নির্যাতিতা নাবালিকার পরিবারের ভিডিও পোস্ট করায় এবার ফেসবুকের রোষানলে Rahul Gandhi

01:03 PM Aug 18, 2021 |
Advertisement

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ধর্ষিতার পরিবারের ছবি পোস্ট করায় রাহুল গান্ধীর (Rahul Gandhi) অ্যাকাউন্ট লক করে দিয়েছিল টুইটার। এবার এই একই ‘অপরাধে’র জন্য তাঁকে নোটিস ধরাল ফেসবুক। মার্ক জুকারবার্গের সংস্থার তরফে তাঁকে জানানো হয়, ইনস্টাগ্রামে (Instagram) নির্যাতিতার পরিবার নিয়ে তিনি যে পোস্টটি করেছেন, তা যেন মুছে ফেলেন।

Advertisement

রাজধানীর বুকে ন’বছরের নাবালিকাকে ধর্ষণ করে খুন। পরিবারকে না জানিয়ে দেহ পুড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগ। দিল্লির নৃশংস সেই ঘটনায় (Delhi minor rape case) কেঁপে উঠেছিল গোটা দেশ। প্রতিবাদে সরব হয়েছিলেন কংগ্রেস সাংসদ রাহুল গান্ধীও। মর্মান্তিক সেই ঘটনার পর মৃতার পরিবারের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন তিনি। আর তারপরই করে ফেলেন মস্ত বড় ‘ভুল’। নৃশংস অত্যাচারের শিকার ওই নাবালিকার পরিবারের সদস্যদের ছবি নিজের সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্টে পোস্ট করেন তিনি। যা অনুচিত তো বটেই আইনের চোখে অপরাধও। যার জেরে তীব্র বিতর্কের মুখে পড়তে হয় প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতিকে। এই টুইটের জন্য রাহুলকে চূড়ান্ত আক্রমণ করেন বিজেপি মুখপাত্র সম্বিত পাত্রও (Sambit Patra)।

[আরও পড়ুন: Afghan মহিলাদের জন্য বাধ্যতামূলক নয় বোরখা! হিজাব পরতেই হবে, ঘোষণা তালিবানের]

সেই পোস্টটি প্রথমে সরিয়ে ফেলা হয় টুইটার (Twitter) থেকে। তারপর রাহুল গান্ধীর অ্যাকাউন্টটিও ব্লক করে দেওয়া হয়েছিল। পরে অবশ্য নিজের অ্যাকাউন্ট ফিরে পান রাহুল। কিন্তু সেই ঘটনার রেশ যে এখনও কাটেনি, সেটাই এবার মনে করিয়ে দিল ফেসবুক।

Advertising
Advertising

জনপ্রিয় সোশ্যাল মিডিয়া জায়ান্ট রাহুলকে নোটিস ধরিয়েছে। যেখানে লেখা, “ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে আপনি একটি পোস্ট আপলোড করেছিলেন। যা জুভেনাইল জাস্টিস আইনের ৭৪ নম্বর ধারা, POCSO আইনের ধারা এবং ভারতীয় দণ্ডবিধির ২৮৮এ ধারা ভঙ্গ করে। জাতীয় শিশু সুরক্ষা অধিকার কমিশনের (NCPCR) নোটিস অনুযায়ী, আপনাকে ওই পোস্টটি সরিয়ে ফেলার অনুরোধ করা হচ্ছে।” ইনস্টাগ্রামে সেই ভিডিওটি এখনও রয়েছে। ফেসবুকের (Facebook) নোটিস মেনে রাহুল গান্ধী কী পদক্ষেপ করেন, সেটাই দেখার।

[আরও পড়ুন: ফের কলকাতায় গ্রেপ্তার ভুয়ো পুলিশ অফিসার, হেলমেট না পরাতেই পর্দাফাঁস]

Advertisement
Next