Advertisement

কেরল লবির হার, ইয়েচুরির সিপিএম-কংগ্রেস জোট তত্ত্বেই সিলমোহর কেন্দ্রীয় কমিটির

10:20 PM Jan 09, 2022 |

বুদ্ধদেব সেনগুপ্ত: কারাট লবির প্রস্তাব খারিজ। রাজনৈতিক লড়াই হাতে হাত ধরেই চালিয়ে যাবে সিপিএম-কংগ্রেস (CPM-Congress)। সিপিএম সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরির রাজনৈতিক রণকৌশলেই সিলমোহর দিল কেন্দ্রীয় কমিটি। হায়দরাবাদে তিনদিনের বৈঠক শেষে ফের সিপিএম-কংগ্রেসের যৌথ লড়াইয়ের রাস্তা চওড়া হল। করোনা (Coronavirus) পরিস্থিতির জন্য রাজ্য সম্মেলনের দিনক্ষণ ঠিক করা যায়নি। তাই পার্টি কংগ্রেস পিছিয়ে দেওয়ার আবেদন জানাল বঙ্গ সিপিএম (CPM)। কেন্দ্রীয় কমিটির কাছে একই আবেদন জানিয়েছে মহারাষ্ট্রও। আগামী ৬থেকে ১০ এপ্রিল কেরলের কান্নুরে সিপিএমের ২৩ তম পার্টি কংগ্রেস হওয়ার কথা।   

Advertisement

সর্বভারতীয় ক্ষেত্রে বিজেপিকেই (BJP) প্রধান শত্রু চিহ্নিত করল সিপিএম। সাম্প্রদায়িক শক্তিকে ঠেকাতে কংগ্রেসের সঙ্গে জোটে যাওয়া ছাড়া বিকল্প নেই। বিজেপি ও কংগ্রেসের থেকে সমদূরত্বের লাইন নিলে পার্টি অপ্রাসঙ্গিক হয়ে যাবে। তাই কংগ্রেস উদার অর্থনীতির প্রবক্তা হলেও সাম্প্রদায়িক শক্তির হাত থেকে দেশকে রক্ষা করাই এখন প্রধান লক্ষ্য হওয়া উচিত। কেন্দ্রীয় কমিটি যাতে ইয়েচুরির রাজনৈতিক রণকৌশলের লাইনেই চূড়ান্ত সিলমোহর দেয় সেজন্য চেষ্টার কসুর করেনি বঙ্গ সিপিএম।

[আরও পড়ুন: মুঘলদের মতো নিজামদেরও মুছে ফেলা হবে দেশের ইতিহাস থেকে, অসমের মুখ্যমন্ত্রীর মন্তব্যে বিতর্ক ]

বৈঠকের প্রথম দু’দিন ইয়েচুরি পক্ষেই সওয়াল করে আলিমুদ্দিন। শেষ পর্যন্ত বঙ্গ সিপিএমের যুক্তি ও ব্যাখ্যা মেনে নেয় কেন্দ্রীয় কমিটি। ইয়েচুরির রাজনৈতিক রণকৌশলের খসড়া প্রস্তাবের ওপর পার্টি কংগ্রেসে আলোচনা হবে। তার আগে অবশ্য জনসাধারণের মতামত নেওয়ার জন্য পার্টির ওয়েবসাইটে খসড়া প্রস্তাবটি দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় কমিটি।

Advertising
Advertising

তবে করোনা পরিস্থিতির জন্য পার্টি কংগ্রেস (Party Congress) কিছুদিন পিছতে পারে বলে জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় কমিটির এক সদস্য। তিনি জানান, রাজ্যে করোনার গ্রাফ ঊর্ধ্বমুখী। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসতে সময় লাগবে। তাই রাজ্য সম্মেলনের দিনক্ষণ এখনও ঠিক করা যায়নি। এমন পরিস্থিতিতে বঙ্গ সিপিএমের পক্ষ থেকে পার্টি কংগ্রেস কিছুদিন পিছিয়ে দেওয়ার আবেদন করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

[আরও পড়ুন: ২৬ ডিসেম্বর পালিত হবে ‘বীর বাল দিবস’, গুরু গোবিন্দ সিংয়ের জন্মজয়ন্তীতে ঘোষণা মোদির]

যদিও কেরল (Kerala) সিপিএমের পক্ষ থেকে জানানো হয়, এপ্রিল মাসের ১৫ তারিখের পর থেকে মালায়ালিদের সবথেকে বড় উৎসব ‘ওনাম’ শুরু হয়। আর গত কয়েক বছর মে মাস থেকেই প্রবল বৃষ্টি হচ্ছে। তাই পার্টি কংগ্রেস পিছিয়ে দিতে হলে দু-একদিনের বেশি নয়। বিষয়টি আপাতত পলিটব্যুরোর সিদ্ধান্তের ওপরই ছেড়ে দিয়েছে কেন্দ্রীয় কমিটি।

Advertisement
Next