Advertisement

করোনার বিরুদ্ধে লড়াই আরও তীব্র, এবার ফাইজারের টিকা পেল বাংলাদেশ

01:01 PM Jun 01, 2021 |
Advertisement
Advertisement

সুকুমার সরকার, ঢাকা: বাংলাদেশে (Bangladesh) আছড়ে পড়েছে করোনা সংক্রমণের  দ্বিতীয় ঢেউ। তাই দ্রুত টিকাকরণের পথে হাঁটছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার। সেই পথে আরও এগিয়ে সোমবার রাতে ঢাকা বিমানবন্দরে এসে পৌঁছেছে ফাইজারের ১ লক্ষ ৬২০ ডোজ টিকা।

Advertisement

[আরও পড়ুন: রাষ্ট্রসংঘের প্রতিনিধিদের সামনেই বিক্ষোভ রোহিঙ্গাদের, ভাসানচরে মুখ পুড়ল বাংলাদেশের]

জানা গিয়েছে, করোনার টিকা সংগ্রহ ও বিতরণের বৈশ্বিক উদ্যোগ কোভ্যাক্স প্রকল্পের অন্তর্গত প্রাথমিকভাবে এই টিকা পেল বাংলাদেশ। স্বাস্থ্যদপ্তরের ভ্যাকসিন ডেপ্লয়মেন্ট কমিটির সচিব শামসুল হক স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে জানিয়েছেন, বেলজিয়াম থেকে ১৮টি বাক্সে ফাইজারের এই টিকা দেশে এসেছে। বিমানবন্দর থেকে বিশেষ ফ্রিজার ভ্যানে করে তা নিয়ে গিয়ে মহাখালীর ইপিআই স্টোরেজে রাখা হয়েছে। ফাইজার-বায়োএনটেকের তৈরি এই ভ্যাকসিনটি মূলত ঢাকা শহরের মানুষকে দেওয়া হবে। ইতিমধ্যে যাঁরা নাম নথিভুক্ত করেছেন, তাঁদের এই টিকা প্রদানের ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে। তবে ফাইজারের টিকা কবে নাগাদ দেওয়া শুরু হবে, তা এখনও ঠিক করেনি স্বাস্থ্যদপ্তর। বর্তমানে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া চলছে। পাশাপাশি চারটি হাসপাতালে চিনা প্রতিষ্ঠান সিনোফার্মের টিকাও দেওয়া হচ্ছে।

উল্লেখ্য, কয়েকদিন আগেই চিনের টিকা প্রস্তুতকারী সংস্থা ‘চায়না ন্যাশনাল ফার্মাসিউটিক্যালস গ্রুপ’ বা সিনোফার্ম থেকে বাংলাদেশ করোনা ভাইরাসের দেড় কোটি টিকা ক্রয় করার কোথা ঘোষণা করে ঢাকা। নয়া চুক্তি মতে প্রথম দফায় জুন মাসে সিনোফার্মের ৫০ লক্ষ টিকা বাংলাদেশে আসার কথা রয়েছে। সব মিলিয়ে তিন মাসে সিনোফার্মের কাছ থেকে দেড় কোটি টিকা কিনতে দুই পক্ষ তিনটি চুক্তি স্বাক্ষর করতে চলেছে বলে খবর। সিনোফার্ম থেকে টিকা কেনার বিষয়টি ১৯ মে অনুষ্ঠিত অর্থনীতি বিষয়ক মন্ত্রিসভা কমিটিতে অনুমোদন হয়েছে। বলে রাখা ভাল, এর আগে ভারতের অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি টিকা আমদানি করা নিয়ে চুক্তিবদ্ধ হয়েছিল বাংলাদেশ। তবে প্রত্যাশামতো পর্যাপ্ত টিকা রপ্তানি করেনি নয়াদিল্লি।

[আরও পড়ুন: রোহিঙ্গাদের টাকাও আত্মসাৎ করেছে হেফাজত নেতারা, প্রকাশ্যে চাঞ্চল্যকর তথ্য]

Advertisement
Next