মহাত্মা গান্ধীর খুনি গডসের নামে রাস্তা কর্ণাটকে, খবর চাউর হতেই ফলক সরাল প্রশাসন

03:41 PM Jun 07, 2022 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: হিজাব বিতর্কে উত্তাল হয়েছিল কর্ণাটকের (Karnataka) যে জেলা, সেই উডুপির (Udupi) একটি গ্রামীণ রাস্তা এবার মহাত্মা গান্ধীর (Mahatma Gandhi) হত্যাকারী নাথুরাম গডসের (Nathuram Godse) নামে। ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই বিতর্ক চরমে ওঠে। যদিও ইতিমধ্যে কন্নড় ভাষায় লেখা ‘পাদুগিরি নাথুরাম গডসে রোড’ ফলকটি সরিয়ে ফেলা হয়েছে প্রশাসনের তরফে। স্থানীয় থানায় এফআইআর (FIR) দায়ের হয়েছে। ঘটনার তদন্ত নেমেছে পুলিশ।

Advertisement

উডুপির বোলা গ্রাম পঞ্চায়েত দপ্তরের সামনের রাস্তায় ওই ফলকটি কেউ বা কারা বসায়। সেই ছবি নেট মাধ্যমে ভাইরাল হওয়ার পরে শোরগোল পড়ে যায়। যদিও পঞ্চায়েতের দাবি, ওই রাস্তার নামকরণ করা হয়নি, ওই ফলকও তারা বসাননি। পঞ্চায়েত উন্নয়ন দপ্তরের আধিকারিক রাজেন্দ্র কুমার জানিয়েছেন, সোমবার ওই ফলকের কথা জানতে পারেন তিনি। তাঁর জানা নেই কে বা কারা ওই ফলক ওখানে বসিয়েছিল। তিনি বলেন, “পঞ্চায়েত গডসের নামে কোনও ফলকের অনুমতি দেয়নি। আমরা কারকাল থানায় অভিযোগ দায়ের করেছি। পুলিশ ব্যবস্থা নেবে।”

[আরও পড়ুন: উপনির্বাচনে অখিলেশকে সমর্থন কংগ্রেসের, বিজেপি বিরোধিতায় মমতার পথে সোনিয়ারা]

এক পুলিশ অধিকারিক জানিয়েছেন, গ্রামবাসীদের বক্তব্য দিন দুই আগে ওই ফলক লাগানো হয়েছিল। তবে কেউ সেটিকে লাগাতে দেখেননি। ফলে এখনও পর্যন্ত অভিযুক্তদের খোঁজ মেলেনি। স্থানীয় বিজেপি বিধায়কেরও দাবি, “রাতের অন্ধকারে কে বা কারা ওই ফলকটি বসিয়ে দিয়েছে।” 

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: গোয়ায় ছুটি কাটাতে এসে পুরুষসঙ্গীর সামনেই ধর্ষিতা বিদেশিনী, গ্রেপ্তার যুবক]

প্রসঙ্গত, গেরুয়া শিবিরের গডসে প্রেম নতুন কথা নয়। ইদানিংকালে হিন্দুত্ববাদীরা প্রকাশ্যেই গডসে বন্দনা করে থাকেন। মেরঠ শহরের নাম বদলে ‘পণ্ডিত নাথুরাম গডসে নগর’ করার দাবি উঠেছে। বহু জায়গায় গডসের মূর্তি গড়ার কথাও জানা গিয়েছে। অপরপক্ষ গান্ধীবাদীরা সেই মূর্তি ভাঙচুর করায় তাও খবরে আসে। গত বছর গান্ধী জয়ন্তিতে ‘#নাথুরাম গডসে জিন্দাবাদ’ ট্রেন্ড হয়েছিল। অন্যদিকে ছত্তিশগড়ের ধর্মসংসদে স্বঘোষিত ধর্মগুরু কালীচরণ মহারাজ গান্ধীকে হত্যা করায় গডসের প্রশংসা করেছিলেন। প্রকাশ্য সভায় তিনি বলেন, “গান্ধীকে হত্যা করে প্রকৃত দেশপ্রেমের কাজ করেছেন নাথুরাম গডসে।” এরপর তাঁকে গ্রেপ্তারও করা হয়।  

Advertisement
Next