ভারতের আপত্তিকে ‘অগ্রাহ্য’, চিনা জাহাজকে নোঙর করার অনুমতি দিল শ্রীলঙ্কা

09:56 AM Aug 14, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভারতের আপত্তি অগ্রাহ্য করে শ্রীলঙ্কার (Sri Lanka) বন্দরে নোঙর করতে চলেছে বিতর্কিত চিনা (China) ‘গুপ্তচর’ জাহাজ। সংবাদ সংস্থা এএফপি জানিয়েছে, শনিবার সেই অনুমতি দিয়েছে শ্রীলঙ্কা সরকার। চিনের এই জাহাজটির নাম ‘ইউয়ান ওয়াং ৫’। এটিকে গবেষণা ও সমীক্ষার কাজে ব্যবহার হয় বলে জানানো হলেও, এর মাধ্যমে নজরদারির কাজও চালানো হয় বলে নিশ্চিত বিভিন্ন মহল।

Advertisement

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782001027-0'); });

প্রাথমিকভাবে স্থির হয়েছিল, ১১ আগস্ট ‘ইউয়ান ওয়াং ৫’ চিন নিয়ন্ত্রিত হামবানটোটা বন্দরে নোঙর করবে। কিন্তু ভারতের আপত্তিতে তা অনির্দিষ্ট সময়ের জন্য পিছিয়ে দিতে বলে শ্রীলঙ্কা। ভারত মহাসাগরে চিনের উপস্থিতি এবং শ্রীলঙ্কার উপর বেজিংয়ের প্রভাব বৃদ্ধি নিয়ে সন্দিহান ভারত। কিন্তু শ্রীলঙ্কার বন্দরমন্ত্রী নির্মল পি সিলভা জানিয়েছেন, বিদেশ মন্ত্রকের ছাড়পত্রে বলা হয়েছে, ১৬ থেকে ২২ আগস্ট জাহাজটি হামবানটোটায় থাকবে।

window.unibots = window.unibots || { cmd: [] }; unibots.cmd.push(()=>{ unibotsPlayer('sangbadpratidin'); });

[আরও পড়ুন: ঋণ আদায়ে দুর্ব্যবহার নয়, রাতে করা যাবে না ফোন, ব্যাংকগুলিকে কড়া হুঁশিয়ারি আরবিআইয়ের]

শ্রীলঙ্কার বিদেশ মন্ত্রক সূত্রে খবর, কলম্বো জাহাজের বিষয়ে অনুমতি পুনর্নবীকরণ করেছে। এর আগে ১২ জুলাই অনুমোদন দেওয়া হয়েছিল। তার এক দিন আগেই দ্বীপরাষ্ট্রের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষে শ্রীলঙ্কা ছেড়ে পালিয়ে যান। তাঁর ভাই প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষে প্রেসিডেন্ট থাকার সময় ২০০৫ থেকে ২০১৫ পর্যন্ত চিনের থেকে বিপুল অঙ্কের ঋণ নিয়েছিলেন।

Advertising
Advertising

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782050143-0'); });

হামবানটোটা বন্দরটি ১১২ কোটি মার্কিন ডলারে ৯৯ বছরের জন্য লিজ নিয়েছে চিন। ১৪০ কোটি ডলার খরচ করে একটি চিনা সংস্থাকে দিয়ে এই বন্দরটি তৈরি করা হয়েছে। বন্দর সূত্রে খবর, শুক্রবার রাত পর্যন্ত চিনা জাহাজটি শ্রীলঙ্কার জলসীমা থেকে এক হাজার কিলোমিটার দক্ষিণ-পূর্বে অবস্থান করছে এবং ধীরে ধীরে তা বন্দর অভিমুখে এগিয়ে আসছে। নয়াদিল্লিতে বিদেশ মন্ত্রক জানিয়েছে যে, তারা ‘‘ভারতের নিরাপত্তা ও অর্থনৈতিক স্বার্থের উপর কোনও প্রভাব পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে কি না, তা পর্যবেক্ষণ করবে এবং দেশের সুরক্ষার জন্য প্রয়োজনীয় সমস্ত ব্যবস্থা নেবে।’’

[আরও পড়ুন: চিনার পার্কের ফ্ল্যাট থেকে নিজাম প্যালেসে গেল আলুপোস্ত-মাছের ঝোল, চেটেপুটে খেলেন কেষ্ট]

Advertisement
Next