উপচে পড়া ভিড়ের জের, জল্পেশ মন্দিরের গর্ভগৃহে পূণ্যার্থীদের প্রবেশে জারি নিষেধাজ্ঞা

04:40 PM Aug 05, 2022 |
Advertisement

শান্তনু কর, জলপাইগুড়ি: জল্পেশ মন্দিরের গর্ভগৃহে প্রবেশ করতে পারবেন না পূণ্যার্থীরা। ভিড় এড়াতেই এবার এমন নিষেধাজ্ঞা জারি করল কলকাতা হাই কোর্টের (Calcutta HC) জলপাইগুড়ি সার্কিট বেঞ্চ।

Advertisement

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782001027-0'); });

শ্রাবণ মাসে জল্পেশ মন্দিরে (Jalpesh Temple) ভক্তদের উপচে পড়া ভিড়। তার মধ্যেই কড়া নির্দেশ দিলেন বিচারক। আসলে গত সোমবার জল্পেশ মন্দিরে শিবের মাথায় জল ঢালতে গিয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েন এক পূণ্যার্থী। দর্শনার্থীদের জনসমুদ্রের জেরেই অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন তিনি বলে খবর। এ ব্যাপারে জলপাইগুড়ি সার্কিট বেঞ্চে মামলা দায়ের করেন ওই পূণ্যার্থী। সেই মামলার রায়ে আজ, শুক্রবার বিচারপতি জল্পেশ মন্দিরের গর্ভগৃহে ভক্তদের প্রবেশের উপর নিশেধাজ্ঞা জারি করেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়।

window.unibots = window.unibots || { cmd: [] }; unibots.cmd.push(()=>{ unibotsPlayer('sangbadpratidin'); });

[আরও পড়ুন: গরু পাচার মামলায় অনুব্রত মণ্ডলকে ফের CBI তলব, সোমবার হাজিরার নির্দেশ]

বিচারপতি জানান, শ্রাবণ মাসের বাকি রবিবার ও সোমবার নিষেধাজ্ঞা কার্যকর করতে হবে। সেই সঙ্গে গর্ভগৃহে প্রবেশ না করেও যাতে পূর্নার্থীরা বাইরে থেকে জল ঢালতে পারেন, সেই ব্যবস্থা করতে হবে স্থানীয় প্রশাসনকে। পূণ্যার্থীদের জল ঢালার দৃশ্য তাঁদের দেখার ব্যবস্থাও করতে হবে বলে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি পূণ্যার্থীদের প্রবেশের উপর কোনও প্রবেশ মূল্য ধার্য করা যাবে না বলেও রায় দেয় হাই কোর্টের সার্কিট বেঞ্চ। সম্প্রতি বাংলায় মাথাচাড়া দিয়েছে করোনা ভাইরাস। সেই কথা মাথায় রেখে সকল পুণ্যার্থীকে কোভিডবিধি মেনে মন্দির চত্বরে প্রবেশের নির্দেশ দিয়েছেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়।

Advertising
Advertising

googletag.cmd.push(function() { googletag.display('div-gpt-ad-1652782050143-0'); });

গত দু’বছরে করোনার কারণে শ্রাবণ মাস উপলক্ষে মন্দিরে মেলা বন্ধ ছিল। এ বছর মন্দির ও মেলা প্রাঙ্গণে ‘সিঙ্গল ইউজ প্লাস্টিক’ ব্যবহারেও নিষেধাজ্ঞা জারি হয়েছে। পূণ্যার্থীদের নিরাপত্তাতেও কোনও ত্রুটি রাখতে চায় না জলপাইগুড়ি ও ময়নাগুড়ি পুলিশ প্রশাসন। তার জন্য বিশাল পুলিশ মোতায়ন করা হয়েছে। মন্দির কমিটির তরফে প্রায় ৩২টি সিসিটিভি ক্যামেরাও লাগানো হয়েছে। রয়েছেন একশোরও বেশি স্বেচ্ছাসেবক। তবে এবার ভিড় এড়াতে গর্ভগৃহে প্রবেশ বন্ধ করা হচ্ছে।

[আরও পড়ুন: নতুন করে 2G দুর্নীতি মামলা খুঁচিয়ে তোলার চেষ্টা! দিল্লি হাই কোর্টে বিশেষ আবেদন সিবিআইয়ের]

Advertisement
Next