দু’দিন নিখোঁজ থাকার পর উদ্ধার TMC নেতার ক্ষতবিক্ষত দেহ, নেপথ্যে রাজনীতি?

02:28 PM Jun 20, 2022 |
Advertisement

রাজা দাস, বালুরঘাট: ফের রাজ্যে তৃণমূল (TMC) নেতার রহস্যমৃত্যু। দু’দিন নিখোঁজ থাকার পর বাড়ির খানিকটা দূর থেকে উদ্ধার ক্ষতবিক্ষত দেহ। ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ দিনাজপুরের তপনে। ইতিমধ্যেই দেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে পুলিশ। প্রাথমিকভাবে মনে করা হয়েছে, খুন করা হয়েছে ওই প্রৌঢ়কে। নেপথ্যে রাজনীতি নাকি অন্য কোনও কারণ, তা এখনও স্পষ্ট নয়।

Advertisement

জানা গিয়েছে, মৃতের নাম আদেশ বর্মন। আনুমানিক বয়স ৫৫ বছর। দক্ষিণ দিনাজপুরের তপন থানা (Tapan) এলাকার বাসিন্দা ছিলেন তিনি। স্থানীয় সূত্রে খবর, তৃণমূলের বুথ সমিতির সহ-সভাপতি ছিলেন আদেশ। গত শুক্রবার বাড়ি থেকে বেরিয়েছিলেন তিনি। তারপর আর ফেরেননি। দীর্ঘক্ষণ পেরিয়ে যাওয়ায় বিভিন্ন এলাকায় তাঁর খোঁজ করে পরিবারের সদস্যরা। কিন্তু তাতে কোনও লাভ হয়নি। পরবর্তীতে শনিবার তপন থানায় নিখোঁজ ডায়েরি করে পরিবার। তাঁদের অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করে পুলিশ।

[আরও পড়ুন: মনসা পুজোর অনুষ্ঠানের মাঝেই ভয়ংকর কাণ্ড, যুবকের আঙুল কামড়ে ছিঁড়ে নিল মদ্যপ প্রতিবেশী!]

রবিবার রাত প্রায় দেড়টা নাগাদ তপনের কাঁদমা এলাকায় পাট ক্ষেতে ক্ষতবিক্ষত অবস্থায় উদ্ধার হয় আদেশের দেহ। রাতেই দেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়েছে। জানা গিয়েছে, ওই প্রৌঢ়ের দেহে একাধিক আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গিয়েছে। ফলে মনে করা হচ্ছে, ধারালো অস্ত্র দিয়ে কোপানো হয়েছে আদেশকে। যদিও ময়নাতদন্তের রিপোর্ট হাতে না আসা পর্যন্ত মৃত্যুর কারণ জানা সম্ভব নয় বলেই দাবি পুলিশের।

Advertising
Advertising

এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে স্বাভাবিকভাবেই উত্তেজনা ছড়িয়েছে এলাকায়। ঘটনার সঠিক তদন্ত ও অভিযুক্তদের শাস্তির দাবি জানিয়েছেন মৃতের পরিবার ও দলের নেতা কর্মীরা। পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, মৃতের সঙ্গে কারও কোনও ব্যক্তিগত শত্রুতা ছিল কি না, তা খতিয়ে দেখা হবে। পাশাপাশি এই ঘটনার নেপথ্যে রাজনীতি রয়েছে কি না, তাও দেখা হচ্ছে। 

[আরও পড়ুন: হাতে আর মাত্র একমাস, একুশে জুলাইয়ের প্রস্তুতিতে ঝাঁপিয়ে পড়ল তৃণমূল]

Advertisement
Next