উত্তরপ্রদেশের স্কুলে পড়ুয়াদের মিড-ডে মিলে দেওয়া হচ্ছে নুন-ভাত! ভাইরাল ভিডিও

01:21 PM Sep 29, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রামরাজ্যে নৈরাজ্য! খাস অযোধ্যায় স্কুলপড়ুয়াদের মিড-ডে-মিলে (Mid Day Meal) দেওয়া হচ্ছে নুন-ভাত! প্রকাশ্যে চাঞ্চল্যকর ভিডিও। অস্বস্তির মুখে পড়ে অভিযুক্ত স্কুলের প্রিন্সিপালকে বরখাস্ত করেছে উত্তরপ্রদেশ সরকার। শুধু তাই নয়, ওই গ্রামের গ্রাম প্রধানকেও নোটিস পাঠিয়েছেন অযোধ্যার জেলাশাসক।

Advertisement

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, অযোধ্যার চৌরেবাজার গ্রামের ওই স্কুলে দীর্ঘদিন ধরেই অনিয়ম চলছে। বহুদিন ধরেই পড়ুয়াদের পাতে পড়ছে শুধু নুন-ভাত। সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট হওয়া একটি ভিডিওয় দেখা যাচ্ছে, পুষ্টিকর খাবার তো দূরের কথা, সামান্যতম তরকারিও জোটেনি পড়ুয়াদের পাতে। ওই নুন-ভাত খেয়েই ক্ষুধানিবৃত্তি করছে তাঁরা।

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: বিবাহিত না হলেও গর্ভপাতের সমান অধিকার, ‘বৈবাহিক ধর্ষণ’ও ‘ধর্ষণ’, বেনজির রায় সুপ্রিম কোর্টের]

অভিভাবকরাও স্কুলের ওই বেনিয়মের কথা জানতেন। এর আগে তাঁরা স্কুলে বিক্ষোভও দেখিয়েছে, কিন্তু তাতে লাভ হয়নি। স্কুল কর্তৃপক্ষ ভ্রূক্ষেপও করেনি। তবে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিওটি পোস্ট হওয়ার পর নড়েচড়ে বসেছে যোগীর (Yogi Adityanath) প্রশাসন। অযোধ্যার জেলাশাসক নীতীশ কুমার (Nitish Kumar) ওই স্কুলের প্রিন্সিপালকে সাসপেনশনের নোটিস পাঠিয়েছেন। নোটিস পাঠানো হয়েছে গ্রাম প্রধানকেও। কিন্তু প্রশ্ন উঠছে, উত্তরপ্রদেশে লাগাতার এই ধরনের ঘটনা ঘটছে কী করে?

[আরও পড়ুন: ইরাকে ভয়াবহ হামলা ইরানের, মৃত অন্তত ১৩, বিক্ষোভ থেকে নজর ঘোরাতে যুদ্ধের আশ্রয়!]

গতবছর আগস্ট মাসে উত্তরপ্রদেশেরই মির্জাপুরের একটি স্কুলের মিড-ডে মিলের বেহাল দশা প্রকাশ্যে চলে এসেছিল। পবন জয়সওয়াল নামের এক সাংবাদিকের প্রকাশ করা ভিডিওতে দেখা যায়, স্কুলে একই সারিতে পাত পেড়ে বসে রয়েছে খুদে পড়ুয়ারা৷ তাদের প্রত্যেকের থালাতে দেওয়া হয়েছে নুন এবং হাতে রুটি৷ ডিম, ডাল, সবজি কিছুই জোটেনি। খিদের জ্বালায় বাধ্য হয়ে নুন-রুটি একটু একটু করে খাচ্ছে ছাত্রছাত্রীরা৷ অভিযোগ ওঠে, শুধু নুন-রুটিই নয়৷ মাঝে মাঝে পড়ুয়াদের নুন-ভাতও খেতে দেওয়া হয়৷ বিশেষ কিছু দিনে স্কুলে দুধ আনা হয়৷ তবে তা সব ছাত্রছাত্রীদের হাতে পৌঁছয় না৷ কলাও দেওয়া হয় না তাদের৷ সেই অভিযোগেরই যেন পুনরাবৃত্তি হল অযোধ্যায়।

Advertisement
Next