উইলিয়ামসকে নেওয়ার পর এবার টার্গেট রয় কৃষ্ণ, মোহনবাগান তারকাকে বড় অঙ্কের প্রস্তাব দিল মুম্বই

11:23 AM May 23, 2022 |
Advertisement

দুলাল দে: ডেভিড উইলিয়ামসকে (David Willimas) সই করানোর পর এবার মোহনবাগানের (Mohun Bagan) রয় কৃষ্ণর দিকে হাত বাড়াল মুম্বই সিটি এফসি। যদিও মুম্বইতে সই করবেন বলে এখনই কোনও কথা দেননি রয় কৃষ্ণ (Roy Krishna)। তাকিয়ে রয়েছেন, ইস্টবেঙ্গলের পরিস্থিতির দিকে। লাল—হলুদের হয়ে যাঁরা এই মরশুমে দল গড়তে নেমেছেন, তাঁরা মোহনবাগানের এই ফিজির তারকাকে বলেছেন, বারো দিনের মধ্যে নতুন ইনভেস্টর নিয়ে তাঁদের সামনে চিত্র পরিষ্কার হয়ে যাবে। শুধু রয় কৃষ্ণ নন। অনেক ফুটবলারের সঙ্গেই কথা চূড়ান্ত হয়ে আছে লাল—হলুদের। ইস্টবেঙ্গলের চুক্তিপত্রে সই করার আগে বেশিরভাগ ফুটবলারই জানতে চাইছেন, তাঁদের ভবিষ্যৎ। প্রত্যেকেই জানতে চাইছেন, ক্লাবের ইনভেস্টর কে হবে? সবাইকেই লাল—হলুদের রিক্রুটাররা জানিয়েছেন, বারো দিনের মধ্যে কিছু একটা চূড়ান্ত হয়ে যাবে।

Advertisement

সিটি গ্রুপের সঙ্গে সমস্যা মিটতেই সামনের মরশুমের জন্য কোমড় বেঁধে দল গড়তে নেমেছে মুম্বই সিটি এফসি। এই মরশুমেও মুম্বইয়ের সঙ্গে ম্যাঞ্চেস্টার সিটি শেষ পর্যন্ত থাকবে কি না, তা নিয়েই সত্যিই প্রশ্ন উঠে গিয়েছিল। এরকম নয় যে ম্যাঞ্চেস্টার সিটি বিনিয়োগ করতে চাইছে না। কিন্তু ভারত সরকারের কিছু নিয়মের জন্য মুম্বইতে সিটি গ্রুপের বিনিয়োগ করতে সমস্যা হয়ে যাচ্ছিল।

[আরও পড়ুন: IPL 2022: আইপিএল প্লে অফের বাদ্যি বেজেছে, টিকিটের হাহাকারের মাঝে চর্চায় ইডেনের উইকেট]

মুম্বই সিটি এফসির সঙ্গে ম্যাঞ্চেস্টার সিটির সংযুক্তিকরণ হলেও, যে সংস্থা থেকে বিনিয়োগ হচ্ছিল, সেই সিটি গ্রুপের রেজিষ্ট্রেশন রয়েছে চিনে। কিছুদিন আগেই ভারত সরকার জানিয়ে দিয়েছে, চিনের কোনও কোম্পানি ভারতে বিনিয়োগ করতে পারবে না। এই ফরমানের ফলেই সিটি গ্রুপ থেকে মুম্বই সিটিতে বিনিয়োগ করা নিয়ে প্রশ্ন উঠে গিয়েছিল। একটা সময় মনে হচ্ছিল, সমস্যার জন্য হয়তো শেষ পর্যন্ত ম্যাঞ্চেস্টার সিটির সঙ্গে গাঁটছড়া ভেঙে যাবে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত ঠিক হয়েছে, লন্ডন থেকে সিটি ফুটবল গ্রুপ বিনিয়োগ করবে মুম্বই সিটি এফসির জন্য। আর সেই সূত্রেই এবার বড় করে দল গড়তে নেমে পড়েছে মুম্বই। আর এই কারণে নতুন ফুটবলারের দিকে নজর না দিয়ে ভারতের মাটিতে সফল বিদেশি ফুটবলারদের টার্গেট করছে তারা। সেভাবেই সই করানো হয়েছে ডেভিড উইলিয়ামসকে।

Advertising
Advertising

আইএসএলের প্রতিটি ক্লাবই এশিয়ান কোটায় ভাল বিদেশি ফুটবলার সই করাতে গিয়ে সমস্যায় পড়ে। ডেভিড উইলিয়ামস যেহেতু ইতিমধ্যে আইএসএলে পরীক্ষিত, তাই সবার আগে অস্ট্রেলিয়ান স্ট্রাইকারকে সই করিয়ে নেওয়া হয়েছে। এবার লক্ষ্য, রয় কৃষ্ণ। প্রথমত, অনেকটা সময় ধরে এই দুই ফুটবলার একসঙ্গে খেলেছেন। তার উপর ভারতীয় ফুটবলে রয় কৃষ্ণ রীতিমতো সফল নাম। সেই কারণেই ফিজির এই স্ট্রাইকারকে পেতে চাইছে তারা।

এদিকে, রয় কৃষ্ণর সঙ্গে ইদানীং সম্পর্কও ভাল যাচ্ছে না মোহনবাগানের। শুরুর সেই ফর্মেও নেই তিনি। ফলে রয় কৃষ্ণর জায়গায় অনেকদিন ধরেই নতুন কোনও ভাল বিদেশি স্ট্রাইকার আনার কথা ভাবছে মোহনবাগান ম্যানেজমেন্ট। যে কারণে, রয় কৃষ্ণকে মুম্বই সিটি এফসি বড় অঙ্কর প্রস্তাব দিলেও তাঁকে দলে রাখার জন্য ছুটতে চাইছেন না সবুজ—মেরুন কর্তারা।

মুম্বই বড় প্রস্তাব দিলেও রয় কৃষ্ণ এখনই সম্মতি দিচ্ছেন না একটাই কারণে। অনেকদিন ধরেই ফিজির এই স্ট্রাইকারকে দলে নেওয়ার জন্য প্রস্তাব দিয়ে আসছেন, এই মরশুমের লাল—হলুদ রিক্রুটাররা। রয় কৃষ্ণ বারবার করে জানতে চাইছেন, ইস্টবেঙ্গলের ইনভেস্টরের কথা। সেক্ষেত্রে অন্যান্য ফুটবলারদের লাল—হলুদ কর্তারা যা বলেছেন, রয় কৃষ্ণকেও সেরকমই বলেছেন তাঁরা। জানিয়েছেন, আগামী বারো দিনের মধ্যেই ইনভেস্টরের ব্যাপারে একটা চূড়ান্ত কিছু জানিয়ে দিতে পারবেন তাঁরা।

কারণ, ৯ জুন থেকে ফুটবলারদের সইয়ের জন্য ফিফার প্রথম উইন্ডো খুলছে। এরমধ্যে ইনভেস্টর না পেলে, ফাইন দিয়ে তাদের উপর ফুটবলারদের সই করানোর ব্যান তোলা সম্ভব হবে না। লাল—হলুদ কর্তারা আশাবাদী ইনভেস্টরের সঙ্গে যেভাবে কথা চলছে, তাতে দশ দিনের মধ্যেই সব কিছু চূড়ান্ত হয়ে যাবে। মুম্বই সিটি এফসিতে সইয়ের ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে ইস্টবেঙ্গলের ইনভেস্টর ইস্যুটাও শেষ পর্যন্ত দেখে নিতে চান রয় কৃষ্ণ।

[আরও পড়ুন: ঘোষিত টি-২০ ও টেস্টের ভারতীয় দল, প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে বিশ্রামে রোহিত-কোহলি, ডাক পেলেন উমরান]

Advertisement
Next