অবশেষে আদানিকে পিছনে ফেললেন আম্বানি, ফের এশিয়ার ধনীতম রিলায়েন্স কর্ণধার

01:51 PM Jun 03, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আবারও নিজের হারানো শিরোপা ফিরে পেলেন রিলায়েন্স কর্ণধার মুকেশ আম্বানি (Mukesh Ambani)। পিছনে ফেললেন তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বী গৌতম আদানিকে (Gautam Adani)। ‘ব্লুমবার্গ বিলিয়নেয়ার ইনডেক্স’ অনুযায়ী এই তথ্য জানা গিয়েছে।

Advertisement

এই মুহূর্তে আম্বানির মোট সম্পত্তির পরিমাণ ৯৯.৭ বিলিয়ন ডলার। দ্বিতীয় স্থানে থাকা আদানির সম্পত্তির পরিমাণ ৯৮.৭ বিলিয়ন ডলার। বিশ্বের নিরিখে আম্বানি ও আদানি রয়েছেন যথাক্রমে ৮ ও ৯ নম্বরে। তালিকার শীর্ষে রয়েছেন টেসলা কর্ণধার এলন মাস্ক। পরের তিন স্থানে রয়েছেন জেফ বেজোস, বার্নার্ড আর্নল্ট ও বিল গেটস। গত এপ্রিলের তালিকায় চার নম্বরে ছিলেন আদানি। কিন্তু এবার সেই তালিকা থেকে একধাক্কায় অনেকটাই নেমে এলেন তিনি।

[আরও পড়ুন: মাধ্যমিকের খাতায় কুকথা, উত্তরপত্র বাতিল করে পরীক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে পর্ষদ]

গত বেশ কয়েক মাস ধরেই আম্বানি ও আদানির মধ্যে চলছে দেশ তথা এশিয়ার ধনকুবেরদের তালিকার শীর্ষে থাকার প্রতিযোগিতা। কখনও আম্বানি শীর্ষে থেকেছেন। কখনও তাঁকে সরিয়ে সেই জায়গায় উঠে এসেছেন আদানি।

Advertising
Advertising

করোনার সময়ে আদানির উত্থান ছিল অভাবনীয়। গত এপ্রিলেই জানা গিয়েছিল, তাঁর সম্পদের পরিমাণ পৌঁছে গিয়েছে ১০০ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে। তবে এবার সামান্য কমেছে সেই পরিমাণ। আর তার ফলে তালিকায় কয়েক ধাপের অবনমন। গত বছরের সেপ্টেম্বরের হিসেবেই দেখা গিয়েছিল সম্পত্তির পরিমাণে আম্বানির ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলছেন আদানি।

[আরও পড়ুন: আগামী বছর মাধ্যমিক শুরু ফেব্রুয়ারির শেষ সপ্তাহে, দেখে নিন ২০২৩-এর পরীক্ষাসূচি]

‘আইআইএফএল ওয়েলথ হুরান ইন্ডিয়া’ প্রকাশিত দেশের শীর্ষস্থানীয় ১০ জন ধনকুবেরদের নয়া তালিকায় সেই সময় দুই নম্বরে থাকলেও দেখা গিয়েছিল ২০২১ সালে আদানির সম্পদের পরিমাণ বেড়েছে ২৬১ শতাংশ! দেশের ধনকুবেরদের তালিকায় তাঁর উত্থান আগের সমস্ত পরিসংখ্যানকে অনেক পিছনে ফেলে দিয়েছিল সেই সময়। তখন থেকেই ওয়াকিবহাল মহলের একাংশের দাবি ছিল, আম্বানিকে টপকে যেতে আর খুব বেশি সময় লাগবে না আদানির। শেষ পর্যন্ত সেই সম্ভাবনাই সত্যি হয়। অবশেষে নিজের হারানো স্থান ফিরে পেলেন আম্বানি। তবে শিগগিরি যে ফের আদানি তাঁকে অতিক্রম করে যাবেন না, একথা বলা যাচ্ছে না।

Advertisement
Next