হওয়া প্রথম দশ ফুটবলারের মধ্যে চার জনই ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেড ক্লাবের হয়ে খেলেন।

Advertisement

চলতি বছরে প্রায় ২৩ লক্ষ টুইট খতিয়ে দেখেছে অফক্যাম নামে একটি সংস্থা। সেখানে দেখা গিয়েছে, অন্তত ষাট হাজার টুইট করা হয়েছে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে (EPL) খেলা ফুটবলারদের কটুক্তি করে। তার মধ্যে অর্ধেক টুইটের নিশানায় রয়েছেন ম্যান ইউ তারকারা। সেই হিসাব থেকেই দেখা যাচ্ছে, সবচেয়ে বেশিবার কটাক্ষের শিকার হয়েছেন সি আর সেভেন। গত বছর তিনি জুভেন্তাস ছেড়ে নিজের পুরনো ক্লাব ম্যাঞ্চেস্টারে সই করেন।

[আরও পড়ুন: একেই বলে প্রকৃত তারকা, নিরাপত্তারক্ষীদের থেকে খুদেকে টেনে এনে ছবি তুললেন মেসি]

সেই ঘটনাকে কেন্দ্র করেই সোশ্যাল মিডিয়ায় কটুক্তি করা শুরু হয়। তবে মরশুমে একেবারেই ভাল খেলতে পারেনি ম্যান ইউ (Manchester United)। তারপরেই ক্লাব ছাড়তে উদ্যোগী হন রোনাল্ডো। সেই কথা প্রকাশ্যে আসার পরে আবারও নেটদুনিয়ায় আক্রমণের মুখে পড়েন তিনি। পরিসংখ্যান বলছে, রোনাল্ডোকে উদ্দেশ্য করে সাধারণ সময়ে যে পরিমাণ টুইট করা হতো, তার তুলনায় প্রায় তিন গুণ বেশি টুইট করা হয়েছে সেই সময়ে। প্রায় চার হাজারের কাছাকাছি টুইট করা হয়েছিল রোনাল্ডোর নিন্দা করে।

Advertising
Advertising

ম্যান ইউয়ের অন্যান্য তারকাদের মধ্যে ব্রুনো ফার্নান্ডেজ, পল পোগবা, দাভিদ দ্য জিয়ার মতো তারকারাও। ম্যাঞ্চেস্টার সিটির কাছে হারের পর সমর্থকদের কাছে ক্ষমা চেয়ে টুইট করেছিলেন ডিফেন্ডার হ্যারি ম্যাগুইয়ার। তার উত্তরেও প্রায় তিন হাজার কটাক্ষমূলক টুইট করা হয়েছিল। সমীক্ষা চালানো সংস্থাটির তরফে বলা হয়েছে, ” ফুটবলের মতো এত সুন্দর একটা খেলার অন্ধকার দিকটা তুলে ধরতে চেয়েছি আমরা। সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মগুলির কাছে অনুরোধ, এই কটাক্ষ বন্ধ করার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হোক।”

[আরও পড়ুন:সিন্ধুর জয়েও হাতছাড়া সোনা, রুপো পেল ভারতীয় মিক্সড ব্যাডমিন্টন টিম, শুভেচ্ছা মোদির]

Advertisement
Next