ভারতের রাষ্ট্রপতির ক্ষমতা কতটা? চাইলে কি সরকারের সঙ্গে সংঘাতে যেতে পারেন তিনি?

08:01 PM Jul 21, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিপুল ভোটে জয়ী হয়ে দেশের ১৫তম রাষ্ট্রপতি পদে নির্বাচিত হয়েছেন দ্রৌপদী মুর্মু। বিরোধীদের প্রার্থী যশবন্ত সিনহা তাঁর ধারেকাছেও যেতে পারেননি। বিরোধীরা অবশ্য, আগে থেকেই বলা শুরু করেছেন, দ্রৌপদী মুর্মু (Draupadi Murmu) আসলে বিজেপির রাবার স্ট্যাম্প হিসাবে কাজ করবেন। ইতিহাস অবশ্য বলছে, এখনও পর্যন্ত দেশের অধিকাংশ রাষ্ট্রপতিই মূলত রাবার স্ট্যাম্পের মতো কাজ করেছেন। যে যখন কেন্দ্রে শাসকের আসনে থেকেছে, রাষ্ট্রপতিকেও তাঁদের অনুগ্রহ মেনেই কাজ করতে হয়েছে রাষ্ট্রপতিদের। যদিও সংবিধান মতে দেশের সর্বোচ্চ সাংবিধানিক পদ রাষ্ট্রপতির পদ। প্রধানমন্ত্রীকে (Prime Minister) বরখাস্ত করার ক্ষমতা থেকে সরকার ভেঙে দেওয়া, সব অধিকারই ন্যস্ত থাকে তাঁর হাতে। আর কী কী অধিকার থাকে রাষ্ট্রপতিদের হাতে?

Advertisement

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782001027-0'); });

রাষ্ট্রপতির অধিকার ও কর্তব্য:

window.unibots = window.unibots || { cmd: [] }; unibots.cmd.push(()=>{ unibotsPlayer('sangbadpratidin'); });
  • দেশের প্রধানমন্ত্রীকে শপথবাক্য পাঠ করানোর অধিকার থাকে রাষ্ট্রপতির হাতে
  • যে কোনও মুহূর্তে লোকসভা ভেঙে দিতে পারেন রাষ্ট্রপতি
  • দেশের প্রধান বিচারপতি নিয়োগ করেন রাষ্ট্রপতি
  • বিভিন্ন রাজ্যের রাজ্যপাল নিয়োগ করেন রাষ্ট্রপতি, রাজ্য সরকার ভেঙে দেওয়ার অধিকারও তাঁর হাতে
  • বিভিন্ন দেশে রাষ্ট্রদূত নিয়োগ, একাধিক IAS, IPS, IFS, অ্যাটর্নি জেনারেল সবই নিয়োগ করার সাংবিধানিক অধিকার রয়েছে রাষ্ট্রপতির হাতে

[আরও পড়ুন: মধ্যপ্রদেশের পুরভোটে বিরাট ধাক্কা বিজেপির, গড় হারালেন সিন্ধিয়া, নরেন্দ্র সিং তোমররা]

  • রাষ্ট্রপতি সাংবিধানিক ভাবে দেশের তিন সেনার প্রধান
  • কোনও দেশের সঙ্গে যুদ্ধ ঘোষণা, বা যুদ্ধের সমাপ্তির ঘোষণা করেন রাষ্ট্রপতি
  • অন্য দেশের সঙ্গে চুক্তিপত্র তৈরি হয় রাষ্ট্রপতির নামে
  • রাষ্ট্রপতির স্বাক্ষর ছাড়া সংসদে পাশ হওয়া কোনও বিল আইনে পরিণত হয় না
  • অর্থ বিল এবং সংবিধান সংশোধনী বিল ছাড়া, অন্য সব বিল তিনি চাইলে সংসদে ফেরত পাঠাতে পারেন
  • রাষ্ট্রপতি রাজ্যসভার ১২ জন সদস্যকে মনোনীত করতে পারেন
  • দেশে জরুরি অবস্থা ঘোষণা করতে পারেন রাষ্ট্রপতি।
  • আদালত কাউকে ফাঁসির নির্দেশ দিলে রাষ্ট্রপতি তাঁর ফাঁসির আদেশ রদ করে তাঁকে ক্ষমা করে দিতে পারেন।

[আরও পড়ুন: তৃণমূলের দাবি মানলেন ভেঙ্কাইয়া নায়ডু, রাজ্যসভার ভাইস চেয়ারম্যান প্যানেলে সুখেন্দুশেখর]

যদিও রাষ্ট্রপতির হাতে থাকা এই অধিকারগুলির অধিকাংশই অবশ্য মন্ত্রিসভার অনুমতি সাপেক্ষ। তবে রাষ্ট্রপতি চাইলে নিজে থেকেও সরকারের জনবিরোধী কোনও বিল আটকে দিতে পারেন। বা সরকার জনবিরোধী কাজ করলে সেই সরকারের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ করতেই পারেন।

Advertising
Advertising

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782050143-0'); });
Advertisement
Next