TMC in Tripura: ফের ত্রিপুরায় আক্রান্ত তৃণমূল, কর্মসূচিতে বাধা দিতে বিধায়ককে মারধর, কাঠগড়ায় বিজেপি

10:23 PM Dec 26, 2021 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের ত্রিপুরায় (Tripura) আক্রান্ত তৃণমূল। দলীয় কর্মসূচি সেরে ফেরার পথে রাজধানী আগরতলার ধর্মনগরের কাছে হামলার মুখে পড়লেন তৃণমূল (TMC) বিধায়ক আশিস দাস। তাঁর গাড়ি আটকে মারধরের অভিযোগ উঠল বিজেপি (BJP) আশ্রিত দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে।  তাঁর জামাকাপড় ছিঁড়ে দেওয়া হয়েছে বলেও অভিযোগ। এ নিয়ে তিনি থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে বিবৃতি জারি করেছে ত্রিপুরার তৃণমূল নেতৃত্ব। 

Advertisement

পুলিশের কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের আক্রান্তের।

জানা গিয়েছে, রবিবার সন্ধের দিকে চাঁদপুর থেকে ধর্মনগরে দলীয় একটি কর্মসূচিতে যোগ দিতে যাচ্ছিলেন সুরমার তৃণমূল নেতা আশিস দাস। সেসময় তাঁর গাড়ি ঘিরে ধরে কয়েকজন দুষ্কৃতী। তাঁরা সকলেই মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবের অনুগামী বলে অভিযোগ আশিস দাসের। তাঁর আরও অভিযোগ, গাড়িতে হামলা চালিয়ে তার কাচ ভেঙে ফেলা হয়। এরপর তাঁর উপর যথেচ্ছ কিল, চড়, ঘুষি চলে। বিধায়কের জামাকাপড় ছিঁড়ে ফেলা হয়েছে বলে অভিযোগ। থানায় অভিযোগ জানিয়ে তিনি লিখেছেন, ”ভারতীয় জনতা পার্টির গুন্ডারা আমায় অশ্রাব্য ভাষায় গালিগালাজ দিতে থাকে। আমার মোবাইল নিয়ে যায়।” এই হামলার জন্য সরাসরি মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবকে দায়ী করেছেন তৃণমূল বিধায়ক আশিস দাস। 

[আরও পড়ুন: তুষারপাতে বিপর্যস্ত সিকিম, ছাঙ্গুতে আটক হাজারের বেশি পর্যটককে উদ্ধার করল সেনা]

এদিনের হামলা নিয়ে ফের রাজনৈতিক চাপানউতোর শুরু হয়ে গিয়েছে। স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব ঘটনাকে ‘বিজেপির গুন্ডারাজ’ বলে চিহ্নিত করে লিখিত বিবৃতিতে নিন্দা জানিয়েছে। এই ঘটনা একেবারেই মেনে নেওয়া যায় না বলে উল্লেখ করে বিজেপির বিরুদ্ধে সমবেত হওয়ার ডাক দিয়েছে তৃণমূল নেতৃত্ব। প্রসঙ্গত, এদিনই কাঞ্চনপুরে শতাধিক মানুষ আশিস দাসের হাত ধরে তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন। ফলে আরও শক্তিশালী হয়েছে তৃণমূল। তা মেনে নিতে না পেরে বিধায়কের উপর বিজেপি এই হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগে সরব ত্রিপুরার ঘাসফুল শিবির। জানুয়ারিতেই ত্রিপুরা সফরে যাচ্ছেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর সফরে এই বিষয়টি নিয়ে ফের প্রতিরোধ গড়ে উঠবে বলে মনে করা হচ্ছে। 

Advertising
Advertising

[আরও পড়ুন: বাংলায় আরও বাড়ছে ওমিক্রন আক্রান্তের সংখ্যা? সন্দেহভাজনের তালিকায় বিদেশফেরত ৪]

Advertisement
Next