shono
Advertisement

Breaking News

ডার্বির আগে ভারতে এসেই কাজ শুরু হাবাসের, ছুটির মেজাজে ফুরফুরে ইস্টবেঙ্গল

হাবাস চাইলে সব বিদেশিকেই বড় ম্যাচে ব্যবহার করতে পারবেন।
Posted: 02:43 PM Jan 17, 2024Updated: 02:43 PM Jan 17, 2024

স্টাফ রিপোর্টার: সুপার কাপ খেলতে এসে ভুবনেশ্বরে টানা অনুশীলন আর ম্যাচ খেলছিলেন ইস্টবেঙ্গল ফুটবলাররা। সেই একঘেয়েমি কাটাতে পুরো দলকে মঙ্গলবার ছুটি দিয়েছিলেন কোচ কার্লেস কুয়াদ্রাত। এদিকে মঙ্গলবারই মোহনবাগান দলের সঙ্গে যোগ দিয়েছেন দলের কোচ অ্যান্তোনিও লোপেজ হাবাস (Antonio Lopez Habas)। সন্ধ্যাতেই তিনি দলের সঙ্গে নেমে পড়েছেন অনুশীলনে। এতদিন দেশ থেকে ফোনেই সহকারী কোচ ক্লিফোর্ড মিরান্ডাকে নির্দেশ দিয়েছেন হাবাস। এবার সেই সহকারীর কাছ থেকেই মঙ্গলবার বুঝে নিলেন গোটা দলের দায়িত্ব।

Advertisement

অনুশীলনে নামার আগে দীর্ঘক্ষণ ক্লিফোর্ড মিরান্ডার সঙ্গে কথা বলতে দেখা যায় হাবাসকে। সহকারী কোচ ক্লিফোর্ড দলের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে সুবিস্তারে তথ্য দেন হাবাসকে। তারপর দলের ফুটবলারদের সঙ্গেও কথা বলেন নতুন কোচ। প্রথম দিনই মোহনবাগান কোচ বুঝে নিতে চেয়েছেন জেসন কামিংসদের বর্তমান মানসিক অবস্থা। তারপর মাঠে নামেন। একই সঙ্গে দেখা যায়, অনুশীলনের আগে ওড়িশা কোচ সের্জিও লোবেরা মোহনবাগান (Mohun Bagan) অনুশীলন মাঠের সামনে থাকায়, তাঁর সঙ্গেও সৌজন্য বিনিময় করেছেন বাগানের নতুন কোচ। ভুবনেশ্বরে আসা বেশ কিছু মোহনবাগান সমর্থকও প্রথম দিনের অনুশীলনের আগে শুভেচ্ছা জানিয়ে যান হাবাসকে।

[আরও পড়ুন: রেশন দুর্নীতির টাকা সোনা পাচারে? এবার ইডির নজরে শংকরের আত্মীয়]

আপাতত ডার্বির আগে হাবাস যোগ দেওয়ায় মানসিকভাবে কিছুটা হলেও চাঙ্গা হলেন জেসন কামিংসরা। সাতজন ফুটবলার জাতীয় শিবিরে। তার উপর একাধিক ফুটবলারের চোট। এমন পরিস্থিতিতে শুক্রবার ডার্বি খেলতে নামবেন দিমিত্রি পেত্রাতোসরা। লিগ টেবিলে সমান সংখ্যক পয়েন্ট থাকলেও গোল বেশি করার সুবাদে সুবিধাজনক জায়গায় ইস্টবেঙ্গল। এমন পরিস্থিতিতে কার্যত জয় ছাড়া সুপার কাপের সেমিফাইনালে যাওয়ার কোনও পথ নেই মোহনবাগানের সামনে। গত ম্যাচে শারীরিক অসুস্থতার জন্য ছিলেন না আর্মান্দো সাদিকু। এদিন দলের সঙ্গে পুরো অনুশীলন করেন তিনি। সাদিকু সুস্থ হয়ে ওঠায় হাবাস চাইলে সব বিদেশিকেই বড় ম্যাচে ব্যবহার করতে পারবেন।

[আরও পড়ুন: উধাও হবে শীত!ফের বাড়বে তাপমাত্রা, বৃষ্টিতে ভিজবে গোটা বাংলা]

এদিকে মঙ্গলবার ছুটি পেয়ে ইস্টবেঙ্গল (East Bengal) ফুটবলাররা বিশ্রামে কাটালেও কোচ কুয়াদ্রাত ও সহকারী কোচ দিমাল দেলগাদো, বিনো জর্জরা গিয়েছিলেন অনূর্ধ্ব-১৭ ইস্টবেঙ্গলের ইউথ লিগের ম্যাচ দেখতে গিয়েছিলেন। সেখানে গিয়ে যুব ফুটবলারদের উদ্বুদ্ধ করেন ইস্টবেঙ্গল কোচ। সিনিয়র দলের কোচের সামনেই জয় পেল ইস্টবেঙ্গলের ছোটরা। এর আগে সোমবার তিনি যুব দলের ক্লাস নিয়েছিলেন নিজেদের হোটেলে ডেকে। ক্লেটন আর শৌভিকরা তরুণ ফুটবলারদের সামনে বক্তব্য রাখেন সোমবার।

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ

Advertisement